এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > নির্বাচন কমিশনের শাস্তির মুখে এবার মুকুল রায়-রাহুল সিনহা

নির্বাচন কমিশনের শাস্তির মুখে এবার মুকুল রায়-রাহুল সিনহা



এদিন বিজেপি নেতা মুকুল রায়ের বিরুদ্ধে নির্বাচনী বিধিভঙ্গের অভিযোগ করলেন তৃণমূল কংগ্রেসের মহাসচিব পার্থ চট্টোপাধ্যায়। তিনি জানান,” নির্বাচন কমিশনকেও এটা জানাচ্ছি। আশা করছি নির্বাচন কমিশন বসে না থেকে ব্যবস্থা নেবে।” এই অভিযোগের জেরেই মুকুল বাবুর বিরুদ্ধে উপযুক্ত ব্যবস্থা নিতে চলেছে রাজ্য নির্বাচন কমিশন। শুধু তাই নয়,বিজেপি নেতা রাহুল সিনহার বিরুদ্ধেও একই স্টেপ্ নেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে রাজ্য নির্বাচন কমিশন। সম্প্রতি মুকুল রায়েই বক্তব্যের বিষয়ে রাজ্য নির্বাচন কমিশন রিপোর্ট চেয়ে পাঠিয়েছেন। কিন্তু কী করেছেন বিজেপি নেতারা যার জেরে এই কঠোর ব্যবস্থা নেওয়া? এটা জানতে হলে চোখে রাখতে হবে মূল কারণে।

আরো খবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

রাজনৈতিক সূত্রের খবর থেকে জানা গেছে, এদিন বিজেপি নেতা মুকুল রায় জলপাইগুড়ি জেলা ঘুঘুডাঙ্গা এলাকায় এক বিজেপির জনসভায় যোগদান করেছিলেন প্রধাণবক্তা হিসাবে। সেখানে তিনি জানিয়েছেন যে জলপাইগুড়ি জেলা পরিষদ যদি বিজেপি জেতে তবে জেলা পরিষদের তরফ থেকে একটি করে স্মার্টফোন দেওয়া হবে ১৮ বছর বয়সী যুবক যুবতীদের। আর অন্যদিকে রাহুল সিনহা এক সাংবাদিক সম্মেলনে প্রকাশ্যে বলেন যে মৃত্যুভয় দেখানো হচ্ছে নির্বাচন কমিশনকে। আর এর ফলেই নাকি বিপত্তি। নির্বাচন কমিশনের কাছে যাওয়া রিপোর্টের ভিত্তিতে মুকুল রায়ের বিরুদ্ধে কী ব্যবস্থা নেওয়া হবে সে ব্যাপারে কমিশন এখনো স্পষ্ট করে কিছু জানায়নি। অন্যদিকে রাহুল সিনহার বিরুদ্ধেও ব্যবস্থা নেওয়ার কথাও জানিয়েছে নির্বাচন কমিশন। এদিন কমিশনের এক মুখপাত্র জানালেন যে বিজেপি নেতা রাহুল সিনহার ব্যাপারে নিশ্চয়ই ব্যবস্থা নেওয়া হবে যদি কোনো রাজনৈতিক দল তাঁর বিরুদ্ধে লিখিত অভিযোগ দায়ের করে।

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!