এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > কলকাতা > উত্তাল রবীন্দ্রভারতী বিশ্ববিদ্যালয়ের পরিস্থিতি সামাল দিতে আসলে পার্থ, শিক্ষামন্ত্রীর গলায় কড়া সুর

উত্তাল রবীন্দ্রভারতী বিশ্ববিদ্যালয়ের পরিস্থিতি সামাল দিতে আসলে পার্থ, শিক্ষামন্ত্রীর গলায় কড়া সুর



লোকসভা নির্বাচনের ফলাফলের পর প্রথমে রাজ্যের আইন-শৃঙ্খলা, তারপর স্বাস্থ্যব্যবস্থা আর এবার শিক্ষাব্যবস্থায় চরম সংকট দেখা দিয়েছে। যে শিক্ষায় সকলে শিক্ষিত হতে চান, এবার সেখানেই জাতিগত বিদ্বেষের প্রশ্ন তুলে দিল শাসক দলের ছাত্রসংগঠন তৃণমূল ছাত্র পরিষদ। বর্তমানে শিক্ষিকা হেনস্থা এবং তার প্রতিবাদে পদত্যাগের ঘটনায় সরগরম ঐতিহ্যমন্ডিত রবীন্দ্রভারতী বিশ্ববিদ্যালয়।

এদিকে লাগাতার অধ্যাপক, অধ্যাপিকাদের পদত্যাগে কিছুটা হলেও অস্বস্তিতে পড়ে রাজ্যের শিক্ষা দপ্তর‌। পরিস্থিতি সামাল দিতেই তড়িঘড়ি সেখানে পৌঁছে যান শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায়। আর সেখানে এসেই পদত্যাগী অধ্যাপকদের সঙ্গে কথা বলে তাদের সকলে যাতে পদত্যাগপত্র ফেরত নেন তার জন্য আর্জি জানান শিক্ষামন্ত্রী।

পাশাপাশি অধ্যাপকদের সাথে যাতে শিক্ষকদের সম্পর্কের কোনো অবনতি না হয়, তার ওপরও এদিন জোর দিয়েছেন পার্থ চট্টোপাধ্যায়। এদিন শিক্ষামন্ত্রী বলেন, “অভিযোগের তদন্ত করে দ্রুত তা নিষ্পত্তি করতে হবে। তদন্ত করে যা রিপোর্ট আসবে তা প্রকাশ্যে ঘোষণা করে ব্যবস্থা নিতে হবে। কেউ দোষ করে থাকলে ছাড় পাবে না।”


WhatsApp-এ প্রিয় বন্ধু মিডিয়ার খবর পেতে – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের অন্যান্য সোশ্যাল মিডিয়া গ্রূপের লিঙ্ক – টেলিগ্রামফেসবুক গ্রূপ, ট্যুইটার, ইউটিউব, ফেসবুক পেজ

আমাদের Subscribe করতে নীচের বেল আইকনে ক্লিক করে ‘Allow‘ করুন।

এবার থেকে আমাদের খবর পড়ুন DailyHunt-এও। এই লিঙ্কে ক্লিক করুন ও ‘Follow‘ করুন।



আপনার মতামত জানান -

 

অন্যদিকে যাদের বিরুদ্ধে অভিযোগ, সেই তৃণমূল ছাত্র পরিষদের ছাত্র সংসদের সম্পাদক বিশ্বজিৎ দে বলেন, “কেউ অভিযোগ করতেই পারেন, ছাত্র-ছাত্রীদের ক্লাস হচ্ছে না। তাই শিক্ষকদের কাছে নিয়মিত ক্লাসের দাবি জানানো হয়েছিল। আমরাও চাই গোটা ঘটনার তদন্ত হোক এবং সত্য ঘটনাটি সামনে আসুক।”

এদিকে এই পরিস্থিতিতে আজই রবীন্দ্রভারতী বিশ্ববিদ্যালয়ের সমস্ত বিভাগীয় প্রধানদের নিয়ে বৈঠক করার কথা রয়েছে উপাচার্য সব্যসাচী বসু রায়চৌধুরীর। সব মিলিয়ে শিক্ষিকা হেনস্থায় রবীন্দ্রভারতী বিশ্ববিদ্যালয়ে শাসক দলের ছাত্রসংগঠনের বিরুদ্ধে অভিযোগ ওঠায় এবং এই ঘটনাকে নিয়ে রাজ্যের শিক্ষা ব্যবস্থা তোলপাড় হওয়ায় বর্তমানে পরিস্থিতিকে বাগে আনতে শিক্ষামন্ত্রীর উদ্যোগ আদৌ কাজে দেয় কিনা, এখন সেদিকেই তাকিয়ে সকলে।

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!