এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > কলকাতা > পুরভোটের রণকৌশল ঠিক আজই? বৈঠকে স্বয়ং তৃণমূল নেত্রী, চূড়ান্ত জল্পনা শাসকদলের অন্দরে

পুরভোটের রণকৌশল ঠিক আজই? বৈঠকে স্বয়ং তৃণমূল নেত্রী, চূড়ান্ত জল্পনা শাসকদলের অন্দরে



লোকসভা নির্বাচনের পর এই মুহূর্তে গুরুত্বপূর্ণ নির্বাচন পশ্চিমবঙ্গের দরজায়। অতএব পুরনির্বাচনকেই এই মুহূর্তে পাখির চোখ করেছে তৃণমূল। সূত্রের খবর, সামনের এপ্রিলের মাঝামাঝি কলকাতা পৌরনিগমের ভোট হতে চলেছে। আর তার পরেই রাজ্যের বাকি পুরসভাগুলিতেও ভোট হবে বলে জানা গেছে। এই পরিস্থিতিতে নির্বাচনের রণকৌশল ঠিক করতে আজ তৃণমূল ভবনে শাসকদল বৈঠকে বসছে বলে জানা গেছে। এই বৈঠকে স্বয়ং মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ও উপস্থিত থাকবেন বলে খবর। এর সাথে এই বৈঠকে আসতে চলেছেন তৃণমূলের সমস্ত জেলা সভাপতিরা।

উত্তরবঙ্গ সফর সেরে কলকাতায় ফিরছেন দলনেত্রী তথা মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। সূত্রের খবর, তিনি বিমানবন্দর থেকে সরাসরি তৃণমূল ভবনে দলীয় বৈঠকে পৌঁছাবেন। এই বৈঠকে সমস্ত দলের জেলা সভাপতিরা ছাড়াও উপস্থিত থাকবেন দলের মহাসচিব পার্থ চট্টোপাধ্যায়, রাজ্য সভাপতি সুব্রত বক্সি, যুব সভাপতি অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়সহ বিভিন্ন জেলার ভারপ্রাপ্ত নেতারা। উল্লেখ্য, লোকসভা ভোটের পর বেশ কিছুটা ব্যাকফুটে চলে গেলেও তৃণমূল এই মুহূর্তে রাজনৈতিক মঞ্চে বেশ কিছুটা সামনে চলে এসেছে আবার। রাজনৈতিক সমালোচকদের মতে, এর পিছনে আছে ভোট কৌঁশলী প্রশান্ত কিশোরের মস্তিষ্ক।


দেশে যে কোনো দিন ব্যান হয়ে যেতে পারে হোয়াটস্যাপ। তাই এখন থেকে আমরা শুধুমাত্র টেলিগ্রাম ও সিগন্যাল অ্যাপে। প্রিয় বন্ধু মিডিয়ার নিউজ নিয়মিতভাবে পেতে যোগ দিন –

টেলিগ্রাম গ্রূপটাচ করুন এখানে

সিগন্যাল গ্রূপটাচ করুন এখানে



আপনার মতামত জানান -

অন্যদিকে, কেন্দ্রীয় সরকারের বিরুদ্ধে ইতিমধ্যে তীব্র আন্দোলন শুরু করেছে পশ্চিমবঙ্গ সরকার। সংশোধনী নাগরিকত্ব আইনের বিরুদ্ধে লাগাতার আন্দোলন চালিয়ে যাচ্ছেন মুখ্যমন্ত্রী নিজে। প্রতিবাদ করতে গিয়ে তিনি রাজপথে পা মিলিয়েছেন দলীয় কর্মীদের সঙ্গে এবং সেখান থেকেই তিনি মোদি বিরোধী আন্দোলন চালিয়ে যাচ্ছেন। অন্যদিকে, এই পুর ভোটকে কেন্দ্র করে বিজেপিও বিভিন্ন পদক্ষেপ গ্রহণ করতে শুরু করেছে। ইতিমধ্যেই সে কথা মাথায় রেখেই এদিন দলের পরবর্তী রাজনৈতিক কর্মসূচি এবং পুর ভোটকে মাথায় রেখে নির্বাচনী রণকৌশল প্রস্তুত করতে এই বৈঠকের অবতারণা।

আর কিছুদিনের মধ্যেই এরাজ্যে হতে চলেছে পুরসভা নির্বাচন। এবং তারপরেই 2021 এর বিধানসভা নির্বাচন। তবে প্রথমভাগে হওয়া এই পুরসভা নির্বাচন নিয়ে এই মুহূর্তে টানটান উত্তেজনা রাজনৈতিক শিবিরে। অন্যদিকে, রাজনৈতিক বিশেষজ্ঞদের মতে বিধানসভা নির্বাচনের আগে এই পুরসভা নির্বাচন হওয়ায় রাজ্যের রাজনৈতিক আবহাওয়ার অনেকটাই হদিশ পাওয়া যাবে। এবং এই রাজনৈতিক আবহাওয়াকে নিজেদের দিকে টানতে প্রতিটি রাজনৈতিক দল এবার তৈরি হচ্ছে। এই মুহূর্তে রাজনৈতিক লড়াইয়ে টিকে থাকার জন্য চূড়ান্ত ব্যস্ততা রাজনৈতিক দলগুলির মধ্যে। আপাতত পরিস্থিতির ওপর নজর রাখছে রাজ্যের ওয়াকিবহাল মহল।

তবে এই বৈঠক নিয়ে শাসকদলের অন্দরে শুরু হয়েছে চূড়ান্ত জল্পনা। কেননা, বিভিন্ন সূত্রের খবর অনুযায়ী – এই পুরভোট নিয়ে ইতিমধ্যেই সমীক্ষা চালিয়েছে প্রশান্ত কিশোরের টীম। আর সেই সমীক্ষা অনুযায়ী, এবার পুরভোটে ৫০%-এর বেশি সিটিং কাউন্সিলর আর নাকি টিকিটই পাবেন না। অন্যদিকে, সংরক্ষণের গেরোয় ওয়ার্ড হারাতে পারেন বহু হেভিওয়েট। তাঁদের পুনর্বাসনের কি হবে? তাও আসতে পারে আলোচ্য সূচিতে। সব মিলিয়ে পুরভোটের পরিকল্পনা নিয়ে সাজো সাজো রব শাসকদলের অন্দরে।

আপনার মতামত জানান -

ট্যাগড
Top
error: Content is protected !!