এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > কলকাতা > শ্যামাপ্রসাদের প্রতি তৃণমূলের আন্তরিকতা দাবি ফিরহাদ থেকে শোভনের, কটাক্ষ বিজেপির

শ্যামাপ্রসাদের প্রতি তৃণমূলের আন্তরিকতা দাবি ফিরহাদ থেকে শোভনের, কটাক্ষ বিজেপির



তিনি শুধুই ভারতীয় জনসংঘ প্রতিষ্ঠাতা নন। সাথে সাথে বাংলার কৃতি সন্তানও বটে। সেই বঙ্গসন্তান শ্যামাপ্রসাদ মুখোপাধ্যায়ের তিরোধান দিবস পালন নিয়ে রাজ্যের শাসক ও বিরোধীদের মধ্যে তরজা অব্যাহত। সূত্রের খবর, এদিন কেওড়াতলা মহাশ্মশানে এই বঙ্গসন্তান শ্যামাপ্রসাদ মুখার্জির আবক্ষ মূর্তি বসিয়ে তিরোধান দিবস পালন করে শাসকদল তৃণমূল কংগ্রেস। আর তা নিয়ে শাসকদলকে খোঁচা দিতে ছাড়েনি গেরুয়া শিবিরের নেতারা।

আরো খবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

বিজেপি নেতাদের মতে দেরিতে হলেও শ্যামাপ্রসাদ মুখোপাধ্যায় এর মত বাংলার কৃতি সন্তানদের শ্রদ্ধা জানিয়ে শুভবুদ্ধির উদয় ঘটাচ্ছে তৃণমূল। তবে অপরদিকে বিজেপির এই কথার পাল্টা উত্তর দিয়েছেন তৃণমূল কংগ্রেসের নেতা ও মন্ত্রীরা। রাজ্যের পুর ও নগরোন্নয়ন মন্ত্রী ফিরহাদ হাকিম জানিয়েছেন, “এবার প্রথম নয় প্রতিবারই শ্যামাপ্রসাদের মূর্তি এইভাবে উন্মোচন করেন তারা। যখন বিজেপি ছিল না তখনও শ্যামাপ্রসাদের তিরোধান দিবস পালন করা হয়েছে।” শুধু এখানেই শেষ নয়, বিজেপির এহেন কটাক্ষের জবাব দিতে দেখা গেছে তৃণমূলের আরেক মন্ত্রী শোভন দেব চট্টোপাধ্যায়কেও। তিনি জানান, “এর মধ্যে রাজনীতির কিছু নেই। শ্যামাপ্রসাদ মুখোপাধ্যায়কে শ্রদ্ধা জানিয়ে আমরাও যেমন বিজেপি হইনি, তেমন বিজেপিও তৃণমূল হয়ে যায়নি।”

 

এবার থেকে প্রিয় বন্ধুর খবর পড়া আরো সহজ, আমাদের সব খবর সারাদিন হাতের মুঠোয় পেতে যোগ দিন আমাদের হোয়াটস্যাপ গ্রূপে – ক্লিক করুন এই লিঙ্কে

 

তৃনমৃল সূত্রের খবর, শ্যামাপ্রসাদ বাংলার কৃতি সন্তান। আমাদের নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বাংলা ও বাংলার বাইরের মহান মানুষদের বরাবর শ্রদ্ধা জ্ঞাপন করে এসেছে। এদিকে বঙ্গ বিজেপির পক্ষ থেকেও এ দিন কেওড়াতলা মহাশ্মশানের পাশের একটি পার্কে শ্যামাপ্রসাদ মুখোপাধ্যায়ের তিরোধান দিবস পালন করা হয়। সেখানে উপস্থিত ছিলেন বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ। তৃণমূলের এই শ্যামাপ্রসাদের মূর্তি উন্মোচন দেখে এ দিন রাজ্য সরকারকে খোঁচা দিয়ে তিনি বলেন, “অনেক দেরি হয়ে গিয়েছে ।তবে যেহেতু তৃণমূল শ্যামাপ্রসাদের মত বঙ্গসন্তানের মূর্তি এইরূপ সম্মানের সঙ্গে উন্মোচন করছে তাই তৃণমূলের এই উদ্যোগকে আমরা স্বাগত জানাচ্ছি।” অপরদিকে বিজেপির কেন্দ্রীয় কেন্দ্রীয় সম্পাদক রাহুল সিনহা বলেন,”শ্যামাপ্রসাদের মূর্তি ভেঙে যে পাপ করেছিল তৃণমূল, এদিন সেই মূর্তি বসিয়েই নিজেদের পাপ খন্ডন এর চেষ্টা করছে শাসক দল।” সূত্রের খবর, ত্রিপুরায় বাম সরকারের পতনের পর বিজেপি সরকার প্রতিষ্ঠিত হওয়ার পরে যেভাবে দেশজুড়ে মূর্তি ভাঙার রাজনীতি শুরু হয়েছিল তখনই রাজ্যে কেওড়াতলা মহাশ্মশানেও শ্যামাপ্রসাদের মূর্তি ভাঙার অভিযোগ ওঠে শাসক দলের বিরুদ্ধে। এদিন সেই মূর্তি ফের স্থাপন করল কলকাতা পুরসভা।আর তাতেই দিনভর শ্যামাপ্রসাদ মুখোপাধ্যায়ের মতো বঙ্গসন্তানের তিরোধান দিবসে ও শাসক তৃণমূল ও বিরোধী বিজেপির মধ্যে রাজনৈতিক তরজা অব্যাহত রইল। যা নিয়ে বড়ই হতাশ রাজ্যের সংস্কৃতিপ্রেমী মানুষেরা।

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!