এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > লোকসভার আগেই নেতৃত্বে বড়সড় পরিবর্তন বামফ্রন্টের শরিক দলের

লোকসভার আগেই নেতৃত্বে বড়সড় পরিবর্তন বামফ্রন্টের শরিক দলের



লোকসভা নির্বাচনের আগে যখন রাজ্যে শাসক দল তৃণমূল ও বিরোধীদল বিজেপিকে ঠেকাতে যখন মরিয়া হয়ে উঠেছে বামফ্রন্ট, ঠিক তখনই বাম শরিক আরএসপির সাংগঠনিক পদে ঘটল বড়সড় রদবদল। সূত্রের খবর, এবার আরএসপির নতুন রাজ্য সম্পাদক হলেন বালুরঘাটের বাম বিধায়ক বিশ্বনাথ চৌধুরী।

জানা গেছে, রাজ্যের বাম আমলের প্রাক্তন মন্ত্রী ক্ষিতি গোস্বামীর জায়গায় আসলেন বিশ্বনাথ বাবু। কিন্তু হঠাৎ আরএসপির রাজ্য স্তরের সংগঠনে এহেন রদবদল হলো কেন? প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, প্রায় দু’মাস আগে দিল্লিতে অনুষ্ঠিত পার্টি কংগ্রেসে আরএসপির সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদক পদে নির্বাচিত করা হয় ক্ষিতি গোস্বামীকে। আর তার অনেক আগে থেকেই দলের রাজ্য সম্পাদক পদে ছিলেন ক্ষিতিবাবু। পরিস্থিতির চাপে সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদকের পদ নিলেও একসাথে কিভাবে এক ব্যক্তি দুটো পদে থাকেন তা নিয়ে সেই ক্ষিতি গোস্বামীকে দলেরই মধ্যে বিভিন্ন ব্যক্তির প্রশ্নের মুখে পড়তে হয়।

আর এরপরই ঠিক হয় যে আসন্ন লোকসভা নির্বাচনের পরেই এই দুই পদের মধ্যে যেকোনো একটি পদে থাকবেন তিনি। কিন্তু সম্প্রতি রাজ্য সম্পাদকমণ্ডলীর বৈঠকের রাজ্য সম্পাদক পদ থেকে অব্যাহতি চান ক্ষিতি গোস্বামী। জানা গেছে, এদিন বামেদের রাজ্য সম্পাদকমণ্ডলীর বৈঠকে আগামী 3 রা ফেব্রুয়ারি ব্রিগেড সমাবেশ নিয়ে একটি বিস্তর আলোচনা হয়। যেখানে কোন জেলা থেকে কত লোক আসবে সেই ব্যাপারেও দলীয় নেতাকর্মীদের সংগঠনের দিকে মনোনিবেশ করার নির্দেশ দেওয়া হয়।

 


ফেসবুকে আমাদের নতুন ঠিকানা, লেটেস্ট আপডেট পেতে আজই লাইক ও ফলো করুন – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের টেলিগ্রাম গ্রূপে জয়েন করতে – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের সিগন্যাল গ্রূপে জয়েন করতে – ক্লিক করুন এখানে



আপনার মতামত জানান -

আর এই বৈঠকেই রাজ্যে আরএসপি সম্পাদক পদে প্রবীণ বাম বিধায়ক বালুরঘাটের বিশ্বনাথ চৌধুরীর নাম প্রস্তাব করেন ক্ষিতি গোস্বামী। আর সাথে সাথেই ক্ষিতি বাবুর এই প্রস্তাব গৃহীত হয় রাজ্য কমিটিতে। সর্বসম্মতিক্রমে বিশ্বনাথ চৌধুরীর নাম পাশ হয় আরএসপির রাজ্য সম্পাদক পদের জন্য। তবে বার্ধক্যজনিত ও শারীরিক কারণে বালুরঘাটের বাসিন্দা বিশ্বনাথ চৌধুরী সারারাজ্যে দলের সংগঠন কতটা মজবুত করতে পারবেন তা নিয়ে বিভিন্ন মহলে তৈরি হয়েছে নানা প্রশ্ন।

পাশাপাশি ছাত্র যুবদের নিয়ে ঘুরে দাঁড়ানোর কথা বললেও কেন আরএসপির রাজ্য সম্পাদক পদে এহেন প্রবীণ নেতাকে দায়িত্ব দেওয়া হল তা নিয়েও তৈরি হয়েছে জল্পনা। তবে এত সব জল্পনা-কল্পনার মাঝেও রাজ্যের সংগঠনকে যে ভালোভাবেই ঘুরে দাঁড় করাবেন তিনি সেই কথা শোনা গেছে বালুরঘাটের বাম বিধায়ক তথা নতুন আরএসপির রাজ্য সম্পাদক বিশ্বনাথ চৌধুরীর গলায়।

রাজনৈতিক পর্যবেক্ষকদের মতে, বিশ্বনাথবাবুর এই সমস্ত দাবি তখনই সত্যি হবে, যখন আগামী 3 রা ফেব্রুয়ারি বামেদের ব্রিগেডে আরএসপির রেকর্ড কর্মীসমর্থক নিয়ে যেতে পারবেন তিনি। এখন সেই পরীক্ষায় কতটা সফল হন উত্তরবঙ্গের এই প্রবীণ বাম বিধায়ক সেদিকেই তাকিয়ে সকলে।

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!