এখন পড়ছেন
হোম > জাতীয় > দলিত-মনে জায়গা মিলল কতটা? সেই অঙ্ক কোষেই ২০১৯-এর ভোটযুদ্ধে ঝাঁপাতে চাইছে বিজেপি

দলিত-মনে জায়গা মিলল কতটা? সেই অঙ্ক কোষেই ২০১৯-এর ভোটযুদ্ধে ঝাঁপাতে চাইছে বিজেপি



মোদী সরকার ‘আচ্ছে দিন’র স্বপ্ন দেখিয়ে ক্ষমতায় এসেছেন পাঁচ বছর হলো| আসছে বছর আবার সেই একই মহাযুদ্ধ শুরু হতে চলেছে| কিন্তু তার আগে মোদী সরকার জেনে নিতে চায় জনমুখী কর্মসূচিগুলিতে দেশ তার আগে কর্মসমিতির বৈঠকে জল মাপতে শুরু করল বিজেপি। গত পাঁচ বছরে মোদী সরকারেরর আমলে জনমুখী কর্মসূচিগুলিতে সারা দেশ কতটা মজেছে তা জেনে নিতে চাইছে বিজেপি। সেইসঙ্গে জানতে চাইছে দলিত সমাজ বিজেপিকে আপন করে নিল কি না।

বিজেপি বরাবরই দলিতদের সঙ্গে থেকে রাজনীতি খেলেছে| অমিত শাহের মত মন্ত্রী দলিতদের ঘরে পাত পেরে খেয়ে অবধি অনেক কর্মসূচিও তৈরী করা হয়েছে দলিতদের জন্য| সেই কর্মসূচি গুলো কতটা সফল হয়েছে তাই জেনে নিতে চায় গেরুয়া শিবির| কর্মসমিতির বৈঠকের মূল লক্ষ্য হল দলিতদের আস্থা অর্জন। সেইসঙ্গে ২০১৯-এর লোকসভা ভোটের রাজনীতি ঠিক করাও ছিল মোদী-শাহদের উদ্দেশ্য। অমিত শাহ নিজে বাংলায় এসে দলিত পরিবারে ঘরে পাত পেড়ে খেয়েছেন। উত্তপ্রদেশের যে রাজনীতি শুরু করেছিলেন সেই একই পন্থা অবলম্বন করে বাংলায় এগনোর চেষ্টা করেছেন। সুতরাং ভালো ভাবেই বোঝা যাচ্ছে, দলিত ও নিম্নবর্গদের হাতিয়ার করে আগামী ভোটে এগোতে চায় বিজেপি|

ফেসবুকের কিছু টেকনিকাল প্রবলেমের জন্য সব খবর আপনাদের কাছে পৌঁছেছে না। তাই আরো খবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

এবার থেকে প্রিয় বন্ধুর খবর পড়া আরো সহজ, আমাদের সব খবর সারাদিন হাতের মুঠোয় পেতে যোগ দিন আমাদের হোয়াটস্যাপ গ্রূপে – ক্লিক করুন এই লিঙ্কে

উত্তরপ্রদেশের মতো রাজ্যে ভালো ফল করতে হলে দলিতদের সমর্থন প্রয়োজন| যদি দলিতদের ওপর প্রভাব বিস্তার না করা যায় তাহলে সমাজবাদী পার্টি ও বহুজন সমাজবাদী পার্টিকে যোগ্য জবাব দেওয়া যাবে না। আর দলিতদের সঙ্গে পেলে ২০১৯এও আবার দিল্লি বিজেপির দখলে থাকবে|

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!