এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > কলকাতা > ভিড় পাতলা ২১ শের সমাবেশ! অনেক চেষ্টা করেও এড়ানো গেল না অস্বস্তি!

ভিড় পাতলা ২১ শের সমাবেশ! অনেক চেষ্টা করেও এড়ানো গেল না অস্বস্তি!



লোকসভা নির্বাচনে গেরুয়া শিবিরের কাছে রীতিমত হামাগুড়ি খেতে হয়েছে! উত্তরবঙ্গে তো দল ধুয়েমুছে সাফ হয়ে গেছে! দক্ষিণবঙ্গেও গেরুয়া উত্থানে রীতিমত নাভিশ্বাস ওঠার জোগাড় বেশিরভাগ জেলায়, সেখানে ২১ শের সমাবেশ নিয়ে রীতিমত চিন্তিত ছিলেন তৃণমূলের কর্তাব্যক্তিরা! কেনান, এবারের ২১ শের সমাবেশে ভিড় দেখাতে না পারলে আরও তীব্র হবে গেরুয়া আগ্রাসন!

কিন্তু অনেক চেষ্টা করেও ‘ভিড় পাতলা’ সমাবেশই শেষপর্যন্ত সামনে এল – যা দিনের শেষে কপালে চিন্তার ভাঁজ আরও চওড়া করল ঘাসফুল শিবিরের! প্রথমেই, সমাবেশে ভিড় উপচে পড়েছে দেখতে মূল মঞ্চের সামনের দীর্ঘ জায়গা ব্যারিকেড করে ঘিরে দিয়ে ফাঁকা করে দেওয়া হয়। যাতে ভিড়টাই শুরু হয় একটু দূর থেকে মানে টিপু সুলতান মসজিদ-এর সামনে থেকে। তাতেও দেখা গেল কেসি দাস পেরোতেই জায়গায় জায়গায় ‘ভিড়ের টাক’ দেখা যাচ্ছে!


WhatsApp-এ প্রিয় বন্ধু মিডিয়ার খবর পেতে – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের অন্যান্য সোশ্যাল মিডিয়া গ্রূপের লিঙ্ক – টেলিগ্রামফেসবুক গ্রূপ, ট্যুইটার, ইউটিউব, ফেসবুক পেজ

আমাদের Subscribe করতে নীচের বেল আইকনে ক্লিক করে ‘Allow‘ করুন।

এবার থেকে আমাদের খবর পড়ুন DailyHunt-এও। এই লিঙ্কে ক্লিক করুন ও ‘Follow‘ করুন।



আপনার মতামত জানান -

এরপর, সভার ভিড় যাতে কলকাতা দর্শনে বেরিয়ে গিয়ে, আরও পাতলা হয়ে আরও বিব্রত না করে, তাই চিড়িয়াখানা সভা শেষ হওয়ার আধ ঘন্টা বাদে খোলা হবে বলে জন্যে দেওয়া হয়। কিন্তু, বর্ষাকালেও চড়া রোদে দুপুর ১২ টাতেই সভা থেকে জনতা বাড়িমুখী হতে শুরু করে। খবর পেয়েই, ছেঁটে ফেলা হয় সুদীপ বন্দ্যোপাধ্যায় ও সুব্রত মুখোপাধ্যায়ের বক্তৃতা। নির্দিষ্ট সময়ের ২০ মিনিট আগে নিজের বক্তব্য শুরু করেন তৃণমূল নেত্রী মামাত বন্দ্যোপাধ্যায়।

মঞ্চে গরম বক্তৃতার আগুন ছোটাচ্ছেন তৃণমূল নেত্রী। কিন্তু, ততক্ষনে আরও পাতলা ভিড়! তৃণমূল নেত্রী বললেন রেড রোডে নাকি ২-৩ লক্ষ মানুষ দাঁড়িয়ে আছেন, তাঁরা নড়তেই পারছেন না। মনে হচ্ছে ব্রিগেডও আরেকটা সভা করছে তৃণমূল! কিন্তু, সেই নেত্রীই শেষমেশ বলেই ফেললেন – আমি সবাইকে অনুরোধ করব, কেউ মিটিং ছেড়ে যাবেন না, যতক্ষন না আমি কতগুলো কথা বলব!

আর তৃণমূল নেত্রীর এহেন মন্তব্য শুনে রীতিমত হাসির ফোয়ারা বিরোধী শিবিরগুলোতে। তাঁদের কথায়, নিজের সমর্থকদের সভা ছেড়ে না যাওয়ার এই আকুতিতে তো দেওয়াল লিখনটা স্পষ্ট হচ্ছে! জানুয়ারি মাসের ব্রিগেডেও সভা ছেড়ে যেতে মানা করেছিলেন, কিন্তু তাও আটকাতে পারেননি। এবারও তার পুনরাবৃত্তিই তো দেখা যাচ্ছে! আর রেড রোডে এত ভিড়, যাঁরা নাকি নড়তেই পারছেন না, তাহলে এসপ্ল্যানেড এত ফাঁকা কেন? সবমিলিয়ে ২১ শের ভিড় নিয়ে শাসক-বিরোধী চাপানউতোর অব্যাহত।

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!