এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > জামিন মিললো না ছত্রধরের,কি বললো হাইকোর্ট

জামিন মিললো না ছত্রধরের,কি বললো হাইকোর্ট



রাজ্যের পঞ্চায়েত নির্বাচনে জঙ্গলমহলে খারাপ ফলাফলের পরই একদা তৃনমূলের সঙ্গী বর্তমানে জেলবন্দী ছত্রধর মাহাতোকে ছাড়িয়ে এনে নিজেদের সংগঠন বাড়াতে তৎপর হয় ঘাসফুল শিবির। গত এপ্রিল মাস থেকেই রাজ্য সরকার ছত্রধর মাহাতোকে জামিনে ছাড়িয়ে নিয়ে আসার পক্ষেই ছিল। সূত্রের খবর, এপ্রিল মাস থেকে প্যারোলে সরকারি আতিথ্যে থাকার সময় ছত্রধর মাহাতোর সাথে রাজ্য সরকারে মধ্যস্থতাকারীদের একটি বৈঠকও হয়। জানা যায় ছত্রধরকে জামিনে ছাড়ানোর ব্যাপারে আগ্রহী রাজ্য সরকার ইতিমধ্যেই তাঁর দুই ছেলের চাকরির ব্যাবস্থা করার পাশাপাশি ছত্রধরের বিশ্বস্ত সঙ্গী শ্যামল মাহাতোকে বিনপুর 1 ব্লকের দ্বায়িত্বও দেওয়া হয়েছে। এহেন পরিস্থিতিতে বুধবার কোলকাতা হাইকোর্টে বিচারপতি মুমতাজ খান ও জয় সেনগুপ্তর ডিভিশন বেঞ্চে ছত্রধর মাহাতোর আইনজীবি শেখর বসু জামিনের আবেদন করলে তা খারিজ করে দেয় এই ডিভিশন বেঞ্চ।

আরো খবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

——————————————————————————————-

 এবার থেকে প্রিয় বন্ধুর খবর পড়া আরো সহজ, আমাদের সব খবর সারাদিন হাতের মুঠোয় পেতে যোগ দিন আমাদের হোয়াটস্যাপ গ্রূপে – ক্লিক করুন এই লিঙ্কে

এমনকী শুনানির সময় রাজ্যের অ্যাডভোকেট জেনারেল কিশোর দত্তের কোনো সওয়াল না শুনেই ডিভিশন বেঞ্চ ছত্রধর মাহাতোর জামিনের আবেদন নাকচ করে দেন। এদিকে এদিন ছত্রধর মাহাতোর আইনজীবি শেখর বসু সওয়াল করতে গিয়ে বলেন, সিআইডির তদন্তকারী আধিকারিকেরা এখনও এমন কোনোও প্রমান দিতে পারেনি যাতে প্রমানিত হয় ছত্রধর মাহাতো রাষ্ট্রদ্রোহী। অন্যদিকে ছত্রধরের জামিনের আবেদন খারিজ করে দিয়ে বিচারপতি মুমতাজ খান বলেন, “যে ব্যাক্তি সাজাপ্রাপ্ত হয়ে প্রায় দশ বছর ধরে জেলে রয়েছেন তাঁর জামিন এক দিনে কখনই দেওয়া যায় না।” সাথে সাথে আগামী 25 জুলাই ফের এই জামিনের মামলা শুনবেন বলে জানান বিচারপতি। সব মিলিয়ে ছত্রধর মাহাতোর জামিনের আবেদনে রাজ্য সম্মতি প্রকাশ করলেও কোর্টের কারনে ইচ্ছে থাকলেও উপায় হল না।

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!