এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > কলকাতা > তৃণমূলের পৌরসভার বিরুদ্ধে তদন্ত কমিটি গঠন তৃনমূলের, পৌরভোটের আগে বাড়ছে অস্বস্তি!

তৃণমূলের পৌরসভার বিরুদ্ধে তদন্ত কমিটি গঠন তৃনমূলের, পৌরভোটের আগে বাড়ছে অস্বস্তি!



বিজেপিকে চাপে রাখতে পৌরসভায় তদন্ত কমিটি গঠন করছে তৃণমূল। কিন্তু সেই তদন্ত কমিটি গঠন করতে গিয়ে পরোক্ষে নিজেদের দিকেই আঙুল তুলতে দেখা গেল তৃণমূল কংগ্রেসকে। সামনেই পৌরসভা ভোট। কিন্তু গত লোকসভা নির্বাচনের পর বিপ্লব মিত্রকে জেলা সভাপতির পদ থেকে সরিয়ে দেওয়ার পর বিপ্লব মিত্র, তার ভাই প্রশান্ত মিত্র এবং গঙ্গারামপুর পৌরসভার একাধিক কাউন্সিলর ভারতীয় জনতা পার্টিতে যোগ দেন। তারপর গঙ্গা-যমুনা আত্রেয়ী দিয়ে অনেক জল বয়ে যাচ্ছে। কিছুদিন আগেই প্রশান্ত মিত্র এবং তার ঘনিষ্ঠ দুই কাউন্সিলরের সদস্যপদ খারিজ করেছে প্রশাসন। আর এবার গঙ্গারামপুর পৌরসভার প্রাক্তন চেয়ারম্যান প্রশান্ত মিত্রের কার্যকালে হাউসিং ফর অল প্রকল্পে দুর্নীতির অভিযোগ তুলে তদন্ত কমিটি গঠন করলেন বর্তমান গঙ্গারামপুর পৌরসভার চেয়ারম্যান অমলেন্দু ভূষন সরকার।

আর পৌরসভা নির্বাচনের আগে নিজেদেরই প্রাক্তন চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে তদন্ত কমিটি গঠন তৃনমূলেরই বোকামির পরিচয় বলে মত রাজনৈতিক পর্যবেক্ষকদের। বস্তুত, বর্তমানে গঙ্গারামপুর পৌরসভা তৃণমূলের চেয়ারম্যান অমলেন্দুবাবু প্রাক্তন চেয়ারম্যান তথা বিজেপি নেতা প্রশান্ত মিত্রের বিরুদ্ধে অভিযোগ করেছেন যে, প্রশান্তবাবু যখন চেয়ারম্যান ছিলেন, তখন পৌরসভার 7 ও 10 নম্বর ওয়ার্ডে হাউসিং ফর অল প্রকল্পে দুর্নীতি করেছেন। ইতিমধ্যেই এই ব্যাপারে শনিবার গঙ্গারামপুর পৌরসভায় একটি মিটিং অনুষ্ঠিত হয়।

যেখানে উপস্থিত গঙ্গারামপুর পৌরসভার এক্সিকিউটিভ ইঞ্জিনিয়ার, ভাইস চেয়ারম্যান সহ 5 জনকে নিয়ে একটি তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়‌। জানা গেছে, এই কমিটি প্রাক্তন চেয়ারম্যান প্রশান্ত মিত্রের বিরুদ্ধে তদন্ত করবে। কিন্তু এতদিন তো প্রশান্ত মিত্র তৃণমূল কংগ্রেসে ছিলেন। তাহলে যদি তিনি দুর্নীতি করেন তাহলে তো তৃণমূল কংগ্রেসে থাকার সময় দুর্নীতি করেছেন। কিন্তু তিনি তৃণমূল কংগ্রেসের থাকার সময় তার বিরুদ্ধে তদন্ত কমিটি গঠন না করে, এখন এই পদক্ষেপ প্রতিহিংসার রাজনীতি বলেই মনে করছে একাংশ।

ফেসবুকে আমাদের নতুন ঠিকানা, লেটেস্ট আপডেট পেতে আজই লাইক ও ফলো করুন – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের টেলিগ্রাম গ্রূপে জয়েন করতে – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের সিগন্যাল গ্রূপে জয়েন করতে – ক্লিক করুন এখানে



আপনার মতামত জানান -

 

এদিন এই প্রসঙ্গে গঙ্গারামপুর পৌরসভার বর্তমান চেয়ারম্যান অমলেন্দু সরকার বলেন, “আমাদের কাছে তথ্য রয়েছে। প্রশান্ত মিত্র চেয়ারম্যানে থাকার সময় হাউসিং ফর অল প্রকল্পে ব্যাপক দুর্নীতি করেছেন। শহরে যাদের পাকা বাড়ি রয়েছে, তাদের একটি নয়, দুটি ঘর দেওয়া হয়েছে। এছাড়াও যারা ঘর পাওয়ার যোগ্য, তাদের তা দেওয়া হয়নি। আমাদের কাছে তথ্য রয়েছে‌। আমি এখনই তা প্রকাশ করছি না। তবে কয়েকদিনের মধ্যেই তা প্রকাশ করব। তদন্ত কমিটি আমাদের রিপোর্ট দিলে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করব। গরিব মানুষের জন্য ঘরের টাকা নয়ছয় হতে দেব না।” তবে প্রাক্তন চেয়ারম্যান প্রশান্ত মিত্রের বিরুদ্ধে বর্তমান চেয়ারম্যান এই অভিযোগ করলেও তা সম্পূর্ণরূপে অস্বীকার করেছেন প্রশান্তবাবু।

এদিন এই প্রসঙ্গে প্রশান্ত মিত্র ঘনিষ্ঠ প্রাক্তন ভাইস চেয়ারম্যান তুলসীপ্রসাদ চৌধুরী বলেন, “পৌরসভার দায়িত্বে থাকার সময় কোনো দুর্নীতির সঙ্গে যুক্ত ছিলাম না। যারা যোগ্য, তাদেরই আমরা হাউস ফর অল প্রকল্পে ঘর দিয়েছি। চেয়ারম্যান তদন্ত করে নাম প্রকাশ করুক। আমরা আমাদের জায়গায় ঠিক রয়েছি।” অন্যদিকে এই ব্যাপারে তৃণমূলের বিরুদ্ধে সরব হয়েছে ভারতীয় জনতা পার্টি।

এদিন এই প্রসঙ্গে গঙ্গারামপুর বিজেপি টাউন মন্ডলের সভাপতি মনিরত্নম সাহা বলেন, “বর্তমানে প্রশান্তদা আমাদের দলে রয়েছে। তার বিরুদ্ধে রাজনৈতিক চক্রান্তের তদন্ত হলে সমস্ত ওয়ার্ডেই হোক। সেই সময় অমলেন্দুবাবু বোর্ডে ছিলেন। তখন তার মনে হয়নি যে হাউসিং ফর অল প্রকল্পে সঠিক লোক ঘর পাচ্ছে না! এখন পৌরভোটের আগে রাজনৈতিক ফায়দা তুলতে তৃণমূল এসব করছে।” সব মিলিয়ে এখন গঙ্গারামপুর পৌরসভার প্রাক্তন চেয়ারম্যান তথা বর্তমান বিজেপি নেতা প্রশান্ত মিত্রের দুর্নীতি নিয়ে তদন্ত কমিটি গঠন হওয়ায় তৃণমূলের বিরুদ্ধে প্রতিহিংসার রাজনীতির অভিযোগ তুলতে শুরু করেছেন সকলে।

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!