এখন পড়ছেন
হোম > অন্যান্য > মাত্র ৭টি পদক্ষেপেই বিয়ের সাজে টেক্কা দিন সকলকে! বিশেষ দিনটিতে সবার নজর কেড়ে নিন সহজেই!

মাত্র ৭টি পদক্ষেপেই বিয়ের সাজে টেক্কা দিন সকলকে! বিশেষ দিনটিতে সবার নজর কেড়ে নিন সহজেই!



প্রিয় বন্ধু মিডিয়া রিপোর্ট প্রতিটা মানুষের জীবনেই বিয়ে নিয়ে থাকে অনেক স্বপ্ন। কেমন শাড়ি পরবে, কেমন সাজ হবে, কেমন ভাবে নিজেকে সকলের সামনে আনবেন সেই নিয়ে থাকে হাজারো প্ল্যান। তবে সেইসঙ্গে থাকে একটি চাপা উত্তেজনাও। কারণ যে মানুষটির সঙ্গে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হতে চলেছেন সেই মানুষটির কাছে তাকে কেমন লাগবে সেটিও নিয়ে থাকে চিন্তা। তবে এতকিছু টেনশন এর মধ্যেও যখন বিয়ের সাজে পছন্দের মানুষটিকে দেখে চোখ ধাঁধিয়ে যায়, তখন বাকি আর কিছুই যেন মনে থাকে না। তখন সেই মানুষটির মুখ থেকে চোখ সরাতে মন চায় না।

তাই আপনার বিয়ের দিনের মেকআপ কেমন হলে আপনার পছন্দের মানুষটিও আপনার চোখ থেকে চোখ সরাতে না পারবে না, সেই বিষয়ে জেনে নিন কিছু সহজ টিপস।বিয়ে করার আগে প্রথমে সবাই ঠিক করেন একটি বাজেট। তবে সেই বাজেটে প্যান্ডেল, খাওয়া-দাওয়া, গয়না কেনার সঙ্গে কোথাও যেন পিছনে পড়ে যায় মেকাপের বাজেট। তবে সেটির কিন্তু কদর কম নয়।

আমাদের নতুন ফেসবুক পেজ (Bloggers Park) লাইক ও ফলো করুন – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের টেলিগ্রাম গ্রূপে জয়েন করতে – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের সিগন্যাল গ্রূপে জয়েন করতে – ক্লিক করুন এখানে



আপনার মতামত জানান -

কারণ যার বিয়ে তাকে যদি দেখতে ভালো না লাগে, তবে অর্ধেক আনন্দ সেখানেই মাটি হয়ে যায়। তাই বিয়ের বাজেটে সবার আগে প্রয়োজন মেকাপের বাজেট ধরে নেওয়া।এখন অনেকেই থিম বেস বিয়ে করেন। তাই থিম মাথায় রেখে মেকআপ কেমন হবে সেটা আগে থেকেই ঠিক করে রাখুন। দরকার হলে আগে থেকে কথা বলে রাখুন আপনার মেকআপ ডিজাইনারের সঙ্গে, ফলে বিয়ের দিন যেন কোনো রকম ভুল বোঝাবুঝি না হয়।

বিয়ের সাজের আরেকটি গুরুত্বপূর্ণ জিনিস হল ড্রেস বা পোশাক। অনেকে বিয়ের দিন বেনারসি পরেন, আবার বৌভাতের দিন লেহেঙ্গা পরেন। ছেলেদের ক্ষেত্রেও একই ভাবে ধুতি পাঞ্জাবি বা কুর্তা সেরবানি পরা হয়। সেক্ষেত্রে আপনার মেকআপ -এর সঙ্গে যেন আপনার পোশাকের একটা স্বচ্ছন্দ থাকে সেদিকে লক্ষ্য রাখতে হবে। সঙ্গে একইভাবে তাল মিলিয়ে যাতে আপনার গয়নাও হয় নজরকাড়া সেদিকেও লক্ষ্য রাখুন।

আপনার সাজ, শাড়ি এবং গয়না যেন পরস্পর পরস্পরের সঙ্গে খাপ খায় এমনটাই মনে রাখতে হবে। অনেকে আবার ফুলের গয়নাও পরেন। সে ক্ষেত্রে সেই ফুলের রঙ যেন আপনার পোশাক এবং মেকআপ এর সঙ্গে মিলে সেটা দেখতে হবে।

বর্তমানে সময়ের সঙ্গে সঙ্গে তাল মিলিয়ে মেকআপে অনেক রকমের নতুন ট্রেন্ড এসেছে। সেক্ষেত্রে সেই ট্রেন্ডগুলিকে দেখে নিতে পারেন। তবে আপনার পছন্দ যেরকম, সেরকম ভাবে মেকআপ করলে হয়তো আপনাকে সবচেয়ে ভাল লাগবে। তবে সর্বশেষ সিদ্ধান্ত নেওয়ার আগে অবশ্যই একবার মেকআপের ট্রায়াল দিয়ে দেখে নিতে হবে। সেক্ষেত্রে আপনার মেকআপ ডিজাইনারকে ভালোভাবে আপনার পছন্দ বুঝিয়ে দিন।

এছাড়া বিয়ের দিন সব আচার আচরণের মধ্যে মেকআপের জন্য কিন্তু রাখতে হবে অনেকটা সময়। অনেকেই বিয়ের কাজে সেই সময়কে নষ্ট করে ফেলেন। তাই এক্ষেত্রে ৩-৪ ঘণ্টা সময় আলাদা করে রাখুন। কোনো ভাবেই তাড়াহুড়ো করবেন না। তাতে হিতে বিপরীত হতে পারে। ধৈয্য নিয়ে নিজেকে সাজান।

তাহলে দেরি না করে, আপনিও দেখে নিন কোন উপায়টির মাধ্যমে আপনি হয়ে উঠতে পারবেন আপনার বিশেষ দিনটিতে অনন্যা।

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!