এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > কলকাতা > পৌরভোটে অশান্তি রুখতে উদ্যোগ কমিশনের, জেনে নিন!

পৌরভোটে অশান্তি রুখতে উদ্যোগ কমিশনের, জেনে নিন!



যে কোনো নির্বাচনেই রাজ্যে প্রবল অশান্তি হয় বলে অভিযোগ বিরোধীদের। এক্ষেত্রে নির্বাচনকে প্রহসনে পরিণত করতে শাসক দল তাদের ক্যাডারদের দিয়ে বুথ রিগিং সহ একাধিক অন্যায় কাজ করে বলেও বিভিন্ন সময় সরব হতে দেখা গেছে বিরোধী রাজনৈতিক দলগুলোকে। সামনেই পৌরসভা নির্বাচন। আর সেই নির্বাচন রাজ্য পুলিশ দিয়ে হলেও, শাসকদল ব্যাপক রিগিং করবে বলেও সরব হয়েছে তারা। তবে কেউ যাতে পৌরসভা ভোট নিয়ে এই ধরনের অভিযোগ করতে না পারে, তার জন্য এবার পদক্ষেপ নিল রাজ্য নির্বাচন কমিশন।

সূত্রের খবর, এবার পৌরভোট নিয়ে যে কোনো অভিযোগ জানানোর জন্য একটি পোর্টাল চালু করতে চলেছে কমিশন। ইতিমধ্যেই রাজ্যের সমস্ত জেলাতে এই পোর্টাল তৈরীর প্রাথমিক পর্যায়ের কাজ শুরু হয়ে গিয়েছে বলে খবর। যার নাম দেওয়া হয়েছে “ইলেকশন গ্রিভান্স মানেজমেন্ট সিস্টেম।” জানা গেছে, প্রথমবার রাজ্য নির্বাচন কমিশন এই পোর্টাল তৈরীর কাজ শুরু করছে। সূত্রের খবর, শুক্রবার এই পোর্টাল নিয়ে একটি ওয়ার্কশপ অনুষ্ঠিত হয়।

যেখানে উপস্থিত ছিলেন, রাজ্য নির্বাচন কমিশনের সচিব নিলাঞ্জন শাণ্ডিল্য, যুগ্মসচিব ইন্দ্রনীল মুখোপাধ্যায় সহ নির্বাচনী আধিকারিকরা। আর সেখানেই এই ব্যাপারে বিস্তারিত আলোচনা হয়। প্রসঙ্গত, লোকসভা এবং বিধানসভা নির্বাচনে অনলাইনের মাধ্যমে কোনো অভিযোগ জানানোর জন্য ইতিমধ্যেই ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে। তবে এবার পৌরভোট নিয়ে যাতে কোনো বিশৃঙ্খলা না হয়, তার জন্য সকলের অভিযোগ নিতে পোর্টাল চালু করতে চলেছে রাজ্য নির্বাচন কমিশন বলে মত বিশেষজ্ঞদের।

আমাদের নতুন ফেসবুক পেজ (Bloggers Park) লাইক ও ফলো করুন – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের টেলিগ্রাম গ্রূপে জয়েন করতে – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের সিগন্যাল গ্রূপে জয়েন করতে – ক্লিক করুন এখানে



আপনার মতামত জানান -

ইতিমধ্যেই রাজ্যের আসন্ন পৌরসভা নির্বাচন নিয়ে রাজ্য নির্বাচন কমিশনার সৌরভ দাসের সঙ্গে কথা বলেছেন রাজ্যপাল জগদীপ ধনকার। যেখানে সাধারন মানুষ যাতে এই ভোট নিয়ে তাদের সমস্ত অভিযোগ জানাতে চান, তার জন্য কমিশনকে পদক্ষেপ নেওয়ার কথা বলেছেন তিনি। আর তার পরিপ্রেক্ষিতেই এবার কমিশনের পক্ষ থেকে এই পদ্ধতি অবলম্বন করা হল বলে মনে করছে একাংশ। তবে এখনও পর্যন্ত পৌরসভা নির্বাচন কবে হবে, তা নিয়ে চূড়ান্ত কোনো সিদ্ধান্ত নেয়া হয়নি।

জানা গেছে, আগামী সোমবার সর্বদলীয় বৈঠকের পরেই পৌরসভা নির্বাচন নিয়ে আভাস পাওয়া যাবে। আর নির্বাচনের দামামা বাজার সাথে সাথেই পোর্টাল চালু হয়ে যাবে। সব মিলিয়ে সাধারণের অভিযোগের নিষ্পত্তি ঘটাতে, পৌরভোটে কমিশনের পক্ষ থেকে এই পোর্টাল চালু হলে তা কতটা কার্যকর হয়, সেদিকেই নজর থাকবে সকলের।

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!