এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > কলকাতা > ফের মুকুলের বিরুদ্ধে নয়া মামলা দায়ের, সৌজন্যে তৃনমূল

ফের মুকুলের বিরুদ্ধে নয়া মামলা দায়ের, সৌজন্যে তৃনমূল



ষষ্ঠ দফার নির্বাচনের আগে এবার ফের শাসক বনাম বিরোধীর অভিযোগ পাল্টা অভিযোগে সরগরম রাজ্য রাজনীতি। শেষের দফাগুলিতে বাজিমাত করতে আস্তিনে রাখা তাসগুলি বের করতে শুরু করছে সকলেই। গতকালই সাংবাদিক বৈঠক থেকে রাজ্যের শাসক দল তৃণমূলের বিরুদ্ধে ১৩ হাজার কোটি টাকার বিদ্যুৎ দুর্নীতির অভিযোগ তুলে সরব হতে দেখা গেছে রাজ্যের বিজেপি নেতা মুকুল রায়কে।

আর মুকুলবাবু যখন রাজ্যের বিরুদ্ধে এহেন অভিযোগ তুলেছেন, ঠিক তখনই তার বিরুদ্ধে একটি জনস্বার্থ মামলা করলেন জনৈক আইনজীবী অরিন্দম ঘোষ। কিন্তু কেন হঠাৎ মুকুল রায়ের বিরুদ্ধে মামলা করা হল? সেই আইনজীবী দাবি, গত 2017 সালের 11 ই অক্টোবর রাজ্যসভার সাংসদ পদ থেকে মুকুল রায় ইস্তফা দিলেও তার জন্য যে বাংলো বরাদ্দ ছিল, তা এখনও পর্যন্ত খালি করেননি তিনি।


WhatsApp-এ প্রিয় বন্ধু মিডিয়ার খবর পেতে – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের অন্যান্য সোশ্যাল মিডিয়া গ্রূপের লিঙ্ক – টেলিগ্রামফেসবুক গ্রূপ, ট্যুইটার, ইউটিউব, ফেসবুক পেজ

আমাদের Subscribe করতে নীচের বেল আইকনে ক্লিক করে ‘Allow‘ করুন।

এবার থেকে আমাদের খবর পড়ুন DailyHunt-এও। এই লিঙ্কে ক্লিক করুন ও ‘Follow‘ করুন।



আপনার মতামত জানান -

হিসেব মতো সাংসদ পদ শেষ হয়ে যাওয়ার এক মাসের মধ্যে সেই বাংলা ছেড়ে দেওয়ার কথা থাকলেও এখনও পর্যন্ত মুকুল রায় সেই বাংলো না ছাড়ায় তার বিরুদ্ধে দখলদারির অভিযোগ তুলে সেই মামলা করেছেন তিনি বলে জানিয়েছেন অরিন্দম ঘোষ। সূত্রের খবর, এদিন এই প্রসঙ্গে দিল্লি হাইকোর্টে সেই মামলাকারী আবেদন করে বলেন, যে অবিলম্বে মুকুল রায়কে বাংলো ছাড়া করা হোক। এতদিন বাংলো দখল করে রাখার জন্য বিজেপি নেতার কাছ থেকে প্রতিমাসে 30,000 টাকা করে ভাড়া আদায় করার জন্যও এদিন আদালতে আবেদন জানান তিনি।

রাজনৈতিক বিশেষজ্ঞদের মতে, শাসকদলের বিরুদ্ধে যখন বিদ্যুৎ দুর্নীতির অভিযোগ তুলে লোকসভা ভোটের মরশুমে তৃণমূলকে চাপে ফেলতে আসরে নেমেছেন বিজেপি নেতা মুকুল রায়, ঠিক তখনই পাল্টা সেই মুকুলবাবুকে চাপে ফেলে দিতে তার বিরুদ্ধে বাংলো দখলের অভিযোগ এনে আইনজীবী অরিন্দম ঘোষের এই মামলার পেছনে তৃণমূলেরই মদত রয়েছে বলে মনে করছে ওয়াকিবহাল মহলের একাংশ।

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!