এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > নিজের দলের ছাত্রনেতাকে নগ্ন করে হেনস্থার অভিযোগ তৃণমূল নেতার বিরুদ্ধে

নিজের দলের ছাত্রনেতাকে নগ্ন করে হেনস্থার অভিযোগ তৃণমূল নেতার বিরুদ্ধে



কলেজ রাজনীতিকে কেন্দ্র করে গোষ্ঠীকোন্দলের খবর হামেশাই পাওয়া যায়। তার জেরে মারধোরের খবরও আসে। তবে এবারে যে খবর সামনে এসেছে তা একেবারেই নজিরবিহীন। কলেজচত্বরেই তৃণমূল বনাম তৃণমূলের দ্বন্দ্ব এবং তার জেরে এক কলেজ ছাত্রের শ্লীলতাহানির অভিযোগ আসলো কোলকাতার বুকে দাঁড়িয়ে থাকা সেন্ট পলস্ কলেজ থেকে। কলেজের ছাত্র সংসদে গোষ্ঠীদ্বন্দ্বের জেরে গোলমাল শুরু হয়। তারপর তৃণমূল ছাত্রসংসদের এক পদাধিকারী ছাত্রকে বিবস্ত্র করে ভিডিও করা হয়। তাকে অশ্রাব্য গালিগালাজ করা হয়। এমনটাই অভিযোগ উঠেছে ওই কলেজের তৃণমূলের ছাত্র সংসদের সভাপতি, এক অশিক্ষিত কর্মচারী এবং বাইরে থেকে আসা শাসকদলের সদস্য শেখ এনামুল হক্ ওরফে তপুর বিরুদ্ধে। এদিন কলেজ কতৃপক্ষের কাছে এ অভিযোগ জমা পড়লে তাঁরা হতবাক হয়ে যান। তবে ঘটনার সময় নাকি ওখানেই হাজির ছিলেন তৃণমূলের সাধারণ সম্পাদক আব্দুল মোল্লা কায়ুম। এমনটাই অভিযোগ উঠেছে তাঁর বিরুদ্ধে। তবে এই তথ্য সম্পূর্ণ ভিত্তিহীন দাবী করে তিনি জানান যে, তিনি নাকি নিজেই অসুস্থ। ওই ঘটনা সম্পর্কে তিনি কিছুই জানেন না।

আরো খবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

এদিকে,এ বিষয়ে খোদ ছাত্রটিই অভিযোগ জানিয়েছেন। তিনি বলেন,  আসলে ঝালেমা শুরু হয়েছিলো নাকি ‘স্টুডেন্টস এড ফান্ড’ এর হিসাব চাওয়া নিয়ে। এবং প্রথমে খানিক বচসার পরই শুরু হয় দুদলের গোলমাল। সেই গোলমালের চরমে উঠলে উত্তক্ত হয় পরিবেশ। এবং ওই ছাত্রটিকে নগ্ন করে ভিডিও করা হয় এবং তা ছড়িয়ে দেওয়া হয়। প্রমাণ হিসাবে ছাত্রটি ভিডিওটি প্রকাশ্যে এনেছেন। তাতে দেখা যাচ্ছে, তিনজন লোক জোর করে ছাত্রটির জামাকাপড় খুলছে। তারপর নগ্ন করে ভিডিও করার চেষ্টা করছে। ছাত্রটি নিজেকে বাঁচাতে সারা ঘরময় ছুটে বেড়াচ্ছেন। শেষে উপায় না পেয়ে ঘরের ভেতরেই গুটিসুটি মেরে শুয়ে পড়েছেন। তার পিছনে ছোটা ওই তিন ব্যক্তি অকথ্য ভাষায় লাগাতার গালিগালাজ করছে আর হাসছে।

এরকম ঘটনাই নজির গড়েছিলো কিছুদিন আগে পঞ্চায়েত নির্বাচন পর্বে। তবে শিক্ষাপ্রাঙ্গণে নয়। এক চিত্র সাংবাদিককে  আলিপুর ট্রেজারি বিল্ডিং থেকে তুলে নিয়ে গিয়ে দুষ্কৃতিরা করেছিলো হেনস্থা। নগ্ন করে তল্লাশি করা হয়েছিলো তাকে। এবং কাউকে বললে তাঁর বিবস্ত্র ভিডিও ভাইরাল করা হবে বলেও হুমকি দেওয়া হয়। এমনটাই অভিযোগে জানা গেছিলো। আর তাঁর থেকেও অপমানজনক খবর এবার সামনে এল। তাও এক শিক্ষালয় থেকে। আর এই ঘটনাও ঘটিয়েছে খোদ তৃণমূল তাও তৃণমূলের বিরুদ্ধে। অদ্ভূত ঘটনার নজির সামনে আসা তৃণমূলের সভানেত্রী জয়া দত্ত বলেন যে তাঁর কাছেও নাকি অভিযোগ এসেছে। তিনি দোষীদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবী জানিয়েছেন। অন্যদিকে, এনামুল সাহেব বলেছেন যে ঘটনার সঙ্গে রাজনৈতিক উদ্দেশ্য ভীষণভাবে জড়িত হবার আভাস পাওয়া গেছে। এই ঘটনার জেরে থমথমে হয়ে আছে। সেন্ট পলস্ কলেজ চত্বর। তবে পুলিশি তদন্ত শুরু হয়েছে কিনা বিষয়ে এখনো কিছু জানা যায়নি।

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!