এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > উত্তরবঙ্গ > শ্রমিক মন কি জিতে নিল তৃণমূল? উপচে পড়া সভার ভিড় নতুন করে অক্সিজেন যোগাচ্ছে শাসকশিবিরকে

শ্রমিক মন কি জিতে নিল তৃণমূল? উপচে পড়া সভার ভিড় নতুন করে অক্সিজেন যোগাচ্ছে শাসকশিবিরকে



প্রিয় বন্ধু মিডিয়া রিপোর্ট – 2021 এর বিধানসভা নির্বাচনের আগে শ্রমিক থেকে কৃষক, প্রতি শ্রেণীর মানুষের জন্য জনদরদি এবং কল্পতরু হতে শুরু করেছে রাজ্যের মা মাটি মানুষের সরকার। বিভিন্ন চমকপ্রদক ঘোষণা করে সমাজের প্রতিটি শ্রেণীর মন জয় করার চেষ্টা করছে রাজ্যের শাসক দল। আর এই পরিস্থিতিতে রাজ্য সরকারের পক্ষ থেকে চা শ্রমিকদের অন্তর্বর্তীকালীন মজুরি বাড়িয়ে দেওয়ার পর তৃণমূলের শ্রমিক সংগঠনের জনসভায় উপচে পড়ল ভিড়। যা দেখে রীতিমত খুশি স্থানীয় তৃণমূল নেতৃত্ব।

অনেকেই বলছেন, রাজ্য সরকারের পক্ষ থেকে চা শ্রমিকদের অন্তর্বর্তীকালীন মজুরি বাড়িয়ে দেওয়ার পর থেকেই শ্রমিকরা তৃণমূলের প্রতি আরও বেশি করে ভরসা করতে শুরু করেছেন। যার ফলস্বরুপ এদিন এত জনসমাগম হয়েছে বলে দাবি একাংশের। প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, বুধবার শিলিগুড়ির কিছুটা দূরে দাগাপুর শ্রমদপ্তর ভবনে শ্রমমন্ত্রী মলয় ঘটকের সঙ্গে চা মালিকদের একটি বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়। আর তারপরেই শ্রমিকদের বেতন 176 টাকা থেকে বাড়িয়ে 202 টাকা করা হয়।

এদিকে শ্রমিকদের জন্য রাজ্য সরকারের পক্ষ থেকে এই ঘোষণার পরেই মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে ধন্যবাদ জানাতে তৃণমূল চা বাগান ইউনিয়ন পুরাতন বাস স্ট্যান্ডে একটি সভার ডাক দেওয়া হয়। কিন্তু সেই সভায় যে এত জনসমাগম হবে, তা ভেবে উঠতে পারেনি তৃণমূল নেতৃত্ব। স্বাভাবিকভাবেই চা বলয়ে শ্রমিকদের পাশে থাকার সাথে সাথেই যেভাবে তৃণমূলের সভা-সমিতিতে ভিড় হতে শুরু করল, তাতে রীতিমত খুশি ঘাসফুল শিবির। বিধানসভা নির্বাচনের আগে এই ঘোষণা যে তাদের সংগঠনকে অনেকটাই মজবুত করেছে, তা সভা-সমিতিতে এই জনসমাগম দেখেই পরিষ্কার হয়ে গেল বলেই মত পর্যবেক্ষকদের।

সূত্রের খবর, এদিন এই সভায় শ্রমিকদের জনসমাগম দেখে রীতিমতো উজ্জীবিত হয়ে ওঠেন শ্রমমন্ত্রী মলয় ঘটক। তিনি বলেন, “বামফ্রন্ট সরকার শ্রমিকদের এক টাকা থেকে চার টাকা বেতন বৃদ্ধি করত। অথচ আমাদের মুখ্যমন্ত্রী গত 9 বছরে চা শ্রমিকদের বেতন তিনগুণ বাড়িয়েছেন। ফলে গোটা দেশের মধ্যে একমাত্র উত্তরবঙ্গের চা শ্রমিকরা সবথেকে বেশি বেতন পাচ্ছেন। গোটা দেশে করোনা পরিস্থিতিতে উত্তরবঙ্গের চা শ্রমিকদের বেতন 126 টাকা বৃদ্ধির ঘটনা একটা গুরুত্বপূর্ণ বিষয়।”


ফেসবুকে আমাদের নতুন ঠিকানা, লেটেস্ট আপডেট পেতে আজই লাইক ও ফলো করুন – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের টেলিগ্রাম গ্রূপে জয়েন করতে – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের সিগন্যাল গ্রূপে জয়েন করতে – ক্লিক করুন এখানে



আপনার মতামত জানান -

এদিকে এই বিষয়ে প্রতিক্রিয়া দিতে দেখা গেছে তৃণমূলের চা বাগান মজদুর ইউনিয়নের রাজ্য সভাপতির মোহন শর্মাকেও। তিনি বলেন, “রাজ্য সরকার চা শ্রমিকদের বেতন একলাফে 26 টাকা বাড়িয়ে দেশের সামনে নজির স্থাপন করল। আমাদের সরকার বিজেপির মত ভাওতা দেয় না। আমাদের সরকার যা বলে তা করে দেখায়।” আর রাজ্য সরকারের পক্ষ থেকে চা শ্রমিকদের মজুরি বৃদ্ধি হওয়ার পরেই তৃণমূলের পক্ষ থেকে এই বিষয়টা নিয়ে এখন যে জোরদার প্রচার করা হবে, তা বলার অপেক্ষা রাখে না।

এমনিতেই গত লোকসভা নির্বাচনে উত্তরবঙ্গে বিজেপি ব্যাপক ভালো ফলাফল করেছিল। তাই এবার যাতে বিজেপিকে কুপোকাত করে সেই উত্তরবঙ্গে ভালো ফলাফল করা যায়, তার জন্য চা শ্রমিকদের বেতন বৃদ্ধির মধ্য দিয়ে সেখানকার মানুষের মন জয় করার চেষ্টা করল ঘাসফুল শিবির। আর সরকারের পক্ষ থেকে সেই মজুরি বৃদ্ধির ঘোষণার পরেই যেভাবে তৃণমূলের সভায় ভিড় উপচে পড়ল, তা দেখে রীতিমত উজ্জীবিত তৃণমূল নেতৃত্ব। সব মিলিয়ে জনসমাগম হলেও ভোটবাক্সে তার প্রতিফলন কতটা পড়ে, সেদিকেই নজর থাকবে সকলের।

 

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!