এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > উত্তরবঙ্গ > হেভিওয়েট তৃণমূল নেতার বিজেপিতে যোগদান, জোর অস্বস্তিতে শাসকদল!

হেভিওয়েট তৃণমূল নেতার বিজেপিতে যোগদান, জোর অস্বস্তিতে শাসকদল!



গত লোকসভা নির্বাচনে উত্তরবঙ্গের আটটি লোকসভা কেন্দ্রের মধ্যে সাতটি আসনেই জয়লাভ করেছিল ভারতীয় জনতা পার্টি। আর বিজেপি উত্তরবঙ্গে একচ্ছত্র আধিপত্য বিস্তারের পর তৃণমূলের অনেক হেভিওয়েট নেতা ভারতীয় জনতা পার্টিতে যোগ দিতে শুরু করেন। তবে যত দিন যায়, ততই অবস্থার অবনতি শুরু হয়। যে ক্ষেত্রে বিজেপিতে তৃণমূলের অনেকে যোগ দিলেও, তারা ফের তৃণমূলে ফিরে আসতে শুরু করেন।

এমনকি নাগরিকত্ব সংশোধনী আইনের ফলে ভারতীয় জনতা পার্টি তার প্রভাব উত্তরবঙ্গের ক্রমশ হারাতে শুরু করে। তবে এমত পরিস্থিতিতে এবার ফের উত্তরবঙ্গে উত্থান ঘটল ভারতীয় জনতা পার্টির। যেখানে হেভিওয়েট তৃণমূল নেতার বিজেপিতে যোগদানে অস্বস্তি বৃদ্ধি পেল তৃণমূল কংগ্রেসের। সূত্রের খবর, এদিন এক সময়কার শিলিগুড়ির 35 নম্বর ওয়ার্ডের তৃণমূল কাউন্সিলর এবং এনজিপি এলাকার হেভিওয়েট তৃণমূল নেতা জয়দীপ নন্দী ভারতীয় জনতা পার্টিতে যোগদান করেন।

এদিন শিলিগুড়ি জেলা বিজেপির কার্যালয়ে তাঁর হাতে দলের পতাকা তুলে দিয়ে তাকে স্বাগত জানান বিজেপি রাজ্য সাধারণ সম্পাদক রথীন বসু এবং শিলিগুড়ি সাংগঠনিক জেলা বিজেপির সম্পাদক প্রবীণ আগরওয়াল। প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, তৃণমূলের এই হেভিওয়েট নেতা জয়দীপ নন্দী একসময় দীর্ঘদিন তৃণমূলের কাউন্সিলর ছিলেন।

ফেসবুকে আমাদের নতুন ঠিকানা, লেটেস্ট আপডেট পেতে আজই লাইক ও ফলো করুন – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের টেলিগ্রাম গ্রূপে জয়েন করতে – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের সিগন্যাল গ্রূপে জয়েন করতে – ক্লিক করুন এখানে



আপনার মতামত জানান -

 

তবে গত 2015 সালে পৌরসভা নির্বাচনে দাঁড়িয়েও তাকে হেরে যেতে হয়। আর সেই সময় থেকেই স্থানীয় তৃণমূল নেতৃত্বের সঙ্গে তার বিরোধ তৈরি হয়। আর শনিবার তিনি বিজেপিতে যোগদান করে তার প্রাক্তন দল তৃণমূল কংগ্রেসের অস্বস্তি অনেকটাই বাড়িয়ে দিলেন বলে মনে করছেন বিশেষজ্ঞরা। কেন তিনি হঠাৎ বিজেপিতে যোগ দিলেন! এদিন এই প্রসঙ্গে জয়দীপ নন্দী বলেন, “পশ্চিমবঙ্গের মানুষ অনেক আশা নিয়ে তৃণমূলকে ভোট দিয়েছিল। আজকে তৃণমূলে দুর্বৃত্তায়ন হয়েছে বলে আমরা প্রতিবাদ করেছিলাম। দল গ্রাহ্য করেনি। তৃণমূলের সঙ্গে দূরত্ব তৈরি হয়েছিল। বিজেপি বাংলার মানুষকে নতুন পথ দেখাচ্ছে। তাই বিজেপিতে যোগ দিলাম।”

আর তৃণমূলের দীর্ঘদিনের নেতাকে নিজেদের দলে যোগদান করাতে পেরে উচ্ছ্বসিত ভারতীয় জনতা পার্টি। এদিন এই প্রসঙ্গে শিলিগুড়ি সাংগঠনিক জেলা বিজেপির সম্পাদক প্রবীণ আগরওয়াল বলেন, “কালকে পৌরসভার আসন সংরক্ষণের খসড়া তালিকা প্রকাশ হয়েছে। আজকে আমরা শহরের একজন পরিচিত নেতাকে দলে নিয়ে এলাম। অপেক্ষা করুন, আরও আসবেন। আমরা প্রতি সপ্তাহে আপনাদের এরকম ভালো খবর উপহার দেব।” অন্যদিকছ এই ব্যাপারে রাজ্য বিজেপির সাধারণ সম্পাদক রথীন বসু বলেন, “মানুষ শিলিগুড়ি পৌরসভার ওপর বীতশ্রদ্ধ হয়ে পড়েছে। তারা পরিবর্তন চাইছেন। আমরাই সেই বিকল্প।”

বিশ্লেষকরা বলছেন, লোকসভা নির্বাচনে উত্তরবঙ্গে বিজেপির প্রভাব লক্ষ্য করা গেলেও, তার পরবর্তী সময়ে বিজেপি অনেকটাই ব্যাকফুটে চলে গিয়েছিল। তবে এদিন শিলিগুড়ির দীর্ঘদিনের তৃণমূল নেতার বিজেপিতে যোগদানের ফলে উত্তরবঙ্গে বিজেপির ক্রেজ যে এখনও নষ্ট হয়নি, তা আবার প্রমাণিত হয়ে গেল বলেই মত রাজনৈতিক পর্যবেক্ষকদের। আর এই যোগদানের ফলে তৃণমূল যে প্রবল অস্বস্তিতে পড়ল, সেই ব্যাপারেও একপ্রকার নিশ্চিত বিশ্লেষকরা।

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!