এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > উত্তরবঙ্গ > গুরুতর অসুস্থ হেভিওয়েট তৃণমূল নেতা, পুর-নির্বাচনের আগে বড়সড় বিপাকে শাসকশিবির

গুরুতর অসুস্থ হেভিওয়েট তৃণমূল নেতা, পুর-নির্বাচনের আগে বড়সড় বিপাকে শাসকশিবির



পৌরসভা নির্বাচনের আগে এবার বড়সড় বিপাকে পড়ল শাসক দল তৃণমূল কংগ্রেস। সূত্রের খবর, মস্তিষ্কে রক্তক্ষরণের জন্য শনিবার গুরুতর অসুস্থ হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হলেন জলপাইগুড়ি পৌরসভার তৃণমূলের চেয়ারম্যান মোহন বসু। জানা গেছে, রবিবার তাঁকে এয়ার অ্যাম্বুলেন্স করে দিল্লিতে নিয়ে যাওয়া হবে। এদিকে তৃণমূলের এই হেভিওয়েট নেতা অসুস্থ হওয়ার সাথে সাথেই তৃণমূলের অনেক নেতা, নেত্রী তাকে দেখতে দিন হাসপাতালে যান।

হঠাৎ এভাবে জলপাইগুড়ি পৌরসভার চেয়ারম্যানের অসুস্থ হয়ে যাওয়াতে, এখন পৌরসভা নির্বাচনের আগে চরম বিপাকে পড়েছে শাসক দল। বস্তুত, এই প্রথম নয়। গত 2017 সালের ডিসেম্বর মাসেও মস্তিষ্কে রক্তক্ষরণের জন্য অসুস্থ হয়েছিলেন মোহন বসু। সেই সময় দিল্লিতে চিকিৎসা করার পর সুস্থ হন তিনি। এদিন তার দিল্লিতে চেকাপের জন্য যাওয়ার কথা ছিল। সেই মত তিনি টিকিটও কেটে রেখেছিলেন।

কিন্তু এদিন সকালে ফোনে কথা বলতে বলতেই হঠাৎ অসুস্থ হয়ে পড়েন তিনি। আর তারপরেই তাকে জলপাইগুড়ির একটা বেসরকারি নার্সিংহোমে ভর্তি করা হলে বর্তমানে তিনি আইসিইউতে রয়েছেন। কিন্তু এখন কেমন আছেন মোহন বসু!


দেশে যে কোনো দিন ব্যান হয়ে যেতে পারে হোয়াটস্যাপ। তাই এখন থেকে আমরা শুধুমাত্র টেলিগ্রাম ও সিগন্যাল অ্যাপে। প্রিয় বন্ধু মিডিয়ার নিউজ নিয়মিতভাবে পেতে যোগ দিন –

টেলিগ্রাম গ্রূপটাচ করুন এখানে

সিগন্যাল গ্রূপটাচ করুন এখানে



আপনার মতামত জানান -

এদিন এই প্রসঙ্গে এই নার্সিংহোমের চিকিৎসক সুমন্ত মুখোপাধ্যায় বলেন, “আজ সকালে মস্তিষ্কে রক্তক্ষরণের জন্য তাকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। বর্তমানে তিনি আইসিইউতে রয়েছেন। তাকে 24 ঘণ্টা পর্যবেক্ষণে রাখা হয়েছে। দীর্ঘদিন ধরেই তিনি প্রেসার এবং সুগারে ভুগছেন।” এদিকে হঠাৎ পৌরসভার চেয়ারম্যান তথা দলের হেভিওয়েট নেতা এভাবে অসুস্থ হয়ে পড়ায়, এখন চিন্তার ভাঁজ পড়েছে তৃণমূল নেতৃত্বের কপালে। এদিন এই প্রসঙ্গে তৃণমূলের 15 নম্বর ওয়ার্ডের কাউন্সিলর তপন বন্দ্যোপাধ্যায় বলেন, “দীর্ঘদিন ধরেই মোহনবাবুর নেতৃত্বে আমরা পৌরসভা ভোটে লড়ছি। আসন্ন পৌরসভা নির্বাচনের আগে হঠাৎ তিনি গুরুতর অসুস্থ হওয়ায় দলের সমস্যা হবে। নির্বাচনে দলকে এগিয়ে নিয়ে যাওয়ার ক্ষেত্রে নেতৃত্বে ঘাটতি আসবে।”

এদিকে দ্রুত মোহন বসুর সুস্থতা প্রার্থনা করেছেন জেলা তৃণমূলের সভাপতি কিষাণ কুমার কল্যাণী। এদিন তিনি বলেন, “মোহন বসুর চিকিৎসা নিয়ে আমরা ব্যস্ত রয়েছি। তিনি যাতে দ্রুত সুস্থ হয়ে ওঠেন, সেই চেষ্টাই আমরা অনবরত করে যাচ্ছি।” সব মিলিয়ে এখন পৌরসভা নির্বাচনের আগে দলের সংগঠনকে শক্তিশালী করতে জলপাইগুড়ি পৌরসভার তৃণমূলের চেয়ারম্যান মোহন বসু যাতে দ্রুত সুস্থ হয়ে ওঠেন, তার জন্য সমস্ত রকম চেষ্টা চালাতে তৎপর তৃণমূল কংগ্রেস।

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!