এখন পড়ছেন
হোম > বিশেষ খবর > মন্ত্রীর মন্তব্যে হাতির হানায় মৃত্যুর পরেও মিলছে না ক্ষতিপূরণ, ক্ষোভ চরমে

মন্ত্রীর মন্তব্যে হাতির হানায় মৃত্যুর পরেও মিলছে না ক্ষতিপূরণ, ক্ষোভ চরমে



রাজ্য সরকারের নিয়ামানুযায়ী হাতির হানায় মৃত্যু হলে মৃতের পরিবারকে আড়াই লক্ষ টাকা ক্ষতিপূরণ দেওয়া হয়ে থাকে। মৃতদেহ সত্‍কারের আগেই এর ৭৫ শতাংশ টাকা পরিবারের লোকেরা পেয়ে যান। বাকি ২৫ শতাংশ মেলে ময়নাতদন্তের রিপোর্ট মেলার পরে। অন্তত মুখ্যমন্ত্রীর নির্দেশ তেমনই। তবু লাটাগুড়িতে দাঁতালের পায়ে পিষ্ট হয়ে মৃত্যুর ঘটনায় ক্ষতিপূরণ পাওয়া নিয়ে সংশয় তৈরি হল। এই নিয়ে বনমন্ত্রী জানান লাটাগুড়ির ঘটনার ভিডিও দেখে মনে হচ্ছে ওটা আত্মহত্যা। ওই ব্যক্তি পুরোপুরি স্বাভাবিক ছিলেন না বলেও মনে করা হচ্ছে, তাই ময়না তদন্তের রিপোর্ট হাতে আসার পরেই যা সিদ্ধান্ত নেবার তা নেওয়া হবে।
আবার আর এক বনকর্মী জানান নিয়ম হলো জঙ্গলের বাইরে হাতির হানায় মারা গেলে ক্ষতিপূরণ পায় এটা তো বনের মধ্যেই ঘটেছে। ফলে নিহতের পরিবারের মধ্যে ক্ষোভ দেখা দিয়েছে। নিহতের ভাই মোতিবর রহমান দাবি করেছেন, আমার দাদা কখনওই আত্মহত্যা করতে পারেন না। তা ছাড়া উনি কোনও নেশাও করতেন না। ফলে অস্বাভাবিক থাকার কোন প্রশ্নই নেই। এর সঙ্গে তিনি ব্যাঙ্ককে দোষী ঠাওরেছেন। তাঁর অভিযোগ হাতি তাড়ানোর জন্য তাঁর দাদাকে হাতির সামনে ঠেলে দিয়েছিলেন গাড়িতে থাকা ব্যাঙ্কের কর্মীরাই। ব্যাঙ্কের বিরুদ্ধে শীঘ্রই পুলিশে অভিযোগ করা হবে বলেও জানান মোতিবর রহমান। যদিও এই অভিযোগকে ব্যাঙ্কের কর্তারা মিথ্যা বলেছেন। তাই সবার চোখ এখন ময়নাতদন্তের রিপোর্টের দিকেই।

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!