এখন পড়ছেন
হোম > রাজনীতি > তৃণমূল > প্রকাশ্যেই শুভেন্দুকে সমর্থন হেভিওয়েট তৃণমূল বিধায়কের! দিদির চাপ বাড়িয়ে পাল্লা ভারী দাদার?

প্রকাশ্যেই শুভেন্দুকে সমর্থন হেভিওয়েট তৃণমূল বিধায়কের! দিদির চাপ বাড়িয়ে পাল্লা ভারী দাদার?



আপনাদের সুবিধার্থে খবরের শেষে বিধানসভা ২০২১ উপলক্ষে আমাদের করা সর্বশেষ সমীক্ষার প্রতিটির লিঙ্ক দেওয়া আছে।

আপনার মতামত জানান -

প্রিয় বন্ধু মিডিয়া রিপোর্ট – গতকাল শুক্রবার মন্ত্রিত্ব ছেড়ে দিলেন শুভেন্দু অধিকারী। তাঁর মন্ত্রিত্ব ছাড়ার পর ব্যারাকপুরের বিধায়ক শীলভদ্র দত্ত তাঁকে সমর্থন করে জানালেন যে, তিনি যা করেছেন, তা তিনি ঠিকই করেছেন। এদিকে, ব্যারাকপুরের বিধায়ক শীলভদ্র দত্ত দলের বিরুদ্ধে একাধিক বার তাঁর ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন। আগামী বিধানসভা নির্বাচনে তিনি দাঁড়াবেন না বলেও জানিয়েছেন। তাঁকে প্রশ্ন করা হয়েছিল যে, তিনি কি শুভেন্দু অধিকারীর মত পদক্ষেপ গ্রহণ করবেন? উত্তরে তিনি বলেছিলেন যে, তিনি কোন দলে থাকবেন, তা ভবিষ্যত ঠিক করবে।

প্রসঙ্গত ব্যারাকপুরের দুবারের বিধায়ক হলেন শীলভদ্র দত্ত। তিনি দলের একজন বর্ষীয়ান সজ্জন বিধায়ক রূপে পরিচিত। তাঁর জনপ্রিয়তাও যথেষ্ট। সম্প্রতি তিনি দলের বিরুদ্ধে একাধিক বার তাঁর অসন্তোষের কথা প্রকাশ করেছেন। কখনো সোশ্যাল মিডিয়ায় পোস্ট করেছেন, কখনো জনসভায় ভাষণ দিয়েও দলের প্রতি ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন তিনি। জানিয়ে দিয়েছেন যে, আগামী বিধানসভা নির্বাচনে তিনি আর লড়াই করবেন না। ব্যারাকপুর থেকে অন্য কেউ হবেন তৃণমূল প্রার্থী।

তৃণমূলের রাজনৈতিক পরামর্শদাতা প্রশান্ত কিশোরের টিমের সরাসরি নাম না নিয়েও তাকে ‘বাজারি কোম্পানি’ বলে কটাক্ষ করেছিলেন তিনি। অভিযোগ করেছিলেন যে, বাজারি কোম্পানি তাঁকে রাজনীতির জ্ঞান দিচ্ছে। যা তিনি কিছুতেই মেনে নিতে পারছেন না। এরপরেই জল্পনা বাড়ে তাঁকে নিয়ে। তিনি তৃণমূলে কি নিষ্ক্রিয় হয়ে পড়বেন? নাকি তৃণমূল ছেড়ে চলে যাবেন বিজেপিতে? তাঁর রাজনৈতিক ভবিষ্যত নিয়ে শুরু হয় নানা জল্পনা।


ফেসবুকে আমাদের নতুন ঠিকানা, লেটেস্ট আপডেট পেতে আজই লাইক ও ফলো করুন – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের টেলিগ্রাম গ্রূপে জয়েন করতে – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের সিগন্যাল গ্রূপে জয়েন করতে – ক্লিক করুন এখানে



আপনার মতামত জানান -

এই আবহে গতকাল শুক্রবার শুভেন্দু অধিকারী মন্ত্রিত্ব ছেড়ে দিতেই তাঁকে সমর্থন জানালেন বিধায়ক শীলভদ্র দত্ত। এ প্রসঙ্গে তিনি বললেন, ” উনি যা করেছেন, ঠিক করেছেন। আমি ওঁর ফ্যান।” এদিকে আগামী কিছুদিনের মধ্যেই ব্যারাকপুরের বিধায়ক শীলভদ্র দত্ত তাঁর সরকারী নিরাপত্তাকর্মী ছেড়ে দেবেন বলে শোনা যাচ্ছে। তবে তিনিও কি শুভেন্দু অধিকারীর পথে হাঁটবেন? তা এখনও স্পষ্ট করে জানান নি তিনি।

তবে অনেকেই মনে করছেন যে, মুকুল রায়ের সঙ্গে একসময় তাঁর যথেষ্ট ঘনিষ্ঠতা ছিল, তাই তাঁর বিজেপিতে চলে যাবার একটা বিরাট সম্ভাবনা আছে। প্রসঙ্গত, শুভেন্দু অধিকারী যদি বিজেপিতে যোগ দেন, তবে তৃণমূলের একটা বড় অংশ বিজেপিতে চলে যেতে পারে বলে আশঙ্কা আছে শাসকদল তৃণমূলের। এই অবস্থায় শুভেন্দু অধিকারীর প্রশংসা করে, তাঁকে সমর্থন করে শাসকদলের অস্বস্তি আরও অনেকটা বাড়িয়ে দিলেন তৃণমূল বিধায়ক শীলভদ্র দত্ত। যার মাধ্যমে তিনি পাল্লা ভারি করে দিলেন শুভেন্দু অধিকারীর।

একনজরে দেখে নিন আমাদের সর্বশেষ বিধানসভা ২০২১ ওপিনিয়ন পোল –

# মুর্শিদাবাদ জেলার ওপিনিয়ন পোল – দ্বিতীয় পর্ব – 

# মুর্শিদাবাদ জেলার ওপিনিয়ন পোল – প্রথম পর্ব – 

# মালদহ জেলার ওপিনিয়ন পোল –

# দক্ষিণ দিনাজপুর জেলার ওপিনিয়ন পোল –

# উত্তর দিনাজপুরে জেলার ওপিনিয়ন পোল –

# জলপাইগুড়ি ও কালিম্পঙ জেলার ওপিনিয়ন পোল –

# আলিপুরদুয়ার ও দার্জিলিং জেলার ওপিনিয়ন পোল –

# কুচবিহার জেলার ওপিনিয়ন পোল –

আপনার মতামত জানান -
আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!