এখন পড়ছেন
হোম > জাতীয় > উত্তেজিত হয়ে পুলিশের গাড়ি ভাঙচুর করে গ্রেপ্তারির ভয়ে এলাকা ছাড়া স্থানীয়রা

উত্তেজিত হয়ে পুলিশের গাড়ি ভাঙচুর করে গ্রেপ্তারির ভয়ে এলাকা ছাড়া স্থানীয়রা



গুজরাতের আমেদাবাদে দাসপুর থানা এলাকায় চাঁইপাটগঞ্জের ভাস্কর নামের এক কিশোরের ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার নিয়ে কার্যত অগ্নিগর্ভ হয়ে উঠেছিলো এলাকা। কিশোরকে খুন করে ঝোলানো হয়েছে তাঁর দেহ- এই দাবী তুলে স্থানীয় বাসিন্দারা প্রতিবাদ বিক্ষোভে সামিল হয়েছিল। তাঁদের সেই অবরোধ তুলে দিতে পুলিশ সক্রিয় হলে উত্তেজিত জনতার কোপের মুখে পড়তে হয় পুলিশ প্রশাসনকে। পুলিশের গাড়ি ভাঙচুর করে বাসিন্দারা। এরপর পুলিশ লাঠিচার্জ করে পরিস্থিতির সাময়িক নিয়ন্ত্রণ আনে।

এদিকে,সরকারি জিনিসের উপর আক্রোশ দেখানোর অপরাধে পুলিশ প্রাথমিকভাবে আটক কারে ১৬ জনকে। পরে এদের ভিতর ৫ জনকে গ্রেফতার করা হয়। তাঁদের  এদিন ঘাটাল আদালতে পেশ করা হলে ৩ জনকে ৫ দিনের এবং বাকি ২ জনকে ১৪ দিনের পুলিশি হেফাজতে নেওয়ার নির্দেশ দিলেন বিচারক।

পুলিশ গাড়ি ভাঙচুর করার জন্য যেভাবে নাস্তানাবুদ হতে হচ্ছে স্থানীয় অভিযুক্তদের,তার জেরে আপাতত থমথমে পরিস্থিতিই রয়েছে চাঁইপাটগঞ্জে। যারা যারা এই ভাঙচুরে সেদিন ধৃতদের সাথ দিয়েছিলো তাঁদের নামেও গ্রপ্তারি পরোয়ানা আসতে পারে,এই আতঙ্কেই এলাকা ছেড়ে পালিয়েছে অনেকে। তবে পরিস্থিতি কিছুটা স্বাভাবিক হওয়ায় এদিন এলাকায় দোকানপাট খুলতে দেখা গেলো।

 

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!