এখন পড়ছেন
হোম > জাতীয় > নেপথ্যে কৃষি আইন, এই রাজ্যের ক্ষমতা হারাতে পারে বিজেপি

নেপথ্যে কৃষি আইন, এই রাজ্যের ক্ষমতা হারাতে পারে বিজেপি



প্রিয় বন্ধু মিডিয়া রিপোর্ট –   কেন্দ্রীয় সরকার আনীত নয়া কৃষি আইন বিজেপির অসস্তিকে বারবার বাড়িয়ে দিচ্ছে। কেন্দ্রীয় সরকারের কৃষি আইন কার্যকরী করার বিষয়ে নাছোড়বান্দা মনোভাব বারবার বিপদের মুখে ঠেলে দিচ্ছে বিজেপিকে। এই কারণে বিজেপির সঙ্গ ত্যাগ করেছে বেশ কিছু শরিক দল। এবার হরিয়ানার জেজেপি দল কেন্দ্রিয় নয়া কৃষি আইনের বিরুদ্ধে তীব্র প্রতিবাদ জানিয়ে এনডিএ জোট ছেড়ে বেরিয়ে আসার হুঁশিয়ারি দিয়েছে। কিন্তু জেজেপি যদি জোট ছেড়ে দেয়, তবে হরিয়ানায় ভেঙ্গে পড়বে বিজেপির জোট সরকার। যার ফলে বাড়ছে তীব্র আশঙ্কা গেরুয়া শিবিরে।

প্রসঙ্গত, কেন্দ্রের নয়া কৃষি আইন সম্প্রতি কার্যকর না করার পক্ষে নির্দেশ দিয়েছে সুপ্রিম কোর্ট। ফলে যথেষ্ট মুখ পুড়েছে কেন্দ্রীয় সরকারের। ইতিমধ্যে কেন্দ্রের নয়া কৃষি আইনের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ জানিয়ে হরিয়ানার জোট ছেড়ে বেরিয়ে যাবার হুঁশিয়ারি দিয়েছে দুষ্যন্ত চৌতালার দল জেজেপি। এদিকে, হরিয়ানার গত বিধানসভা নির্বাচনে সংখ্যাগরিষ্ঠতা লাভ করতে পারেনি বিজেপি। বিজেপি জেজেপির সঙ্গে জোট করে সরকার গঠন করেছে। এবার জেজেপি যদি জোট থেকে বেরিয়ে আসে, তবে হরিয়ানায় বিজেপি সরকারটাই পড়ে যাবে।


দেশে যে কোনো দিন ব্যান হয়ে যেতে পারে হোয়াটস্যাপ। তাই এখন থেকে আমরা শুধুমাত্র টেলিগ্রাম ও সিগন্যাল অ্যাপে। প্রিয় বন্ধু মিডিয়ার নিউজ নিয়মিতভাবে পেতে যোগ দিন –

টেলিগ্রাম গ্রূপটাচ করুন এখানে

সিগন্যাল গ্রূপটাচ করুন এখানে



আপনার মতামত জানান -

দুষ্যন্ত চৌতালার দল জেজেপির বেশকিছু বিধায়ক কেন্দ্রীয় নয়া কৃষি আইনের বিরুদ্ধে কৃষকদের আন্দোলনকে সমর্থন জানিয়ে এনডিএ জোট ছেড়ে বেরিয়ে আসার হুমকি দিয়েছেন। ইতিপূর্বে কেন্দ্রীয় কৃষি আইনের বিরুদ্ধে কৃষকদের আন্দোলনকে সমর্থন জানিয়ে বিজেপির সঙ্গ ত্যাগ করেছে পাঞ্জাবের অকালি দল ও রাজস্থানের লোক তান্ত্রিক জনতা দল। এবার এই পথেই হাঁটতে চলেছে জেজেপি দলও। ফলে তীব্র উদ্বেগে বিজেপি।

সিংহাসন হারানোর আশঙ্কা তৈরি হয়েছে হরিয়ানায় বিজেপির। জেজেপির বেশকিছু বিধায়ক এ বিষয়ে এতটাই নাছোড়বান্দা যে, শেষ পর্যন্ত মুখ্যমন্ত্রী মনোহর লাল খট্টর উপমুখ্যমন্ত্রী অজয় চৌতালাকে নিয়ে দ্বারস্থ হয়েছেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহের। কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অবশ্য বিষয়টি দেখবেন বলে জানিয়েছেন। কিন্তু বেশিরভাগ জেজেপি বিধায়কের এ বিষয়ে একগুয়ে মনভাব বিজেপির চিন্তা বাড়িয়ে তুলেছে। এবার কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর প্রচেষ্টায় এই সমস্যার সমাধান হয় কিনা? সেদিকেই দৃষ্টি সকলের।

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!