এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > ক্ষমতায় এলেই তৃণমূলকে পাল্টা মেরে হাসপাতালে পাঠানোর নিদান বিজেপি নেতার

ক্ষমতায় এলেই তৃণমূলকে পাল্টা মেরে হাসপাতালে পাঠানোর নিদান বিজেপি নেতার



সম্প্রতি বিজেপি ক্ষমতায় এলেই এনকাউন্টার করার হুঁশিয়ারী দিয়েছিলেন রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ। সেই বক্তব্যেরকে কেন্দ্র করে বিতর্কের রেশ এখনও কাটেনি। এর মধ্যেই বিস্ফোরক মন্তব্য করে সংবাদ শিরোনামে বিজেপি দলেরই অপর রাজ্য নেতা জয় বন্দ্যোপাধ্যায় ।এদিন বিজেপির ডেপুটেশন কর্মসূচী পালনের অনুষ্ঠানে উপস্থিত হয়ে রাজ্যের শাসক দল তৃণমুল কংগ্রেসের সন্ত্রাস’কে কটাক্ষ করে এই বিজেপি নেতা বলেন, রাজ্যের শাসন ক্ষমতায় তাঁরা এলে সবাইকে হাসপাতালে পাঠাবেন। এই অল্প কথাতে তিনি সন্তুষ্ট নন।

আরো খবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

——————————————————————————————-

 এবার থেকে প্রিয় বন্ধুর খবর পড়া আরো সহজ, আমাদের সব খবর সারাদিন হাতের মুঠোয় পেতে যোগ দিন আমাদের হোয়াটস্যাপ গ্রূপে – ক্লিক করুন এই লিঙ্কে

নিজের বক্তব্যের বিশদে ব্যাখ্যা করে তিনি বললেন, “এখন কোনও জেলা সফরে গেলেই আগে হাসপাতালে যেতে হয়। সেখানে গিয়ে দেখে আসতে হয় তৃণমূল আমাদের বিজেপি নেতা-কর্মীদের মেরে হাসপাতালে পাঠিয়েছেন। এবার তাই হাসপাতালের সুপারকে বলে এলাম, নতুন একটা রেজিস্টার তৈরি রাখুন। সেই খাতায় উপরে লিখে রাখবেন ‘টিএমসি’। আমরা ক্ষমতায় আসার পর তৃণমূল নেতা-কর্মীদের মেরে হাসপাতালে পাঠাব, তাঁরা যে ভর্তি হবে হাসপাতালে, তার জন্যই ওই খাতা বরাদ্দ থাকবে।” শাসক দলের হিংসা জবাব গেরুয়া শিবির হিংসার মাধ্যমেই দেবেন বলে জানালেন রাজ্য বিজেপির প্রথম সারির এই নেতা। আর এই প্রতিহিংসা শুরু হবে তাঁরা রাজ্যের শাসন ভার গ্রহণ করলেই। এদিনের অনুষ্ঠাণ মঞ্চ থেকে তিনি রাজ্যের পুলিশের সমালোচনা করতেও কোনো কসুর করলেন না। তিনি বললেন, “পরিবর্তন যে আসছে তা পরিষ্কার। পুলিশও এখন ভিতরে ভিতরে বিজেপি হয়ে উঠছে। আমাকে যাঁরা এসকর্ট করে আনলেন, তাঁদেরই কয়েকজন আমাকে কানে কানে বলে গেলেন, দাদা জয় শ্রী রাম। এ থেকেই বোঝা যায় তৃণমূলের শেষের দিন শুরু হয়ে গিয়েছে।” রাজ্য বিজেপি সভাপতির পরে দলেরই প্রথম সারির এই নেতার বক্তব্যের রেশ কতদিন রাজ্য রাজনীতিতে থাকে এখন সেটাই দেখার।

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!