এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > মেদিনীপুর > কাটমানি নিয়ে উত্তাল শুভেন্দু গড়, জোর শোরগোল রাজ্যে

কাটমানি নিয়ে উত্তাল শুভেন্দু গড়, জোর শোরগোল রাজ্যে



দলীয় স্তরে দুর্নীতি কমাতে লোকসভা ভোটে হারের পরই এই ব্যাপারে দলীয় নেতাদের উদ্দেশ্যে সতর্কবাণী দিতে দেখা যায় তৃণমূল নেত্রী তথা মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে। কেউ কাটমানি খেলে তা তাকেই ফেরত দিতে হবে বলে জানিয়ে দেন তিনি। আর এরপরই দিকে দিকে দুর্নীতিগ্রস্ত তৃণমূল নেতাদের বাড়ি ঘেরাও করে টাকা ফেরতের দাবিতে বিক্ষোভ দেখান সাধারণ মানুষ থেকে বিরোধী দলের কর্মী-সমর্থকরা। আর এরই পরিপ্রেক্ষিতে এবার কাটমানি ফেরতের দাবিতে উত্তপ্ত হতে দেখা গেল তৃণমূলের হেভিওয়েট মন্ত্রী শুভেন্দু অধিকারীর খাসতালুক।

সূত্রের খবর, মঙ্গলবার সিপিএমের সারা ভারত ক্ষেতমজুর ইউনিয়নের পক্ষ থেকে কাঁথি 2 দেশপ্রান ব্লকের বিডিওর কাছে কাটমানি ফেরতের দাবির পাশাপাশি প্রায় 16 দফা দাবি জানিয়ে স্মারকলিপি দেওয়া হয়। আর তৃনমূলের হেভিওয়েট মন্ত্রী শুভেন্দু অধিকারীর গড়ে তৃণমূলের বিরুদ্ধে কাটমানি খাওয়ার অভিযোগ তুলে সিপিএমের এই স্মারকলিপি প্রদান রাজনৈতিকভাবে অত্যন্ত তাৎপর্যপূর্ণ বলেই মনে করছে বিশেষজ্ঞরা।

ফেসবুকে আমাদের নতুন ঠিকানা, লেটেস্ট আপডেট পেতে আজই লাইক ও ফলো করুন – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের টেলিগ্রাম গ্রূপে জয়েন করতে – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের সিগন্যাল গ্রূপে জয়েন করতে – ক্লিক করুন এখানে



আপনার মতামত জানান -

তাহলে কি এই কাঁথিতে শাসকের বিরুদ্ধে অভিযোগ তুলে শুভেন্দু অধিকারীর দিকে অভিযোগের আঙুল তুলতে চাইল বামেরা! এখন তা নিয়েই রাজনৈতিক মহলে তৈরি হয়েছে প্রশ্ন। এদিকে এদিনই সংসদে তৃণমূলের বিরুদ্ধে অভিযোগ তুলে সোচ্চার হতে দেখা যায় বিজেপি সাংসদ লকেট চট্টোপাধ্যায় ও বালুরঘাট লোকসভা কেন্দ্রের সাংসদ সুকান্ত মজুমদারকে।

সূত্রের খবর, এদিন এই প্রসঙ্গে লকেট চট্টোপাধ্যায় বলেন, “পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী নিজের দলের নেতাদের কাটমানি নেওয়ার বিষয়টি স্বীকার করে নিয়েছেন। তৃণমূলের উপরতলা থেকে নিচুতলা সকলেই কাটমানি নিয়ে অভ্যস্ত। তাই মুখ্যমন্ত্রীকেই এর জবাব দিতে হবে।” রাজনৈতিক পর্যবেক্ষকদের মতে, যেভাবে মুখ্যমন্ত্রী দলীয় নেতাদের বিরুদ্ধে কাটমানি খাওয়ার অভিযোগ তুলে সরব হয়েছেন, তাতে দিকে দিকে তৃণমূলের হেভিওয়েট নেতা মন্ত্রীদের বিরুদ্ধে দুর্নীতির অভিযোগ তুলছে বিরোধীদের একাংশ। আর এর ফলেই শাসকের চাপ প্রতিনিয়ত বাড়ছে বলেই মত বিশ্লেষকদের।

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!