এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > কলকাতা > “ভাইপোকে বাঁচাতে, আর্থিক কেলেঙ্কারি ধামাচাপা দিতে বিজেপির দালালি করছেন মমতা” জোর চাঞ্চল্য!

“ভাইপোকে বাঁচাতে, আর্থিক কেলেঙ্কারি ধামাচাপা দিতে বিজেপির দালালি করছেন মমতা” জোর চাঞ্চল্য!



 

বর্তমানে কেন্দ্রের বিরুদ্ধে সব সময়ই নিজের সুর চড়ান বাংলার মুখ্যমন্ত্রী তথা তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তবে প্রায় প্রত্যেক সময়েই মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের বিজেপির বিরোধিতা নিয়ে তাকে প্রশ্নচিহ্নের মুখে ফেলে দেয় সিপিএম। সেক্ষেত্রে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বিজেপির বিরোধিতা করলেও, তলায় তলায় তৃণমূল এবং বিজেপি একই মুদ্রার এপিঠ-ওপিঠ বলে দাবি করেন। শুধু তাই নয়, প্রতিটি ঘটনায় বাঁচতে বিজেপির সঙ্গে আড়ালে-আবডালে কথা চালাচ্ছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বলেও দাবি করতে দেখা যায় বাম নেতাদের।

তবে বিজেপি বিরোধিতায় সরব মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় কেন্দ্রীয় নীতির বিরুদ্ধে চব্বিশটি সংগঠনের ডাকা বনধকে সমর্থন করবেন বলে মনে করেছিল একাংশ। কিন্তু শেষ পর্যন্ত সেই বনধকে সমর্থন করা বাম এবং কংগ্রেস মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের দ্বিচারিতা নিয়ে প্রশ্ন তুলতে শুরু করলেন। কেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বিজেপি বিরোধী হলেও, বিজেপির বিরোধিতায় ডাকা বনধ সমর্থন করছেন না, তা নিয়ে দিন প্রশ্ন তুলে দেন সিপিএমের মহম্মদ সেলিম।


ফেসবুকে আমাদের নতুন ঠিকানা, লেটেস্ট আপডেট পেতে আজই লাইক ও ফলো করুন – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের টেলিগ্রাম গ্রূপে জয়েন করতে – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের সিগন্যাল গ্রূপে জয়েন করতে – ক্লিক করুন এখানে



আপনার মতামত জানান -

অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের প্রসঙ্গ তুলে মহম্মদ সেলিম বলেন, “ভাইপোকে বাঁচাতে, আর্থিক কেলেঙ্কারি ধামাচাপা দিতে আজকের ধর্মঘটে দালালি করছেন মমতা। গোটা দেশে মোদি-শাহ যা করছেন, মমতাও তাই করছেন।” ধর্মঘটে কিছুটা অশান্তি নিয়েও মুখ্যমন্ত্রীকে কটাক্ষ করেন সেলিম। তিনি বলেন, “আমাদের রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী যদি মোদি-অমিত শাহের রাজনীতি পিছু না ছাড়েন, প্রধানমন্ত্রীর বিরুদ্ধে যখন রাস্তায় নামবেন, তখন নিজের আর্থিক কেলেঙ্কারিতে ধামাচাপা দিতে, নিজের ভাইপোকে বাঁচাতে আজকের ধর্মঘটের মত যদি উনি দালালি করেন, তবে পিএমের সঙ্গে সিএমের বিরুদ্ধেও আজকের মানুষ স্লোগান দিতে বাধ্য হবে।”

পাশাপাশি গায়ের জোরে বনধ ব্যার্থ করা নিয়েও রাজ্য প্রশাসনকে কটাক্ষ করেন এই হেভিওয়েট সিপিএম নেতা। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে কটাক্ষ করে সেলিম সাহেব বলেন, “ট্রাম যেমন করেন না তালিবানদের দিয়ে, গুড টেররিস্ট, ব্যাড টেরোরিস্ট, তেমনি মমতাও এখন ভালো সিপিএম, খারাপ সিপিএম খুঁজতে বসেছেন। সিপিএম সরকারে থাকুক বা বিরোধিতায় থাকুক, লড়াই-সংগ্রামে আছে। এটাই ফারাক।”

বিশ্লেষকরা বলছেন, মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বিজেপি বিরোধী নেত্রী হলেও, তিনি যেভাবে এই বনধকে সমর্থন করলেন না, তাতে তার নীতি নিয়ে প্রশ্ন তুলে দিয়ে “মোদি মমতা গটআপের” কথা তুলে ধরলেন মহম্মদ সেলিম। যা রাজ্য রাজনীতিতে ব্যাপক শোরগোলের সৃষ্টি করল বলেই মনে করছেন বিশেষজ্ঞরা।

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!