এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > নতুন প্রজন্মের কাছে মনীষীদের আদর্শ তুলে ধরতে নজিরবিহীন পদক্ষেপ শিক্ষা দপ্তরের

নতুন প্রজন্মের কাছে মনীষীদের আদর্শ তুলে ধরতে নজিরবিহীন পদক্ষেপ শিক্ষা দপ্তরের



এবার এ রাজ্যের প্রথম থেকে অষ্টম শ্রেণির পড়ুয়াদের পাঠ্যপুস্তুকে শোভা পেতে চলছে বিশ্ববরেণ্য মনিষীদের জীবন দর্শন,বাণী,আদর্শ। স্বামী বিবেকানন্দ,নেতাজী সুভাষ চন্দ্র বোস,বাঘাযতীন,বিনয়-বাদল-দিনেশ,রামকৃষ্ণ পরমহংসদেব প্রমুখ মহান ব্যক্তিত্বেদের জীবনের আদর্শ অনুসরণ করেই গড়ে উঠুক নবীন প্রজন্মেরা। এমনটাই ইচ্ছা মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের। সেই ইচ্ছারই বাস্তবায়ণ হতে চলেছে খুব জলদি। মনিষীদের আদর্শ সম্বলিত সঙ্কলন প্রকাশ করবে রাজ্যসরকার। গতকাল রবীন্দ্রসদনের একটি অনুষ্ঠানে যোগদান করে এমন কথাই জানালেন শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায়। অনুষ্ঠান শেষে সিলেবাস কমিটির চেয়ারম্যান অভীক মজুমদার জানান, নয়া প্রজন্মের কাছে মণীষীদের আদর্শ তুলে ধরতে স্কুলস্তরে এই বিষয়ে পড়ানো হবে। তবে এই বিষয়ে পরীক্ষা হবে কি না, সে ব্যাপারে এখনও কোনো সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়নি।

এদিন স্বামী বিবেকানন্দের চিকাগো বক্তৃতার ১২৫ বছর পূর্তি উপলক্ষ্যে রবীন্দ্রভবনে রাজ্যসরকারের তরফ থেকে একটি অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছিল। সেখানেই উপস্থিত ছিলেন শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় সহ তৃণমূলের প্রভাবশালী ব্যক্তিত্বরা। সেখানেই তিনি জানালেন,আগামী শিক্ষাবর্ষ থেকেই  নয়া সঙ্কলনটি চালু করা হবে। স্বামীজির চিকাগো বক্তৃতার বাংলা সঙ্কলন পুস্তকাকারে বিনা পয়সায় বিলি করার সিদ্ধান্তের কথাও জানান শিক্ষামন্ত্রী। প্রসঙ্গে দাবী করেন,রামকৃষ্ণ,বিবেকানন্দ,নেতাজীর মতো মহাপুরুষের জীবনী এতোদিন বই-এর তাকেই আবদ্ধ ছিল। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের উদ্যোগেই মহান ব্যক্তিত্বদের জীবনের আদর্শ,ত্যাগ,সহিষ্ণুতার পাঠ নিতে পারবে পড়ুয়ারা।

ফেসবুকের কিছু টেকনিকাল প্রবলেমের জন্য সব খবর আপনাদের কাছে পৌঁছেছে না। তাই আরো খবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

এবার থেকে প্রিয় বন্ধুর খবর পড়া আরো সহজ, আমাদের সব খবর সারাদিন হাতের মুঠোয় পেতে যোগ দিন আমাদের হোয়াটস্যাপ গ্রূপে – ক্লিক করুন এই লিঙ্কে

রাজ্যসরকারের শিক্ষাব্যবস্থার নয়া উদ্যোগের ঘোষণা করার সঙ্গে সঙ্গে তুলনায় বাম জামনার সমালোচনা করতে ভোলেন না শিক্ষামন্ত্রী। জানান,দীর্ঘ ৩৪ বছর বামফ্রন্ট রাজ্যের শাসনভার সামলানোর দায়িত্বে থাকলেও এ ধরণের উদ্যোগ তাঁদের নিতে দেখা যায়নি। মণীষীদের জীবনী আদর্শ, সমাজদর্শন,আত্মত্যাগের কথা ভুলেই যেতে বসেছিল সবাই। মুখ্যমন্ত্রীর উদ্যোগে সেগুলো আবার নতুন করে নতুন করে পাঠ্যপুস্তকে ঠাই পেতে চলছে। এই ধারা যেন অব্যাহত থাকে সে ব্যাপারেও সচেতন থাকার পরামর্শ দিলেন শিক্ষাদপ্তরের আধিকারিকদের। উপস্থিত পড়ুয়াদের উদ্দেশ্য করে বললেন,বর্তমানের ডিজিট্যালাইজেশনের যুগে স্যোশাল মিডিয়া,ইন্টারনেটও শিক্ষাগ্রহণের অন্যতম মাধ্যম। সেগুলোকে কাজে লাগিয়েও মনিষীদের সম্পর্কে জ্ঞান অর্জন করার পরামর্শ দিলেন পার্থবাবু। উল্লেখ্য,এদিন স্বামীজির চিকাগো বক্তৃতার ১২৫ বছর পূর্তি উপলক্ষ্যে গোট রাজ্য ব্যাপী বিশেষ সাংস্কৃতিক প্রতিযোগীতার আয়োজন করেছিলো রাজ্যসরকার। বিতর্ক,ছবি আঁকা,নৃত্য-গীত,আবৃত্তি একাধিক বিষয়ে সফল প্রার্থীদের পুরস্কার প্রদান করে সম্মানিত করা হয়।

 

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!