এখন পড়ছেন
হোম > বিশেষ খবর > ধর্ষণ ও খুনের দায়ে সিপিএম নেতার ৫ বছরের জেল শ্রীরামপুরে

ধর্ষণ ও খুনের দায়ে সিপিএম নেতার ৫ বছরের জেল শ্রীরামপুরে



হিন্দমোটরের রাধাগোবিন্দনগরে যুবতীকে ধর্ষণ-খুনের মামলায় পড়শি শুভাশিস ঘোষ ওরফে বাচ্চুকে যাবজ্জীবন শাস্তির নির্দেশ দিল শ্রীরামপুরের আদালত। তথ্য লোপাটের দায়ে প্রাক্তন সিপিএম কাউন্সিলর রথীন পালের ৫ বছর কারাদণ্ড হয়েছে। পুলিশ সূত্রের খবর, রাধাগোবিন্দনগরের বাসিন্দা নিহত ওই যুবতী সল্টলেকের সেক্টর ফাইভে চাকরি করতেন। ২০১৪ সালের ৪ জুলাই দুপুরে আবাসনের নীচে সাইবার কাফেতে যান ওই যুবতী। পরে আবাসনের পিছন দিকে গুরুতর জখম অবস্থায় তাঁকে পাওয়া যায়। বাচ্চু সেখানেই ছিল।
১৬ জুলাই উত্তরপাড়া থানায় এফআইআর করেন ওই যুবতীর মা। তাঁর অভিযোগ ছিল, সিপিএম নেতা রথীনবাবুর হুমকিতে তিনি প্রথমে এফআইআর করতে পারেননি। অভিযোগের ভিত্তিতে বাচ্চু-রথীনকে গ্রেফতার করে পুলিশ। মামলার সরকারি আইনজীবী জয়দীপ মুখোপাধ্যায় জানান, ময়না তদন্ত-সহ অন্যান্য পরীক্ষায় ধর্ষণ-খুনের প্রমাণ মেলে। সোমবার বিচারক সেই প্রমাণের জন্য দু’জনকে দোষী সাব্যস্ত করেন।মঙ্গলবার প্রথম অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা বিচারক কল্লোল চট্টোপাধ্যায় দুই অভিযুক্তকে সাজার নির্দেশ দেন।

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!