এখন পড়ছেন
হোম > রাজনীতি > তৃণমূল > তৃণমূল-বিজেপি নয়, দলবদলের হিড়িকে নজিরবিহীন সিদ্ধান্ত শ্রীলেখার, রাজনীতিতে নামা নিয়ে জল্পনা!

তৃণমূল-বিজেপি নয়, দলবদলের হিড়িকে নজিরবিহীন সিদ্ধান্ত শ্রীলেখার, রাজনীতিতে নামা নিয়ে জল্পনা!



প্রিয় বন্ধু মিডিয়া রিপোর্ট – তিনি যে বরাবর বাম সমর্থক, তা সকলেই জানেন। কিন্তু বর্তমান পরিস্থিতিতে যখন বামেরা কিছুটা হলেও অপ্রাসঙ্গিক এবং সকল অভিনেতা-অভিনেত্রীর থেকে শুরু করে বিশিষ্টজনেরা হয় তৃণমূল, না হয় বিজেপিতে যোগ দিচ্ছেন, তখন শ্রীলেখা মিত্তকে নিয়ে তৈরি হতে শুরু করেছে জল্পনা। তিনি কি এতদিন যেভাবে বামেদের সমর্থক হয়েছিলেন, সেভাবেই থাকবেন! নাকি তাকেও এবার রাজনীতিতে নামতে দেখা যাবে! সাম্প্রতিককালে এই গুঞ্জন ক্রমশ মাথাচাড়া দিতে শুরু করেছে। আর এই পরিস্থিতিতে এবার প্রকাশ্যে বামেদের মঞ্চে বিশিষ্ট অভিনেত্রী শ্রীলেখা মিত্রকে দেখতে পাওয়ায় রাজনীতিতে তার পদার্পণ নিয়ে শুরু হল জল্পনা।

সূত্রের খবর, এদিন যাদবপুরে শহীদ কমরেড মইদুল ইসলাম মিদ্যার স্মরণে বামেদের পক্ষ থেকে একটি সভার আয়োজন করা হয়। আর সেখানেই উপস্থিত থাকতে দেখা যায় শ্রীলেখা মিত্রকে। আর বামেদের এই সভায় তিনি যে উপস্থিত ছিলেন, তা রীতিমত নিজের ফেসবুকে পোস্টে শেয়ার করেছেন শ্রীলেখাদেবী। পাশাপাশি ক্যাপশানে বামেদের হয়ে ভোট চাইতেও দেখা গেছে তাকে।

স্বাভাবিক ভাবেই বিধানসভা নির্বাচনের আগে যখন বাংলা ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রির বিশিষ্ট অভিনেতা অভিনেত্রীরা তৃণমূল এবং বিজেপিতে যোগ দিতে শুরু করেছেন, তখন শ্রীলেখা মিত্র যে কিছুটা ভিন্ন পথ অবলম্বন করবেন, তা কার্যত নিশ্চিত। যখন সিপিএম রাজ্য রাজনীতির পাদপ্রদীপ থেকে কিছুটা হলেও পেছনের দিকে, তখন শ্রীলেখা মিত্রের এইভাবে বামেদের সমর্থনে কথা বলা নিঃসন্দেহে তাৎপর্যপূর্ণ বলেই মনে করছেন একাংশ।

ফেসবুকে আমাদের নতুন ঠিকানা, লেটেস্ট আপডেট পেতে আজই লাইক ও ফলো করুন – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের টেলিগ্রাম গ্রূপে জয়েন করতে – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের সিগন্যাল গ্রূপে জয়েন করতে – ক্লিক করুন এখানে



আপনার মতামত জানান -

জানা গেছে, এদিনের এই সভায় উপস্থিত হয়ে শ্রীলেখা মিত্র সরাসরি বামেদের প্রতি আস্থা রাখার কথা জানিয়ে দেন। তিনি বলেন, “এখানে আসব বলে চুলে লাল রং করিয়েছি। ভয় নেই। সবুজ বা গেরুয়া করব না।” অর্থাৎ বাংলার বিশিষ্টজনেরা এবং বিশিষ্ট অভিনেতা অভিনেত্রীরা যখন তৃণমূল এবং বিজেপিকে বেছে নিচ্ছেন, তখন তিনি যে বামেদের প্রতি ভরসা রাখছেন, তা বুঝিয়ে দিলেন শ্রীলেখা মিত্র। শুধু তাই নয়, তার এই মন্তব্য থেকে পরিষ্কার হয়ে গেল যে, আগামী দিনে বামেদের সভা-সমিতিতে আরও বেশি করে উপস্থিত থাকতে দেখা যাবে তাকে. স্পষ্ট ভাষায় তিনি জানিয়ে দিয়েছেন, তিনি শিরদাঁড়া বিক্রি করার মানুষ নন।

পর্যবেক্ষকদের দাবি, শ্রীলেখা মিত্র হয়ত বা এই ধরনের কথা বলে নিজেকে ব্যতিক্রমী চরিত্র হিসেবে তুলে ধরতে চাইছেন। কেননা বাংলায় বর্তমানে প্রায় প্রত্যেকেই হয় তৃণমূল কংগ্রেস এবং তা না হলে বিজেপিকে বেছে নিচ্ছেন। সেদিক থেকে সিপিএম তথা বামফ্রন্ট কিছুটা অপ্রাসঙ্গিক হয়ে গেলেও, তিনি যে তার পুরনো অবস্থানে অনড় এবং আগের থেকে বেশি করে যে বামেদের হয়ে মিটিং মিছিলে অংশগ্রহণ করবেন, তা শ্রীলেখা মিত্রের এই কথার মধ্যে দিয়েই পরিষ্কার হয়ে গেল বলে মনে করছেন বিশেষজ্ঞরা।

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!