এখন পড়ছেন
হোম > রাজনীতি > তৃণমূল > ঠেলার নাম বাবাজি, ধমক খেয়েই শত্রু হলো বন্ধু, একই মঞ্চে দুই হেভিওয়েট

ঠেলার নাম বাবাজি, ধমক খেয়েই শত্রু হলো বন্ধু, একই মঞ্চে দুই হেভিওয়েট



আপনাদের সুবিধার্থে খবরের শেষে বিধানসভা ২০২১ উপলক্ষে আমাদের করা সর্বশেষ সমীক্ষার প্রতিটির লিঙ্ক দেওয়া আছে।

আপনার মতামত জানান -

প্রিয় বন্ধু মিডিয়া রিপোর্ট – মুর্শিদাবাদ জেলাজুড়ে তৃণমূলের গোষ্ঠী কোন্দল বারবার প্রকাশ্যে এসে পড়েছে। দলের গোষ্ঠী কোন্দলের খবর শীর্ষ নেতৃত্বের কাছেও পৌঁছে গেছে। সাবধান বাণী এসেছে দলের শীর্ষনেতৃত্বের পক্ষ থেকে। এরপরেই গতকাল শুক্রবার এক সাংবাদিক বৈঠকে একসঙ্গে দেখা গেল জেলার দুই বিরোধী গোষ্ঠীর নেতাকে।
প্রসঙ্গত, মুর্শিদাবাদ জেলায় বহরমপুর টাউন তৃণমূল কংগ্রেস সভাপতি নাড়ুগোপাল মুখোপাধ্যায় ও মুর্শিদাবাদ জেলা তৃণমূল কো-অর্ডিনেটর অরিত মজুমদারের সম্পর্ক একেবারে সাপে-নেউলে। একজনের আয়োজিত সভায় অন্যজন যেতেন না, একজন আরেকজনকে যতটা পারতেন এড়িয়ে চলতেন। যাদের মুখ দেখাদেখিও প্রায় বন্ধ হয়ে গিয়েছিল। কিন্তু এরপর দলের শীর্ষ নেতৃত্বের সতর্কবার্তার পরেই গতকাল এক হতে দেখা গেল দুজনকে।

গতকাল এভাবে দুই বিরোধী নেতাকে একসঙ্গে দেখে মুর্শিদাবাদ জেলা তৃণমূলের এক হেভিওয়েট নেতা জানালেন যে, বাম কংগ্রেসের বিরোধী জোট ক্রমশ কাছাকাছি এসে পড়ায়, সেইসঙ্গে জেলায় বিজেপির বাড়বাড়ন্ত লক্ষ করে দলের ঐক্যের ছবিকে সামনে তুলে ধরা ভীষণ গুরুত্বপূর্ণ হয়ে পড়েছিল। একারণেই জেলা নেতৃত্বর পক্ষ থেকে তাঁদের গোষ্ঠী কোন্দল বন্ধ করতে তৃণমূল ভবনের হস্তক্ষেপ দাবি করা হয়েছিল। সম্ভবত, তার ফলেই দুই বিরোধী নেতাকে দেখা গেল এক সাংবাদিক বৈঠকে।

গতকাল মুর্শিদাবাদ জেলা তৃণমূলে ঐক্যের বার্তা দিতে দুই বিরোধী নেতা একস্থানে গেলেন। রাজ্য সরকারের উন্নয়নের প্রচার করতে বহরমপুর বিধানসভার কো-অর্ডিনেটর অরিত মজুমদারের ডাকা মিছিলে যোগদান করলেন বহরমপুর টাউন তৃণমূল কংগ্রেস সভাপতি নাড়ুগোপাল মুখোপাধ্যায়। সভার পর তৃণমূল কার্যালয়ে সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলেন তারা। ১০ বছরের সরকারের রিপোর্ট কার্ড তুলে ধরলেন। এই ঘটনা দেখে তৃণমূলের এক কর্মী জানালেন যে, ঠেলার নাম ধমক।

