এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > মেদিনীপুর > পাশে দাঁড়ায়নি তৃণমূল! লকডাউনে ত্রাণ দিয়েছে সিপিএম! বিস্ফোরক হেভিওয়েট তৃণমূল সাংসদের ভাই

পাশে দাঁড়ায়নি তৃণমূল! লকডাউনে ত্রাণ দিয়েছে সিপিএম! বিস্ফোরক হেভিওয়েট তৃণমূল সাংসদের ভাই



গোটা বিশ্বের মত বাংলাতেও করোনার থাবা ক্রমশ প্রখর হয়ে উঠেছে। যেহেতু এই মারণ ভাইরাসের কোনো প্রতিষেধক গোটা বিশ্বজুড়েই কোথাও আবিষ্কৃত হয় নি, তাই আপাতত গৃহবন্দী ও সামাজিক দূরত্বের মাধ্যমেই একে প্রতিহত করার চেষ্টা করা হচ্ছে। আর সেই উদ্দেশ্যেই গোটা ভারত জুড়ে চলছে লকডাউন। আর এই লকডাউনে সব থেকে মুশকিলে পড়েছেন দিন আনা, দিন খাওয়া মানুষ গুলো।

যদিও, তাঁরা যাতে অসুবিধায় না পড়েন তার জন্য আগাম ফ্রি রেশনের ব্যবস্থা করেছে কেন্দ্র সরকার। আর বাংলায় শাসকদল তৃণমূল কংগ্রেসের দাবি, কেন্দ্র নয় বরং রাজ্য সরকারই এই ফ্রি রেশনের ব্যবস্থা করছে। এমনকি, প্রশাসনের বাইরেও দল হিসাবে তৃণমূল কংগ্রেস মানুষের কাছে পৌঁছে যাচ্ছে। এর সঙ্গেই ঘাসফুল শিবিরের অভিযোগ, এই কঠিন সময়ে বিরোধীদের খুঁজে পাওয়া যাচ্ছে না, তাঁরা ঘরে বসে রাজনীতি করছেন। মানুষের পাশে থেকে সেবা করছে শুধুমাত্র তৃণমূল কংগ্রেস।

ফেসবুকে আমাদের নতুন ঠিকানা, লেটেস্ট আপডেট পেতে আজই লাইক ও ফলো করুন – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের টেলিগ্রাম গ্রূপে জয়েন করতে – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের সিগন্যাল গ্রূপে জয়েন করতে – ক্লিক করুন এখানে



আপনার মতামত জানান -

কিন্তু শাসকদলের সেই দাবিকে কার্যত নস্যাৎ করে দিলেন হেভিওয়েট তৃণমূল সাংসদের ভাই। ঘাটালের দুবারের সাংসদ অভিনেতা দীপক অধিকারী তথা দেবের খুড়তুতো ভাই বিক্রম অধিকারী পেশায় বাসের কন্ডাক্টর। তিনি জানিয়েছেন, এই কঠিন সময়ে কোনোরকমে জমানো টাকায় দিন চলছিল, কিন্তু তা ফুরিয়েছে। বৃদ্ধা মা, স্ত্রী, দুই সন্তানকে নিয়ে চরম সংকটের মধ্যে পড়েছিলাম। মায়ের বিধবা ও বার্ধক্য ভাতার জন্য ফর্ম ফিলাপ করেছিলাম। কই কিছুই তো আসেনি!

বিক্রমবাবু আরও জানিয়েছেন, কারও কাছে কিছু না পেয়ে সিপিএম পার্টির লোকেদের গিয়ে বলি, ওঁরা এসে চাল, আলু, আটা, তেল দিয়ে গেছেন। এদিন এই প্রসঙ্গে সিপিএমের জেলা সম্পাদক তরুণ রায় জানান, আমাদের সীমিত সামর্থ্যের মধ্যে যতটুকু পারছি মানুষকে সাহায্য করছি। দেবের ভাই হিসেবে নয়। ওই পরিবারকে আমাদের কর্মীরা ত্রাণ পৌঁছে দিয়েছে তাঁর কারণ ওঁরা আর্থিক ভাবে একেবারেই পিছিয়ে পড়া। স্বাভাবিকভাবেই, স্বয়ং হেভিওয়েট তৃণমূল সাংসদের ভাইকেই রাজ্য সরকার বা শাসকদল ত্রাণ পৌঁছাতে পারছে না সামনে আসাতে শুরু হয়েছে শোরগোল।

কিন্তু, এই সব দাবীই উড়িয়ে দিয়েছে তৃণমূল। বিরোধীরা কুৎসা ও চক্রান্ত করছে – এমন তত্ত্বই সামনে আনছে শাসকদল। স্থানীয় তৃণমূল কংগ্রেস বিধায়ক শিউলি সাহা জানিয়েছেন, উদ্দেশ্যপ্রণোদিত ভাবে সিপিএমের উস্কানিতে বিক্রম অধিকারী এসব বলেছেন। যিনি অভিযোগ করছেন তৃণমূল ত্রাণ দেয়নি, তিনি কি স্থানীয় স্তরে দলের কাউকে বলেছেন? আমি খোঁজ নিয়েছি কাউকে বলেননি। একজনও লোক নেই তৃণমূলের কাছে খাবার চেয়েছেন অথচ পাননি। সবমিলিয়ে তৃণমূল সাংসদ দেবের ভাইয়ের বিস্ফোরক অভিযোগ ঘিরে সরগরম রাজ্য রাজনীতি।

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!