এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > উত্তরবঙ্গ > “শীতলকুচি গুলি কাণ্ডে দিদি আমার পদত্যাগ চাইছেন। আমার পকেটেই ইস্তফাপত্র রয়েছে।” – জবাব কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর

“শীতলকুচি গুলি কাণ্ডে দিদি আমার পদত্যাগ চাইছেন। আমার পকেটেই ইস্তফাপত্র রয়েছে।” – জবাব কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর



প্রিয় বন্ধু মিডিয়া রিপোর্ট – গত শনিবার চতুর্থ দফার নির্বাচনের দিনে কোচবিহার জেলার শীতলকুচিতে কেন্দ্রীয় বাহিনীর সঙ্গে সরাসরি সংঘাতে প্রাণ হারান চারজন মানুষ। আত্মরক্ষার কারণেই গুলি চালানো হয়েছিল বলে কেন্দ্রীয় বাহিনীর দাবি। আর এই ঘটনায় সম্পূর্ণভাবে বিজেপিকে অভিযুক্ত করেছে রাজ্যের শাসক দল তৃণমূল।

মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় একাধিকবার কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহের পদত্যাগ দাবি করেছেন। এই পরিপেক্ষিতে আজ মুখ্যমন্ত্রীকে পাল্টা জবাব দিলেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ। স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী জানালেন, শীতলকুচির গুলি কাণ্ডে মুখ্যমন্ত্রী(দিদি) তাঁর পদত্যাগ চাইছেন। তাঁর পকেটেই ইস্তফাপত্র আছে। জনগণ চাইলে পদত্যাগ করবেন তিনি।

আজ জলপাইগুড়ি জেলার ধুপগুড়িতে জনসভা করলেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ। এই জনসভা থেকে তিনি জানালেন যে, শীতলকুচির গুলি কাণ্ডে মুখ্যমন্ত্রী তাঁর ইস্তফা চাইছেন। তিনি তাঁর পদত্যাগপত্র পকেটে নিয়েই ঘুরছেন। মানুষ চাইলেই তিনি পদত্যাগ করবেন। কিন্তু ভাবতে হবে শীতলকুচির এই ঘটনা কেন ঘটেছে? কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ জানালেন, মুখ্যমন্ত্রীর উস্কানিতেই এই ঘটনা ঘটেছে।

আমাদের নতুন ফেসবুক পেজ (Bloggers Park) লাইক ও ফলো করুন – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের টেলিগ্রাম গ্রূপে জয়েন করতে – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের সিগন্যাল গ্রূপে জয়েন করতে – ক্লিক করুন এখানে



আপনার মতামত জানান -

তিনি অভিযোগ করেন, ভোটব্যাঙ্কের কথা ভেবেই শীতলকুচির আরো একজন মৃত আনন্দ বর্মনের জন্য চোখের জল ফেলেন নি মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। প্রসঙ্গত, গতকালও এক সভা থেকে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী জানিয়েছিলেন যে, মানুষ চাইলে তিনি পদত্যাগ করতে পারেন। মুখ্যমন্ত্রীকে কটাক্ষ করে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ জানালেন যে, মুখ্যমন্ত্রী শুধু শুধু বিজেপিকে দোষ দিচ্ছেন। তিনি ভাবছেন, বিজেপি তাঁর বিরুদ্ধে লড়াই করছে। কিন্তু শুধু বিজেপি নয়, উত্তরবঙ্গের মা-বোনেরা, রাজবংশী, গোর্খা সম্প্রদায়, চা বাগানের কর্মীরা, কৃষকেরা সকলেই লড়াই করছেন মুখ্যমন্ত্রীর বিরুদ্ধে।

অন্যদিকে, গতকাল রাজ্যসভার তৃণমূল সাংসদ ডেরেক ও’ব্রায়েন একটি ট্যুইট করে জানিয়েছেন যে, বিধানসভা নির্বাচনে তৃণমূলই জয়লাভ করবে। তিনি লিখেছিলেন টালিগঞ্জ থেকে হারতে চলেছেন কেন্দ্রীয় প্রতি মন্ত্রী বাবুল সুপ্রিয়। বাংলা দেখাবে যে, টাকা দিয়ে ভালোবাসা পাওয়া যায় না। আজ এর জবাব দিলেন কেন্দ্রীয় প্রতি মন্ত্রী বাবুল সুপ্রিয়।

ফেসবুকে বাবুল সুপ্রিয় লিখেছেন,” ডেরেকবাবুকে বলবো, দিদির দেওয়া রাজ্যসভা নয়, একবার রাস্তায় নেমে লড়াই করো ভাই, ক্যাম্পেন করো, মানুষের সাথে দেখা করো,তারপর আমি দিচ্ছি বলে ভিকট্রি সাইন দেখানোর সাহস করো!! এসি ঘরে বসে জ্যোতিষী ও টিয়া পাখির গল্প বলে why are you making a out of yourself ?”

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!