আপনার মতামত জানান -

গতকাল তৃণমূল নেতা অরিত মজুমদার জানালেন যে, মুখ্যমন্ত্রীর নির্দেশে সকলে একসঙ্গে পদ ভুলে, দলের কর্মী হিসেবে পথে নেমেছেন। সরকারের জনমুখি কাজের প্রচার চালাবেন তাঁরা। কে নাড়ু আর কে অরিত ভুলে উপস্থিত হয়েছেন তাঁরা। আবার, এ প্রসঙ্গে নাড়ুগোপাল মুখোপাধ্যায় জানালেন যে, তাদের মধ্যে কোন লড়াই ছিল না। তখন তাঁকে প্রশ্ন করা হয়েছিল যে, তাহলে এতদিন ধরে একে অন্যের দলীয় বৈঠকে উপস্থিত থাকতেন না কেন তাঁরা? এর উত্তরে তিনি জানালেন যে, কখনো শারীরিক কারণে, কখনো ব্যক্তিগত কাজ থাকার ফলে সব সময় সবার ডাকা সভা বৈঠকে যাওয়া সম্ভব হয়নি। তবে এর মধ্যে পারস্পরিক দূরত্বের কোন ব্যাপার নেই।

নাড়ুগোপাল বাবু আরও জানিয়েছেন যে, অরিত মজুমদার পুজোর আগে বহরমপুরে সভা করেছিলেন। সেই সভা সম্পর্কে তাদের সঙ্গে কোনো আলোচনা হয়নি। তাই তাতে তিনি যাননি। সে কথা তিনি স্পষ্ট করে দিয়েছিলেন অরিত বাবুকে। তৃণমূল সূত্রের খবর, জেলা নেতৃত্ব ছাড়াও তৃণমূলের রাজ্য নেতৃত্তের কাছেও নাড়ুগোপাল মুখোপাধ্যায় ও অরিত মজুমদারের বিরোধের কথা পৌঁছে গিয়েছিল। প্রসঙ্গত জেলার পর্যবেক্ষক পদ তুলে দিয়ে ৯ জন জেলা নেতাদের সেই দায়িত্ব দেওয়া হয়েছিল। সেই দায়িত্ব পাবার পর থেকে সকলেই নিজেদের পছন্দের নেতাদের জেলা কমিটিতে সুযোগ করে দিতে সচেষ্ট হয়েছিলেন। সেই সময় থেকেই দুই নেতার সম্পর্ক খারাপ হতে শুরু হয়।

একে অপরের ডাকা বৈঠক এড়িয়ে যান। নিজের ডাকা বৈঠকে সরাসরি নাম না নিয়েও দলের কো-অর্ডিনেটর অরিত মজুমদারের বিরুদ্ধে ক্ষোভ প্রকাশ করেছিলেন নাড়ুগোপাল মুখোপাধ্যায়। আবার অরিত মজুমদার জানিয়েছিলেন যে, দলে শহর সভাপতি বা ব্লক সভাপতির কোনও কোন পদ নেই। গতকাল দুই বিরোধী নেতাকে এক মঞ্চে দেখা গেল। সাংবাদিক সম্মেলনে নাড়ুগোপাল মুখোপাধ্যায়কে টাউন সভাপতি হিসাবে পরিচিত করালেন অরিত মজুমদার। যা দলের নেতা কর্মীদের উচ্ছ্বসিত করেছে। তবে, শীর্ষের সতর্কবার্তায় নেতারা কতদিন ঐক্যবদ্ধ থাকবেন? তা নিয়ে প্রশ্ন থাকছেই।

আমাদের নতুন ফেসবুক পেজ (Bloggers Park) লাইক ও ফলো করুন – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের টেলিগ্রাম গ্রূপে জয়েন করতে – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের সিগন্যাল গ্রূপে জয়েন করতে – ক্লিক করুন এখানে



আপনার মতামত জানান -

একনজরে দেখে নিন আমাদের সর্বশেষ বিধানসভা ২০২১ ওপিনিয়ন পোল –

# মুর্শিদাবাদ জেলার ওপিনিয়ন পোল – দ্বিতীয় পর্ব – 

# মুর্শিদাবাদ জেলার ওপিনিয়ন পোল – প্রথম পর্ব – 

# মালদহ জেলার ওপিনিয়ন পোল –

# দক্ষিণ দিনাজপুর জেলার ওপিনিয়ন পোল –

# উত্তর দিনাজপুরে জেলার ওপিনিয়ন পোল –

# জলপাইগুড়ি ও কালিম্পঙ জেলার ওপিনিয়ন পোল –

# আলিপুরদুয়ার ও দার্জিলিং জেলার ওপিনিয়ন পোল –

# কুচবিহার জেলার ওপিনিয়ন পোল –

আপনার মতামত জানান -
আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!