এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > কলকাতা > তৃণমূলের না বামেদের – কোন ব্রিগেড রইল এগিয়ে? জঙ্গলমহলে ও মাটি ফিরে পাওয়ার ইঙ্গিত পেল বামেরা?

তৃণমূলের না বামেদের – কোন ব্রিগেড রইল এগিয়ে? জঙ্গলমহলে ও মাটি ফিরে পাওয়ার ইঙ্গিত পেল বামেরা?



গত 19 শে জানুয়ারি কলকাতার ব্রিগেড সমাবেশে দেশের সমস্ত বিজেপি বিরোধী দলগুলোকে আহ্বান জানিয়ে সেখানে সমাবেশ করে রাজ্য রাজনীতিতে তোলপাড় তুলে দিয়েছিলেন তৃণমূল সুপ্রিমো বাংলার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। এদিকে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের উদ্যোগে তৃণমূলের ব্রিগেড সমাবেশের পরই গতকাল বামেরা নিজেদের ময়দানকেই বেছে নিল নিজেদের সমাবেশের জন্য।

কিন্তু তৃণমূল নাকি বামেরা! কারা নিজেদের ব্রিগেড সমাবেশকে বেশি করে তুলে ধরতে পারল! আর কাদের ব্রিগেড সমাবেশ সাফল্যের চূড়ায় পৌঁছল! তা নিয়ে ইতিমধ্যেই শুরু হয়ে গিয়েছে চুলচেরা বিশ্লেষণ। কিন্তু এই বিশ্লেষণের দায়িত্বে থাকা রাজনৈতিক মহলের পক্ষ থেকে যাই দাবি করা হোক না কেন বামফ্রন্টের ব্রিগেড সমাবেশে তৃণমূলের বিরুদ্ধে আওয়াজ তুলে সোরগোল তুলে দিলেন রাজ্যের প্রাক্তন মন্ত্রী তথা আদিবাসী নেত্রী বলে পরিচিত দেবলীনা হেমব্রম।

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, 2011 সালে রাজ্যের ক্ষমতা থেকে চলে যাওয়ার সাথে সাথেই জঙ্গলমহলের জেলাগুলিতে দাপট কমতে থাকে বামেদের। একের পর এক নির্বাচনে জঙ্গলমহলে তৃণমূলের দাপট যেমন বাড়তে থাকে ঠিক তেমনই এখানে অস্তিত্ব হারাতে শুরু করে বামেরা। আর তাই এবারে লোকসভা নির্বাচনের আগে সেই জঙ্গলমহলের নিজেদের সংগঠনকে শক্ত করতে সিপিএমের ব্রিগেডের মঞ্চে ভাষণ দিতে দেখা যায় পুরুলিয়ার দেবলীনা হেমব্রমকে।

ফেসবুকে আমাদের নতুন ঠিকানা, লেটেস্ট আপডেট পেতে আজই লাইক ও ফলো করুন – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের টেলিগ্রাম গ্রূপে জয়েন করতে – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের সিগন্যাল গ্রূপে জয়েন করতে – ক্লিক করুন এখানে



আপনার মতামত জানান -

জানা যায়, ক্ষমতায় আসার পরই জঙ্গলমহলের মানুষদের জন্য একাধিক উন্নয়ন পদক্ষেপ গ্রহন করেছে রাজ্যের বর্তমান তৃনমূল সরকার। আর রাজ্যের শাসকদলের এহেন উন্নয়ন প্রকল্প নিয়ে তৃণমূলের উদ্দেশ্যে কটাক্ষ ছুড়ে দিতে দেখা যায় সিপিএমের দেবলীনা হেমব্রমকে।

এদিন তিনি বলেন, “আদিবাসীদের ধামসাও আছে, মাদলও আছে। গানও আছে, সুরও আছে। ওসব জিনিস আমাদের দরকার নেই। আমরা আত্মমর্যাদা চাই, শিক্ষা চাই, কাজ চাই। কিন্তু মুখ্যমন্ত্রী ও রাজ্য সরকারের সেই দিকে নজর নেই। তাই সকলের কাছে আবেদন আপনারা অধিকার অর্জনের শপথ নিয়ে গ্রামে ফিরবেন। কারো কোনো দয়ার দান আমরা চাই না।”

এদিকে দেবলীনা হেমব্রমের কথা এদিনের ব্রিগেড সমাবেশে বক্তব্য রাখা বামেদের প্রতিটি নেতার বক্তব্যেই ফুটে ওঠে। সব মিলিয়ে এবার আসন্ন লোকসভা নির্বাচনের আগে বামেদের ব্রিগেড সমাবেশে জঙ্গলমহলের মাটি ফিরে পেতে রাজ্যের প্রাক্তন বাম মন্ত্রী দেবলীনা হেমব্রমকে কাজে লাগাল আলিমুদ্দিন স্ট্রিটের নেতারা।

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!