এখন পড়ছেন
হোম > জাতীয় > মোদির প্রতিশ্রুতি মত ১৫ লক্ষ টাকা সবার একাউন্টে পৌছে গিয়েছে দাবি বিজেপি সভাপতি

মোদির প্রতিশ্রুতি মত ১৫ লক্ষ টাকা সবার একাউন্টে পৌছে গিয়েছে দাবি বিজেপি সভাপতি



রাজস্থানে বিজেপি দলের সভাপতি পদে মনোণীত হওয়ার অল্প দিনের মধ্যেই দেশের প্রধানমন্ত্রী তথা বিজেপি দলের শীর্ষ নেতা নরেন্দ্র মোদীর প্রশংসায় পঞ্চমুখ মদনলাল সাইনি। এদিন তিনি দাবি করেলেন যে ২০১৪ সালের লোকসভা নির্বাচনের প্রচারের সময়ে বিজেপি দলের পক্ষ থেকে প্রধানমন্ত্রী পদপ্রার্থী নরন্দ্র মোদী দেশের সাধারণ মানুষের অ্যাকাউন্টে ১৫ লক্ষ টাকা দেওয়ার প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন । আর তিনি নাকি সেই প্রতিশ্রুতি তিনি পূরণও করেছেন। নাহ প্রত্যক্ষ ভাবে নয় হয়ত কিন্তু তাহলেও পরোক্ষভাবে সেই প্রতিশ্রুতি পূরণ করেছেন তিনি এমনটাই দাবি করেলেন মদনলাল সাইনি।

আরো খবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

——————————————————————————————-

 এবার থেকে প্রিয় বন্ধুর খবর পড়া আরো সহজ, আমাদের সব খবর সারাদিন হাতের মুঠোয় পেতে যোগ দিন আমাদের হোয়াটস্যাপ গ্রূপে – ক্লিক করুন এই লিঙ্কে

নরেন্দ্র মোদী এও আশ্বাস দিয়েছিলেন যে কালো টাকা ফিরিয়ে এনে গরিবদের ১৫ লক্ষ টাকা দেবেন। যদিও পরে বিজেপি ক্ষমতায় আসার পর বিজেপি সভাপতি অমিত শাহ সেই বক্তব্যের ব্যাখ্যা দিয়ে বলেছিলেন, যে ওটা ছিল নেহাতই কথার কথা। যদি কালো টাকা ফিরিয়ে আনা সম্ভব হয়, তাহলে সেটা নিশ্চয় সাধারণ মানুষের অ্যাকাউন্টে চলে যাবে না। সম্প্রতি নতুন করে নরেন্দ্র মোদীর বলা সেই ১৫ লক্ষ টাকার বিষয়টিকে প্রকাশ্যে আনলেন রাজস্থানে বিজেপি সভাপতি। এক সাক্ষাৎকারে তিনি বললেন, “হয়ত নগদ টাকা দেওয়া হয়নি। তবে যে ব্যবস্থা করা হয়েছে তাতে গরিব মানুষের ১৫ লক্ষ টাকারই লাভ হয়েছে।” কেন্দ্র ও রাজ্য সরকারি স্কিমগুলির কথা উল্লেখ করে তিনি বললেন,”সবকটা স্কিম মেলালে দেখা যাবে গরিবরা ১৫ লক্ষ টাকা করেই লাভ পেয়েছেন।”

অল্প দিন আগেই ঐ রাজ্যে কৃষক আত্মহত্যার বিষয়টি নিয়ে বেশ হইচই হয়। সেই প্রসঙ্গ উত্থাপন করেই তিনি জানালেন , তিনি নিজেও একজনও কৃষক। তিনি জানেন, রাজস্থানের কৃষকদের অনেক কষ্ট করতে হয়। ৫০০ ফুট গভীর থেকে জল তুলে চাষ করতে হয়। তাঁর মতে এত পরিশ্রমের জন্যে স্বাভাবিক কারণেই কৃষকের মৃত্যু হচ্ছে রাজ্যে। অন্যদিক রাজ্যের বিজেপি সরকার প্রসঙ্গে তাঁর বক্তব্য একটু আলাদা। উল্লেখ্য বিজেপি দলের পক্ষ থেকে রাজস্থানে ২০১৩-র বিধানসভা নির্বাচনে ১৫ লক্ষ কর্ম সংস্থানের সুযোগ করে দেওয়ার প্রতিশ্রুতি দেওয়া হয়েছিলো ।

চলতি বছরেই আবার রাজ্যে বিধানসভা নির্বাচন। তবে রাজ্য সরকারের প্রতিশ্রুতি পূরণ প্রসঙ্গে দলের বর্তমান রাজ্য সভাপতির বক্তব্য গত বিধানসভা নির্বাচনে সরকারি চাকরি দেওয়া হবে, এমনটা বলা হয়নি। তবে ইতিমধ্যেই ২-৩ লক্ষ সরকারি চাকরি দেওয়া হয়েছে আর অনেক চাকরির সুযোগ করে দেওয়া হয়েছে। আর সব মিলিয়ে রাজ্যে ১৫ লক্ষ কর্মসংস্থান হয়েছে বলে তিনি দাবি করলেন।

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!