এখন পড়ছেন
হোম > অন্যান্য > সোশ্যাল মিডিয়ায় যশের বিশেষ পোস্ট ও ক্যাপশন, ত্রিকোণ সম্পর্কের কি নতুন মোড় ঘোরার ইঙ্গিত?

সোশ্যাল মিডিয়ায় যশের বিশেষ পোস্ট ও ক্যাপশন, ত্রিকোণ সম্পর্কের কি নতুন মোড় ঘোরার ইঙ্গিত?



প্রিয় বন্ধু মিডিয়া রিপোর্ট – নুসরত-নিখিল-যশের ত্রিকোণ সম্পর্ক নিয়ে বিশেষ টানাপোড়েন অব্যাহত। সাংসদ নুসরত জাহানের মা হবার খবর গণমাধ্যমে ছড়িয়ে যাবার পর, তাঁর সন্তানের বাবা কে? তা নিয়ে প্রশ্ন উঠতে শুরু করে। কারণ, প্রায় একবছর ধরে স্বামী নিখিল জৈনের সঙ্গে তাঁর তেমন কোনো যোগাযোগ নেই। আর এর মাঝেই তাঁর সঙ্গে ঘনিষ্ঠতা ক্রমশ বাড়ছে অভিনেতা যশের। আবার, গত বুধবার নিখিল জৈনর বিষয়ে বক্তব্য রেখেছেন অভিনেত্রী নুসরত জাহান।

এক বিবৃতি দিয়ে গত বুধবার নুসরত জাহান জানিয়েছেন যে, নিখিল জৈনের সঙ্গে তাঁর বিয়েই হয়নি। তাঁরা সহবাস করেছিলেন মাত্র। তাই তাঁদের বিবাহ-বিচ্ছেদের কোন প্রশ্নই থাকতে পারে না। তবে তিনি যদি সন্তান সম্ভবা হন, তবে সেই সন্তানের বাবা কে? সেই প্রশ্নের কোনো জবাব দেননি তিনি। অথচ, নিখিল জৈন নুসরত জাহানের বিরুদ্ধে দেওয়ানী মামলা দায়ের করেছেন। আগামী মাসে তার শুনানি হওয়ার কথা শোনা যাচ্ছে।

আমাদের নতুন ফেসবুক পেজ (Bloggers Park) লাইক ও ফলো করুন – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের টেলিগ্রাম গ্রূপে জয়েন করতে – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের সিগন্যাল গ্রূপে জয়েন করতে – ক্লিক করুন এখানে



আপনার মতামত জানান -

এই আবহে দাঁড়িয়ে ইনস্টাগ্রামে একটি ছবি পোস্ট করেছেন অভিনেতা যশ। যেখানে দেখা যাচ্ছে, বেশ কিছু টবে রাখা গাছের পাশে বসে রয়েছেন তিনি, পরে রয়েছেন সাদা টি-শার্ট ও জিন্স। ছবির ক্যাপশনে তিনি লিখেছেন, চালাক মানুষেরা সমস্যার সমাধান করেন, জ্ঞানী-ব্যক্তিরা এড়িয়ে চলেন। এই ক্যাপশন দ্বারা তিনি কাকে কটাক্ষ করতে চেয়েছেন বা কাকে লক্ষ্য করেছেন? তা স্পষ্ট করে তিনি জানাননি।

ইনস্টাগ্রামে অভিনেতা যশের এই পোস্ট শোরগোল ফেলে দিয়েছে সোশ্যাল মিডিয়ায়। আবার, এই পোস্টে কমেন্ট করেছেন অভিনেত্রী নুসরত জাহান। যেখানে তিনি লিখেছেন যে, তাঁর গাছগুলি খুব সুন্দর। এর সঙ্গে সঙ্গেই হার্ট ইমোজিও ব্যবহার করেছেন তিনি। ইনস্টাগ্রামের এই পোস্ট নিয়ে নানা আলোচনা শুরু হয়েছে। এটা কি তাঁদের ত্রিকোণ সম্পর্কের নতুন মোড় ঘোরার ইঙ্গিত? উঠে এসেছে নানা প্রশ্ন।

অন্যদিকে, বামপন্থী নেত্রী দিপ্সীতা ধর জানালেন, কোন একজন নেতা বা নেত্রী মানুষের জন্য কি করেছেন? সে কথা জানতে না চেয়ে তাঁর ব্যক্তিগত জীবন নিয়ে কাটাছেঁড়া করা হচ্ছে। কিন্তু সেটা হবার কথা নয়। সাংসদ নুসরত জাহান মানুষের জন্য আদৌ কাজ করেছেন কিনা? সে বিষয়ে চিন্তা ভাবনা করার বেশি দরকার। ব্যক্তিগত জীবন তাঁর পরিসরের আওতায় পরে, সেখানে সাধারণ মানুষের প্রবেশের অধিকার নেই। কিন্তু তাঁর রাজনৈতিক জীবন, সাংসদ হিসেবে তাঁর ভূমিকা কি? তা খতিয়ে দেখার অধিকার আছে মানুষের।

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!