এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > পঞ্চায়েত ভোটে তৃনমূলের লক্ষ্য এবার মালদহ,লক্ষ্যপূরণে মাঠে নামলেন শুভেন্দু

পঞ্চায়েত ভোটে তৃনমূলের লক্ষ্য এবার মালদহ,লক্ষ্যপূরণে মাঠে নামলেন শুভেন্দু



পঞ্চায়েত ভোটে তৃনমূলের লক্ষ্য এবার মালদহ।চিরকাল কংগ্রেসের ঘাঁটি বলেই পরিচিত মালদহ। সবং এর পর মালদহে কংগ্রেসের পাতা কাটতে মরিয়া শাসক শিবির ।এমনই ইঙ্গিত মিলেছে দলীয় সূত্রে।
বৃহস্পতিবার রাতে কলকাতায় দলের জেলা পর্যবেক্ষক তথা পরিবহনমন্ত্রী শুভেন্দু অধিকারী সহ দলীয় চার নেতার জরুরি বৈঠকে মালদহ থেকে কংগ্রেসকে উৎখাত করতে নানা পরিকল্পনা গ্রহণ করা হয় বলেই খবর। এছাড়াও এই বৈঠকে ১১ফেব্রুয়ারি যে জেলা সম্মেলন হওয়ার পরিকল্পনা রয়েছে তা নিয়েও আলোচনা হয় ।
তবে পঞ্চায়েত ভোটের আগে জেলায় জেলায় সম্মেলনের মাধ্যমে দলীয় কর্মীদের চাঙ্গা করার পরিকল্পনা রয়েছে তৃনমূল শিবিরের। সেই মত মালদহে এই সম্মেলনকে নিয়ে বিভিন্ন বিষয়ে আলোচনা হয় বৈঠকে।এছাড়াও দলের ব্লক কমিটি নিয়েও জোর আলোচনা হয়।ইতিমধ্যেই দলীয় অনুমোদনও দিয়ে দেওয়া হয়েছে জেলা সভাপতি মোয়াজ্জেম হোসেনকে।এই বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন ইংরেজবাজারের বিধায়ক ও পুরপ্রধান নিহাররঞ্জন ঘোষ,উপ-পুরপ্রধান দুলাল সরকার এবং জেলা তৃনমূল যুব কংগ্রেসের সভাপতি অম্লান ভাদুড়ি।
পঞ্চায়েত ভোটের আগে ব্লকে ব্লকে প্রচার কর্মসূচি ও গোষ্ঠী দ্বন্দ এড়াতে কার্যত কোমর বেঁধে নেমেছে তৃনমূল। রাজ্যর বিরোধীদের ঘাঁটিকে টার্গেট করেই এগোচ্ছে নির্বাচনী প্রচার।সেই মত কালিয়াচক ১,মানিকচক ও হরিশচন্দ্র ২ব্লকে কমিটি নিয়ে সামান্য দোদুল্যমানতা রয়েছে সেখানে বেশি করে জোর দিচ্ছে শাসক দল।ইতিমধ্যেই কমিটি গঠন করা হয়েছে দলের তরফে।তবে সেই কমিটিতে করা ঠাঁই পেয়েছেন তা নিয়ে জল্পনা অব্যাহত। সেই বিষয়ে তৃনমূলের মালদহ জেলা কার্যকরী সভাপতি দুলাল সরকার বলেন,”পঞ্চায়েত ভোট ও সাংগঠনিক বিষয় নিয়েই কলকাতার বৈঠকে আলোচনা হয়েছে।নয়া ব্লক কমিটির অনুমোদন মিলেছে।” আসন্ন পঞ্চায়েত ভোটে সবং য়ের ছবিই কি উঠে আসবে মালদহে? নাকি নিজেদের দুর্গ ধরে রাখতে পারবে কংগ্রেস তা দেখার।

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!