এখন পড়ছেন
হোম > বিশেষ খবর > কাঁচরাপাড়াতেই ‘ভ্যানিশ’ মুকুল! প্রথম রাউন্ড কি শাসকদলের?

কাঁচরাপাড়াতেই ‘ভ্যানিশ’ মুকুল! প্রথম রাউন্ড কি শাসকদলের?



তখন তিনি তৃণমূল কংগ্রেস ত্যাগ করেছেন, ছেড়েছেন রাজ্যসভায় তৃণমূলের সাংসদ পদ, কিন্তু ঘোষণা করেননি তাঁর পরবর্তী রাজনৈতিক পদক্ষেপ। সেই সময় রাজ্যজুড়ে তাঁর নামে দীপাবলির শুভেচ্ছা জানিয়ে পোস্টার পড়া নিয়ে কম বিতর্ক হয় নি রাজ্য রাজনীতিতে। আর সেই পোস্টার বিতর্কই নতুন করে ফিরে এল, আর এলো তো এলো একদম তাঁর খাসতালুক কাঁচরাপাড়াতেই। কয়েক বছর আগেও কাঁচরাপাড়া-হালিশহর এলাকা ছেয়ে থাকত মুকুল রায়ের পোস্টারে। কিন্তু সেই তাঁর খাসতালুকেই এখন রীতিমতো দূরবীণ দিয়ে খুঁজতে হচ্ছে মুকুল রায়ের নামে পোস্টার। সূত্রের খবর যা কিছু দু-এক খানা মুকুল রায়ের পোস্টারে ছবি খুঁজে পাওয়া যাচ্ছে, তা তৃণমূলের পতাকার নীচে পরিত্যক্ত অবস্থায়!
মুকুল রায় তৃণমূল কংগ্রেস ছাড়তেই, কাঁচরাপাড়া-হালিশহর ছেয়ে গেছে তৃণমূল কংগ্রেসের দলনেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ও দলীয় সাংসদ অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের পোস্টারে। স্থানীয় তৃণমূল নেতৃত্ত্বের দাবি, বিজেপিতে যোগ দিয়ে মুকুল রায় রাজ্য রাজনীতিতে সাড়া ফেললেও তার কোনও প্রভাব নেই তাঁর নিজের এলাকাতেই! মুকুল রায় দলবদল করলেও তৃণমূলের স্থানীয় নেতা-কর্মীরা যে তৃণমূলের সঙ্গেই রয়েছেন তা স্পষ্ট করে দিয়েছেন একদা মুকুল রায় ঘনিষ্ঠরাই, তাঁদের বক্তব্য, তৃণমূল মানে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়, মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের ছবি নেমে গেলে কারও এক পয়সাও দাম নেই! মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ও অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় আমাদের নেতা-নেত্রী, তাঁদের ছবি তো টাঙাবই। মুকুল রায়ের নিজের খাসতালুক এই ছবি ফুটে উঠতেই রাজ্যজুড়ে হাসি ফুটেছে শাসকদলের নেতা-কর্মীদের। আর রাজনৈতিক বিশেষজ্ঞদের ধারণা, প্রথম রাউন্ডটা তাহলে শাসকদলই ছিনিয়ে নিল। যদিও মুচকি হেসে বিজেপি নেতৃত্ত্বের ছোট্ট জবাব, পিকচার আভি বাকি হ্যায় মেরে দোস্ত!

*ছবি মুকুল রায়ের ফেসবুক পেজের সৌজন্যে

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!