এখন পড়ছেন
হোম > রাজনীতি > তৃণমূল > মাত্র একজন প্রভাবশালী তৃনমূল নেতাকে চেপে ধরতেই আপমান দুর্নীতিতে সরকারের ঘরে ফিরল কয়েক লক্ষ!

মাত্র একজন প্রভাবশালী তৃনমূল নেতাকে চেপে ধরতেই আপমান দুর্নীতিতে সরকারের ঘরে ফিরল কয়েক লক্ষ!



প্রিয় বন্ধু মিডিয়া রিপোর্ট – সাম্প্রতিক কালে তৃনমূলের নেতাদের বিরুদ্ধে নানা দুর্নীতির অভিযোগ উঠেছে। বিভিন্ন জায়গায় ভয়াবহ দুর্যোগের ক্ষতিপূরণ নেওয়ার অভিযোগে তৃণমূল নেতাদের কাঠগড়ায় দাঁড় করিয়েছেন সাধারণ মানুষ। আর এবার ভয়াবহ দুর্যোগের ক্ষতিপূরণের তালিকায় তৃনমূল নেতার পরিবারের সকল সদস্যের নাম ওঠায় তীব্র বিতর্ক ছড়িয়ে পড়ল।

জানা গেছে, গোটা ঘটনায় নাম জড়িয়েছে আরামবাগের হরিনখোলা 1 নম্বর পঞ্চায়েতের তৃণমূল পরিচালিত প্রধান আব্দুল হাজিজ খানের। এদিকে তৃণমূল নেতার নাম জড়ানোর সাথে সাথেই তিনি তার সমস্ত টাকা ফেরত দেওয়ার উদ্যোগ নিয়েছেন। জানা গেছে, এখনও পর্যন্ত প্রধান তার পরিবারে পাওয়া সাহায্যের 2 লক্ষ 60 হাজার টাকা ফেরত দিয়েছেন। আর এই ঘটনাতে একদিকে যেমন দুর্নীতির ঘটনা প্রকাশ্যে এল, ঠিক তেমনই দুর্নীতি বন্ধ করতে তৃনমূলের প্রধান চাপে পড়েই এই টাকা ফেরতের উদ্যোগ নিলেন বলেই মত বিশেষজ্ঞদের।

এদিন এই প্রসঙ্গে তৃনমূলের প্রধান বলেন, “সেই সময় করোনা উপসর্গ দেখা যাওয়ায় আমি গৃহ নিভৃতবাসে ছিলাম।পঞ্চায়েত কর্মীরা তড়িঘড়ি তালিকা পাঠাতে গিয়ে সব ভুল করে ফেলেন। শোরগোল হতেই স্ত্রীর, শাশুড়ি ভাইয়ের বউ সহ পরিবারের পনের-ষোলজনের টাকা ফেরত নিয়েছে। ব্লক প্রশাসন নোটিশ পাঠিয়েছে। বাকি টাকা ফেরত দেওয়ার ব্যবস্থা করছি।”

আমাদের নতুন ফেসবুক পেজ (Bloggers Park) লাইক ও ফলো করুন – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের টেলিগ্রাম গ্রূপে জয়েন করতে – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের সিগন্যাল গ্রূপে জয়েন করতে – ক্লিক করুন এখানে



আপনার মতামত জানান -

কিন্তু এভাবে বারবার উপর তলা থেকে নির্দেশ দেওয়া সত্ত্বেও কেন দুর্নীতি হল? কেন পঞ্চায়েত প্রধানের পরিবারের সকলে এই দুর্নীতির সঙ্গে জড়িয়ে পড়লেন? কেন তাদের বাড়িতে বেছে বেছে উপভোক্তাদের সাহায্য গেল? এদিন এই প্রসঙ্গে দায়িত্বপ্রাপ্ত অতিরিক্ত জেলা শাসক নিখিলেশ মণ্ডল বলেন, “বিডিওরা তদন্ত করে যারা টাকা পাওয়ার উপযুক্ত নয়, তাদের নোটিশ পাঠাচ্ছেন। সেই টাকা ফেরত নিচ্ছেন। এখনো পর্যন্ত কত টাকা ফেরত দিয়েছে, সেই হিসাব জেলা প্রশাসনের কাছে আসেনি।”

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, যে দিকে পরিস্থিতি এগোচ্ছে, তাতে তৃণমূল আরও চাপে পড়তে পারে। তাই এমতাবস্তায় প্রধান কার্যত চাপে পড়েই এবং দলকে অস্বস্তি থেকে বাঁচাতে সাহায্যের টাকা প্রশাসনের কাছে ফেরত দেওয়ার উদ্যোগ নিলেন বলেই মনে করছেন বিশেষজ্ঞরা।

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!