এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > উত্তরবঙ্গ > ৪০ বছর ধরে বাম-কংগ্রেসের দখলে থাকা দূর্গেও অবশেষে উড়ল তৃণমূলের জয়পতাকা

৪০ বছর ধরে বাম-কংগ্রেসের দখলে থাকা দূর্গেও অবশেষে উড়ল তৃণমূলের জয়পতাকা



রাজ্যে বাম ও কংগ্রেসের ভিত দুর্বল হলেও কিছু জেলায় এখনো তাঁদের মজবুত সংগঠন ছিল। এবার সেই সংগঠনে শাসকের থাবা পড়তেই সেখানেও বিরোধী বাম ও কংগ্রেসে শুরু হল তীব্র রাজনৈতিক রক্তক্ষরন। জানা যায়, উত্তরবঙ্গের আলিপুরদুয়ার ২ নম্বর ব্লকের শামুকতলা পঞ্চায়েতটিকে বলা হত কংগ্রেস দুর্গ।

দীর্ঘ ৩৪ বছরের বাম সরকারও এই শামুকতলাকে নিজেদের দখলে আনার শতচেষ্টা করেও ব্যার্থ হয়েছে। অপরদিকে মাঝেরডাবি ছিল বামাদের শক্ত ঘাঁটি। এখানেও কোনো দলই বামদের মজবুত ভিতে ফাটল ধরাতে পারেনি এতদিন। কিন্তু কালের নিয়মে সেই কাজটিই করে দেখাল রাজ্যের বর্তমান শাসকদল তৃনমূল কংগ্রেস।

সূত্রের খবর, ১৬ আসনবিশিষ্ট এই শামুকতলা পঞ্চায়েতে তৃনমূল ১০ টি, কংগ্রেস তিনটি, বিজেপি দুটি ও নির্দল একটি আসন পায়। অপরদিকে ২২ আসনবিশিষ্ট মাঝেরডাবিতে তৃনমূল ১৮ টি, নির্দল দুটি এবং বিজেপি ও সিপিএম একটি করে আসন পায়। গত বৃহস্পতিবার এই দুই পঞ্চায়েত সহ বেশ কয়েকটি পঞ্চায়েতে সর্বসম্মতিক্রমে নিজেদের বোর্ড গঠন করল শাসকদল।

আরো খবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

এবার থেকে প্রিয় বন্ধুর খবর পড়া আরো সহজ, আমাদের সব খবর সারাদিন হাতের মুঠোয় পেতে যোগ দিন আমাদের হোয়াটস্যাপ গ্রূপে – ক্লিক করুন এই লিঙ্কে

তৃনমূলের তরফে জানা গেছে, শামুকতলায় প্রধান হিসাবে পবন রাই ও উপপ্রধান হিসাবে কনিকা কেরকেট্টাকে নির্বাচিত করা হয়েছে এবং মাঝেরডাবিতে প্রধান হিসাবে জেলার যুব তৃনমূলের সহ সভাপতি মানস রায়ের স্ত্রী বুবুন রায় এবং উপপ্রধান হিসাবে ধীরেন্দ্রনাথ মাহাত নির্বাচিত হন। এদিন এই বোর্ড গঠনের পরেই এলাকায় মিষ্টিও বিতরন করা হয় শাসকদলের পক্ষ থেকে।

জানা যায়, এই বোর্ড গঠনে বিরোধীরাও উপস্থিত ছিলেন। এদিকে দীর্ঘদিনের বাম ও কংগ্রেসের দখলে থাকা এই দুই পঞ্চায়েত নিজেদের দখলে আসা প্রসঙ্গে জেলা তৃনমূলের সভাপতি মোহন শর্মা বলেন, “এই দুই পঞ্চায়েতে বাম ও কংগ্রেস জমানার অবসান ঘটানোর পাশাপাশি জেলায় লোকসভা নির্বাচনের প্রস্তুতিও শুরু হয়ে গেল”। সব মিলিয়ে নির্বাচনে লড়াই করে এবার ৪০ বছর ধরে বিরোধীদের দখলে থাকা পঞ্চায়েতগুলি নিজেদের দখলে এনে তাক লাগাল তৃনমূল কংগ্রেস।

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!