এখন পড়ছেন
হোম > অন্যান্য > IPL-এর মাঝেই নতুন বিতর্কের ঝড়! মহাতারকার সুন্দরী স্ত্রীকে কুপ্রস্তাব আরেক মহাতারকার!

IPL-এর মাঝেই নতুন বিতর্কের ঝড়! মহাতারকার সুন্দরী স্ত্রীকে কুপ্রস্তাব আরেক মহাতারকার!



প্রিয় বন্ধু মিডিয়া রিপোর্ট- কিছুদিন আগেই বর্ণবিদ্বেষ নিয়ে উত্তপ্ত হয়ে উঠেছিল গোটা বিশ্ব। বস্তুত দেখতে গেলে স্বাধীনতার আগেও ভারতবর্ষের মানুষকে কালো চামড়ার মানুষ বলে অপমান সহ্য করতে হয়েছে বহু। শুধু তাই নয়, এক সময় আফ্রিকানদের থেকে শুরু করে বিভিন্ন মানুষকে বর্ণবিদ্বেষের শিকার হতে হয়েছে, যার সাক্ষী রয়েছে ইতিহাস।

তবে ক্রিকেট দুনিয়ায় এমন নজির হয়তো এর আগে দেখা যায়নি। সম্প্রতি আইপিএলে বেন স্টোকসের একটি মজার মন্তব্য ঘিরে ক্যারিবিয়ান ক্রিকেটার মারলন স্যামুয়েলসের মন্তব্য নিয়ে কার্যত ক্রিকেট দুনিয়ায় বিস্ফোরণ ঘটে গেছে। আর যা নিয়ে মারলন স্যামুয়েলসকে কটাক্ষ করতে ছাড়েননি ক্রিকেটার থেকে শুরু করে আমজনতা। মারলন স্যামুয়েলসের কুরুচিকর মন্তব্য ঘিরে সেখানে বিতর্কে জড়িয়ে পড়েছেন শেন ওয়ার্নও।

তবে কি ঘটেছিল সেখানে? জানা গেছে, রাজস্থান রয়্যালসের হয়ে এইবছর আইপিএল খেলতে আরব আমিরশাহীতে রয়েছেন স্টোকস। সেখানে পৌঁছনোর পর সাত দিনের কোয়ারেন্টাইন শেষে অবশেষে তিনি মাঠে নেমেছেন। আর সেই কোয়ারেন্টাইন অভিজ্ঞতাই শেয়ার করতে গিয়ে এমন পরিস্থিতি তৈরি হয় বলে জানা গেছে।

কোরেন্টিনের অভিজ্ঞতা নিয়ে পডকাস্টে বলতে গিয়ে স্টোকস বলেন, তাঁর কোয়ারেন্টিনের অভিজ্ঞতা খারাপ। ওভাবে বন্দি হয়ে থাকা যায় না। তাঁর চরম শত্রুকেও যেন কোয়ারেন্টাইনে না থাকতে হয়। এই প্রসঙ্গে তাঁর ভাই মেসেজ করে জানতে চেয়েছিলেন যে এই একই জিনিসটা কি তিনি মার্লন স্যামুয়েলসের ক্ষেত্রেও তিনি চাইবেন?

আর সেখানে তিনি তাঁর ভাইকে না বলেছেন বলেই জানিয়েছিলেন তিনি। আর এই পুরো বিষয়টাই ঠাট্টা করে বলেছিলেন তিনি। প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, কয়েক বছর ধরেই স্টোকস-স্যামুয়েলস সম্পর্ক খারাপ। কিন্তু এহেন ঠাট্টার উত্তরে যে স্যামুয়েলস সোজা বিদ্বেষপূর্ণ মন্তব্য করবেন, সেকথা ভাবতে পারেননি কেউ।


WhatsApp-এ প্রিয় বন্ধু মিডিয়ার খবর পেতে – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের অন্যান্য সোশ্যাল মিডিয়া গ্রূপের লিঙ্ক – টেলিগ্রামফেসবুক গ্রূপ, ট্যুইটার, ইউটিউব, ফেসবুক পেজ

আমাদের Subscribe করতে নীচের বেল আইকনে ক্লিক করে ‘Allow‘ করুন।

এবার থেকে আমাদের খবর পড়ুন DailyHunt-এও। এই লিঙ্কে ক্লিক করুন ও ‘Follow‘ করুন।



আপনার মতামত জানান -

এরপরই স্টোকসকে উদ্দেশ্য করে স্যামুয়েলস ইনস্টাগ্রামে লেখেন যে কোনও শ্বেতাঙ্গ ক্রিকেটার তাঁর সঙ্গে কখনও পেরে ওঠেনি। তাঁকে চোদ্দো দিন দেওয়ার কথাই যদি বলা হয়, তবে বেনের স্ত্রীকে চোদ্দো দিনের জন্য পাঠিয়ে দিক। তাকে স্যামুয়েলস চোদ্দো সেকেন্ডে জামাইকান করে দেবে। ব্যাস! এতেই কাল হয়। মজার উত্তরে যে এহেন আচরণ করা যেতে পারে, সেকথা নিশ্চয়ই বেন স্বপ্নেও ভাবেননি।

আর এরপরই স্যামুয়েলসের উপর ফেটে পড়ে ক্রিকেট দুনিয়া। এই বিষয়ে মাইকেল ভন টুইট করে লেখেন, মার্লন যা করেছে, তা মেনে নেওয়া যায় না। সবাই যেখানে বর্ণবিদ্বেষকে শেষ করতে চাইছে, সেখানে স্যামুয়েলস এভাবে বলে কি করে! কিন্তু ভনের কথায় কান না দিলেও ওয়ার্নের সঙ্গে তাঁর বিরোধ বাঁধে।

এই বিষয়ে ওয়ার্ন টুইট করে লেখেন, এখনই স্টোকসকে স্যামুয়েলস কি বলেছে সেটা দেখলাম। ওর ডাক্তার দেখানো দরকার। এই কারণে স্যামুয়েলসের প্রাক্তন সতীর্থরাও কেউ ওকে দেখতে পারে না বলেও জানিয়েছেন তিনি। তবে সাধারণ ক্রিকেটার হওয়ার জন্য কি তাঁকে নিম্নমনের মানুষও হতে হবে, এই প্রশ্নও তুলেছেন তিনি।

আর এরপর ওয়ার্নকেও ছাড়েননি স্যামুয়েলস। তাঁকে আবার পালটা লিখতে দেখা গেছে, তাঁকে কে জ্ঞান দিচ্ছে? যে কিনা নিজেকে তরুণ দেখানোর জন্য মুখে সার্জারি করিয়েছিল। তবে এখানেই থেকে থাকেননি তিনি। অসন্মান জনিত ভাষায় তাঁকে আক্রমণ করেন স্যামুয়েলস। তবে এই পরিস্থিতি কোথায় গিয়ে দাঁড়াবে এখন সেটাই দেখার অপেক্ষা।

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!