এখন পড়ছেন
হোম > রাজনীতি > বিজেপি > কারচুপি করলে, পিঠের চামড়া ছাড়িয়ে নুন মাখিয়ে রাস্তায় ছেড়ে দেওয়া হবে, বিস্ফোরক সায়ন্তন বসু

কারচুপি করলে, পিঠের চামড়া ছাড়িয়ে নুন মাখিয়ে রাস্তায় ছেড়ে দেওয়া হবে, বিস্ফোরক সায়ন্তন বসু



প্রিয় বন্ধু মিডিয়া রিপোর্ট – পশ্চিমবঙ্গের আগামী বিধানসভা ভোটের লড়াই যে তৃণমূল আর বিজেপির লড়াই হতে চলেছে সে বিষয়ে অনেকেই একমত। আজ বিজেপির সাধারণ সম্পাদক সায়ন্তন বসু তৃণমূল কংগ্রেসের বিরুদ্ধে বেশ কিছু মন্তব্য করে ও অভিযোগ করে তৃণমূল- বিজেপির এই রাজনৈতিক সংঘাতকে আবারও উস্কে দিলেন।

প্রসঙ্গত রাজ্য বিজেপির সাধারণ সম্পাদক সায়ন্তন বসু দাবি করলেন, গত পঞ্চায়েত ভোট সুষ্ঠুভাবে হতে দেয়নি তৃণমূল কংগ্রেস, অন্যদিকে করোনা সংক্রমনের কারণে স্থগিত রাখা হয়েছে রাজ্যের পৌরসভা নির্বাচন। তবে আগামী বিধানসভা ভোটে তৃণমূল কর্মীরা কোন ষড়যন্ত্র করতে না পারবে না বলে চরম হুঁশিয়ারি দিলেন বিজেপির সাধারণ সম্পাদক।

শাসক দল সম্পর্কে এক গুরুতর অভিযোগ করলেন বিজেপির এই নেতা। অভিযোগ করে তিনি জানালেন, গত পঞ্চায়েত ভোটে কাউকে ভোট দিতে দেয়নি রাজ্যের শাসক দল, এমনকি তৃণমূল কংগ্রেসের বেশকিছু নেতাও এদিন ভোটকেন্দ্রে যেতে পারেননি। এতটাই ছিল সে কারচুপির বহর। তবে আগামী নির্বাচনে শাসক দলকে আর কোনো সুযোগ দিতে ইচ্ছুক নয় বিজেপি।

শাসক দলকে তিনি হুংকার দিলেন বিজেপি সাধারণ সম্পাদক জানিয়ে দিলেন, আধাসেনার নজরদারিতে রাজ্যের আগামী ভোট পর্ব অনুষ্ঠিত হবে। এ কারণে কোনো কারচুপির সুযোগ থাকবে না। যদি কেউ কোন গন্ডগোল বাধায় তবে তার পিঠে পড়বে লাঠির বাড়ি। সেই সঙ্গে শাসকদলকে সতর্ক করে দিয়ে তাঁর উক্তি, ভোটে কারচুপির চেষ্টা করলে পিঠের চামড়া ছাড়িয়ে, তাতে নুন দিয়ে, রাস্তায় ছেড়ে দেবার ব্যাবস্থা করা হবে। এই সঙ্গেই শাসকদলকে তিনি গণতন্ত্রের হরণকারী বলে অভিযুক্ত করেছেন।


WhatsApp-এ প্রিয় বন্ধু মিডিয়ার খবর পেতে – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের অন্যান্য সোশ্যাল মিডিয়া গ্রূপের লিঙ্ক – টেলিগ্রামফেসবুক গ্রূপ, ট্যুইটার, ইউটিউব, ফেসবুক পেজ

আমাদের Subscribe করতে নীচের বেল আইকনে ক্লিক করে ‘Allow‘ করুন।

এবার থেকে আমাদের খবর পড়ুন DailyHunt-এও। এই লিঙ্কে ক্লিক করুন ও ‘Follow‘ করুন।



আপনার মতামত জানান -

রাতে শাসনতন্ত্র সম্পর্কে গুরুতর অভিযোগ করে তিনি জানান, রাজ্যে বর্তমানে অরাজক পরিস্থিতি চলছে। রাজ্যের পুলিশ বাহিনী মোটেই নিরপেক্ষ নন। শাসক দলের হয়েই তারা কাজ করছেন। পুলিশ বাহিনীর এই কৃতকর্মের হিসেব আগামীদিনে নেওয়া হবে বলে হুঁশিয়ারি দিয়েছেন এই বিজেপি নেতা। প্রসঙ্গত গতকাল রাজ্য পুলিশের বিরুদ্ধে রাজ্যপালের কাছে অভিযোগ জানিয়েছেন অপর এক বিজেপি নেতা অর্জুন সিং। অর্জুন সিং অভিযোগ করেছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় তাঁকে হত্যা করার চেষ্টা করছেন।

অন্যদিকে রাজ্য সরকারের হাতে আর সীমিত সময়ই রয়েছে বলেই মন্তব্য করেছেন সায়ন্তন বসু। তিনি জানিয়েছেন যে, শাসকদলের কাছে আর মাত্র ৬ মাস সময় রয়েছে, তার পরে হাতবদল হবে প্রশাসনের। পশ্চিমবঙ্গের ক্ষমতা দখল করবে বিজেপি। তারপর থেকে শাসকদলের সমস্ত কাজের হিসেব দেওয়া হবে বলে বিজেপি নেতা সায়ন্তন বসু শাসকদলকে সতর্ক করে দিলেন। ইতিপূর্বে বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষের কণ্ঠেও একই ধরণের সতর্কবার্তা শোনা গিয়েছিল।

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!