এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > কলকাতা > পৌরসভা নির্বাচনের আগে ব্যাপক প্রকল্পের শিলান্যাস অনুব্রতর!

পৌরসভা নির্বাচনের আগে ব্যাপক প্রকল্পের শিলান্যাস অনুব্রতর!



ক্ষমতায় আসার পর থেকে বিভিন্ন জেলায় গিয়ে প্রশাসনিক বৈঠক করে উন্নয়ন প্রকল্পের সূচনা করেছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তবে মুখ্যমন্ত্রী সারা রাজ্যের জন্য উন্নয়ন প্রকল্প ঘোষণা করলেও, বীরভূম জেলায় নিজের বিশ্বস্ত সৈনিক অনুব্রত মণ্ডলের ওপর ভরসা ছিল মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের। সাংগঠনিক হোক বা প্রশাসনিক, প্রায় প্রতি ক্ষেত্রেই বীরভূম জেলায় শেষ কথা বলেন এই অনুব্রত মণ্ডল। আর এবার তার হাত ধরেই বোলপুর থেকে সারা জেলায় প্রায় হাজারখানেক প্রকল্পের শিলান্যাস হল। সূত্রের খবর, শুক্রবার গ্রামীণ সপ্তাহ উদযাপনে 100 দিনের কাজে বোলপুর থেকে 1000 টি প্রকল্পের শিলান্যাস করলেন বীরভূম জেলা তৃণমূল সভাপতি অনুব্রত মণ্ডল।

এদিনের এই অনুষ্ঠানে অনুব্রতবাবুর পাশাপাশি উপস্থিত ছিলেন মৎস্য মন্ত্রী চন্দ্রনাথ সিনহা, জেলাশাসক মৌমিতা গোদারা, জেলা পরিষদের মেন্টর অভিজিৎ সিংহ, সহ-সভাপতি নন্দেশ্বর মন্ডল সহ অন্যান্যরা। বোলপুর এসডিও অফিসের কনফারেন্স রুমে জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে আয়োজিত এই অনুষ্ঠানে 1600 টি প্রকল্পের জন্য প্রায় 80 কোটি টাকা বরাদ্দ করা হয়। শুধু তাই নয়, জেলা পরিষদের তরফে সাধারণ মানুষ যাতে সমস্ত পরিষেবা পান, তার জন্য চালু করা হয় একটি হোয়াটসঅ্যাপ নম্বর। যা হল, 9635309300।

জানা গেছে 100 দিনের কাজের ক্ষেত্রে জেলা প্রশাসনের প্রায় 100 কোটি টাকা প্রাপ্য রয়েছে। বিগত বছরগুলোতে ওই পরিমাণ টাকাই প্রশাসনের প্রাপ্য ছিল। তবে ওই টাকা দিয়ে স্থায়ী সম্পদ নির্মাণের সিদ্ধান্ত প্রশাসনের পক্ষ থেকে নেওয়ায়, গত 3 তারিখ থেকে বীরভূম জেলায় বিশেষ সপ্তাহ উদযাপনে নামা হয়। ইতিমধ্যেই বীরভূম জেলার উনিশটি ব্লকে স্থায়ী সম্পদ নির্মাণের জন্য অর্থ বরাদ্দ করার প্রক্রিয়া সম্পন্ন হয়েছিল। আর এবার সেই বরাদ্দকৃত অর্থের বিনিময়ে জেলার প্রত্যেকটি পঞ্চায়েতের প্রকল্প হাতে নেওয়া হল। যেখানে স্কুলের প্রাচীর, শ্মশানঘাট, স্বনির্ভর গোষ্ঠীর সদস্যদের বিপণন তৈরি সহ বেশকিছু নির্মাণের বরাত দেওয়া হয়েছে বলে খবর।

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, একদিকে গ্রামীণ হাট, প্রাচীর তৈরির মত উন্নয়ন প্রকল্পের মধ্যে দিয়ে সাধারণ মানুষের মন জয় করা, আর অন্যদিকে উন্নয়ন ও পরিষেবা নিয়ে সাধারন মানুষ যাতে কোনো বিপদে না পারেন, তার জন্য হোয়াটসঅ্যাপ নম্বর চালু করে তাদের সমস্ত অভাব অভিযোগ শোনা। দুই দিক থেকেই বীরভূম জেলা প্রশাসন এদিন নতুন দুয়ার খুলে দিল বলে মনে করছেন বিশেষজ্ঞরা।

এদিন এই প্রসঙ্গে বীরভূমের জেলাশাসক মৌমিতা গোদারা বলেন, “জেলা জুড়ে প্রায় 1600 টি প্রকল্প চালু করা হয়েছে। 80 কোটি টাকা ব্যয়ে এই প্রকল্পগুলো হবে। বোলপুর থেকে সারা জেলা প্রকল্পগুলোর শিলান্যাস করা হয়েছে। ব্লকগুলোতে পঞ্চায়েতের জনপ্রতিনিধি ও আধিকারিকরা শিলান্যাস করেছেন। প্রকল্পের কাজ শেষে প্রশাসনের তরফে সেগুলো দেখে নেওয়া হবে। কোথাও কোনো সমস্যা থাকলে, সেটিও দেখা হবে।” এদিকে এদিনের এই উন্নয়নমূলক প্রকল্প ঘোষিত হওয়ায় জেলাশাসককে ধন্যবাদ জানান বীরভূম জেলা তৃণমূল সভাপতি অনুব্রত মণ্ডল। এদিন তিনি বলেন, “জেলা পরিষদ ও জেলা শাসক পশ্চিমবঙ্গের মধ্যে একটা ইতিহাস তৈরি করলেন।” সব মিলিয়ে এবার অনুব্রত মণ্ডলের হাত দিয়ে বীরভূম জেলায় ব্যাপক উন্নয়ন সূচিত হল।

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!