এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > মেদিনীপুর > নাগরিকত্ব নিয়ে তৃণমূলকে মাত দিতে এবার নতুন পদক্ষেপ রাজ্যের পদ্ম শিবিরের

নাগরিকত্ব নিয়ে তৃণমূলকে মাত দিতে এবার নতুন পদক্ষেপ রাজ্যের পদ্ম শিবিরের



এন আর সি, সি এ এ ও এন পি আর এর বিরোধিতায় টানা লড়াই চালিয়ে যাচ্ছেন প্রথম থেকেই মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। এরাজ্যে এনআরসি বিরোধিতায় মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় প্রথম থেকেই কড়া বিরোধিতার আশ্রয় নিয়েছেন। অন্যদিকে, দেশের অস্থির পরিস্থিতিতে নানান বিভ্রান্তি তৈরি হয়েছে, যা দূর করার জন্য এবার পশ্চিমবঙ্গের জন্য নতুন পরিকল্পনা অবলম্বন করে পথে নামছে বিজেপি। নতুন নাগরিকত্ব আইন এর ব্যাখ্যা দেওয়ার জন্য তারা জনসাধারণের বাড়ি বাড়ি গিয়ে বোঝানোর পরিকল্পনা করেছে।

এবার গড়বেতা, চন্দ্রকোনা রোড, গোয়ালতোড় এলাকার বিজেপি শিবির নতুন নাগরিকত্ব আইনকে ভালো ভাবে বোঝানোর জন্য জেলা বিজেপি সর্বাত্মক প্রচারে নামতে চলেছে। এ প্রসঙ্গে বিজেপির দলীয় কর্মীরা লিফলেট ছাপিয়ে বিলি করার মধ্যে দিয়ে, দেওয়াল লিখে, বাড়ি বাড়ি গিয়ে নতুন নাগরিকত্ব আইন এর ব্যাখ্যা দেবে, মানুষকে বোঝাবে এই আইনের বিভিন্ন ইতিবাচক দিক। ইতিমধ্যে গড়বেতা পশ্চিম মন্ডলের পক্ষ থেকে গড়বেতা, আমকোপা, আমলাগোড়া এলাকায় নাগরিকত্ব আইন এর সমর্থনে দেওয়াল লিখন শুরু হয়েছে।

শুধু তাই নয়, গোয়ালতোড় এর উত্তর ও দক্ষিণ মন্ডল এর উদ্যোগে বুথে বুথে বিজেপির তরফ থেকে মিছিল শুরু হয়েছে। সূত্রের খবর, চন্দ্রকোনা রোড এলাকায় বাড়ি বাড়ি যাওয়া শুরু করেছে বিজেপির দলীয় কর্মীরা লিফলেট নিয়ে। জেলা বিজেপির পক্ষ থেকে প্রতিটি মন্ডলের দায়িত্বপ্রাপ্ত নেতাদের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে নাগরিকত্ব আইনের ব্যাখ্যা নিয়ে লিফলেটগুলি যেন প্রত্যেকটি এলাকার প্রত্যেকটি বাড়িতে পৌঁছায় এবং তার সাথে সাথে মানুষকে যেন সঠিক ভাবে এই আইন সম্পর্কে ব্যাখ্যা দেন দলীয় কর্মীরা।


দেশে যে কোনো দিন ব্যান হয়ে যেতে পারে হোয়াটস্যাপ। তাই এখন থেকে আমরা শুধুমাত্র টেলিগ্রাম ও সিগন্যাল অ্যাপে। প্রিয় বন্ধু মিডিয়ার নিউজ নিয়মিতভাবে পেতে যোগ দিন –

টেলিগ্রাম গ্রূপটাচ করুন এখানে

সিগন্যাল গ্রূপটাচ করুন এখানে



আপনার মতামত জানান -

এ প্রসঙ্গে বিজেপির জেলা সম্পাদক মদন রুইদাস জানিয়েছেন ‘বিরোধীরা মানুষকে যাতে ভুল বোঝাতে না পারে, সে জন্য কিছু পদক্ষেপ করছি। এতে সাড়াও পাচ্ছি প্রচুর।’ বিজেপি সূত্রের খবর, বড়দিন ও নববর্ষের রেশ কাটার পর পুরো জানুয়ারি মাস জুড়ে নাগরিকত্ব আইন এর সমর্থনে জেলা জুড়ে প্রচার চলবে। তবে বিজেপির প্রচারকে গুরুত্ব দিতেই রাজি নয় তৃণমূল। এ নিয়ে জেলা তৃণমূলের কার্যকরী সভাপতি নির্মল ঘোষ বলেন, ‘বিজেপির কথা মানুষ আর বিশ্বাস করছে না।’

তবে বিভিন্ন পরিকল্পনা গ্রহণ করলেও বিজেপি নেতৃত্বের পক্ষ থেকে কিন্তু এখনো পর্যন্ত সারাদেশে এবং রাজ্যের নাগরিকত্ব আইনের বিরুদ্ধে যে বিক্ষোভের আগুন জ্বলছে, তাকে অস্তমিত করা এখনো পর্যন্ত সম্ভব হয়নি, বরং নিত্যদিন তা বেড়েই চলেছে। কেন্দ্রীয় সরকারের বিরুদ্ধে আন্দোলনের স্ফুলিঙ্গ ক্রমশ আগ্নেয়গিরির আকার ধারণ করতে চলেছে বলে মত রাজনৈতিক বিশেষজ্ঞদের।

রাজনৈতিক মহলের একাংশের মতে, কেন্দ্রীয় নেতৃত্বের উচিত দেশের জনসাধারণকে নাগরিকত্ব আইন সম্পর্কে স্পষ্ট ধারণা দেওয়া। না হলে জোর করে এই আন্দোলনকে ধামাচাপা দিতে গেলে হিতে বিপরীত হতে পারে। আপাতত সমগ্র পরিস্থিতির ওপর নজর রেখেছে দেশের ওয়াকিবহাল মহল।

আপনার মতামত জানান -

ট্যাগড
Top
error: Content is protected !!