এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > দলের মহিলা কাউন্সিলরকে হুমকি ওয়ার্ড সভাপতির – তুলকালাম শাসকদলের অন্দরে

দলের মহিলা কাউন্সিলরকে হুমকি ওয়ার্ড সভাপতির – তুলকালাম শাসকদলের অন্দরে



দলীয় অস্বস্তিকে বাড়িয়ে আলিপুরদুয়ার পুরসভার ২০ নম্বর ওয়ার্ডের তৃণমূল কংগ্রেসের মহিলা কাউন্সিলার রিঙ্কি বর্মনকে আসন্ন পুরসভা ভোটে না দাঁড়ানোর জন্য হুঁসিয়ারী দিলেন ওই ওয়ার্ডেরই সভাপতি রামচন্দ্র দে। এমনটাই অভিযোগ তুলে রিঙ্কি দেবী জানালেন, সংরক্ষণের পরেও এবার তাঁর পুরসভার ভোটে দাঁড়ানোর সুযোগটাই সহ্য করতে পারছেন না ওয়ার্ড সভাপতি। যথারীতি এদিন রাতে বাড়িতে এসে হুমকি দিয়ে ভোটে না দাঁড়াতে বলে গেছেন তিনি।

এরপর থেকেই নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছেন জানিয়ে পুলিশের কাছে লিখিত অভিযোগও দায়ের করেছেন রিঙ্কি দেবী। পাশাপাশি এলাকার তৃণমূলের শীর্ষ নেতৃত্বের কাছেও ওয়ার্ড সভাপতির বিরুদ্ধে নালিশ জানিয়েছেন। এই ইস্যুতে দলের ইতিবাচক সাড়া পাওয়ার অপেক্ষায় রয়েছেন তিনি,এমনটাই জানালেন। এদিকে একজন তৃণমূলের নেতা অপর এক দলীয় কাউন্সিলরকে হুমকি দিচ্ছেন,এ নজিরবিহীন খবর প্রকাশ্যে আসতেই চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে গোটা এলাকায়।

জেলা সূত্রের খবর থেকে জানা গিয়েছে,আগামী ২১ অক্টোবর আলিপুরদুয়ার পুরসভার বর্তমান বোর্ডের মেয়াদ শেষ হচ্ছে। সেজন্য পরবর্তী নির্বাচনের ওয়ার্ড সংরক্ষণের প্রাথমিক তালিকা প্রকাশিত হয়েছে সম্প্রতি। তাতে দেখা গিয়েছে,পুরসভার ২০ নম্বর ওয়ার্ডটি এবার সাধারণ প্রার্থীদের জন্য সংরক্ষণ করা হয়েছে। ফলত সংরক্ষণের কারণেই রিঙ্কি দেবীর আগামী পুরসভা ভোটে দাঁড়ানোর একটি সম্ভাবনা তৈরি হয়েছে। যদিও দলের তরফ থেকে এখনো এ ব্যাপারে কোনো সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়নি।

পুরসভার ২০ নম্বর ওয়ার্ডের কাউন্সিলর রিঙ্কি বর্মনে অভিযোগ জমা পড়েছে বলেই জানালেন অতিরিক্ত পুলিশ সুপার কল্যাণ সিংহ রায়। তবে অভিযোগের ভিত্তিতে এখনো তদন্তে নামা হয়নি বলেই জানালেন তিনি। অন্যদিকে, বিষয়টি নিয়ে সমস্ত বিতর্ক এড়াতে তৃণমূলের জেলা সভাপতি মোহন শর্মা ইস্যুটিকে সামান্য ব্যাপার বলেই ব্যাখ্যা করলেন। বললেন,একটু ভুল বোঝাবুঝি হয়েছিল, দলীয় উদ্যোগেই এটা মিটিয়ে ফেলা হচ্ছে। এ নিয়ে অযথা জলঘোলা করা হচ্ছে বলেই বক্তব্য তাঁর। এদিকে যার বিরুদ্ধে এতো অভিযোগ সেই তিনিই অর্থাৎ পুরসভার ২০ নম্বর ওয়ার্ডের তৃণমূল ওয়ার্ড সভাপতি রামচন্দ্র বসু সমস্ত অভিযোগ অস্বীকার করলেন। বিষয়টিকে ভিত্তিহীন বলে দাবী করলেন তিনি। সাফ কথায় জানালেন,রিঙ্কিদেবীকে তিনি কোনো হুমকি দেননি। কোনো রাজনৈতিক উদ্দেশ্যে নিয়েই চক্রান্ত করে তাকে ফাঁসানো হচ্ছে বলে পাল্টা অভিযোগ করলেন তিনি। তিনি যে সম্পূর্ণ নির্দোষ,সেটা তিনি দলের শীর্ষ নেতৃত্বকে জানিয়েছেন,এটাও বললেন।

ফেসবুকের কিছু টেকনিকাল প্রবলেমের জন্য সব খবর আপনাদের কাছে পৌঁছেছে না। তাই আরো খবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

এবার থেকে প্রিয় বন্ধুর খবর পড়া আরো সহজ, আমাদের সব খবর সারাদিন হাতের মুঠোয় পেতে যোগ দিন আমাদের হোয়াটস্যাপ গ্রূপে – ক্লিক করুন এই লিঙ্কে

লোকসভা ভোটের আগে দলীয় অন্দরেই এধরণের দ্বন্দ্ব সামনে অাসায় তৃণমূলশিবির যে অস্বস্তিতে ভুগছে,এ কথা অস্বীকার করা যায় না মোটেই। বিষয়টিকে ইস্যু করে বিরোধীর প্রচারের হাতিয়ার বানিয়ে ময়দানে নামতে পারে,এমনটাই আশঙ্কা তাঁদের। এ নিয়ে এখনো বিরোধীমহলের তরফ থেকে কোনো মন্তব্য পাওয়া যায়নি।

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!