এখন পড়ছেন
হোম > জাতীয় > ৫ বছরে কোটি টাকার সম্পত্তি বাড়ল মুখ্যমন্ত্রীর! তাঁর নিজের ঘোষণাতেই সামনে এল বিস্ফোরক তথ্য!

৫ বছরে কোটি টাকার সম্পত্তি বাড়ল মুখ্যমন্ত্রীর! তাঁর নিজের ঘোষণাতেই সামনে এল বিস্ফোরক তথ্য!



আজ দিল্লি বিধানসভার নির্বাচন। ভারতবর্ষের কেন্দ্রীয় সরকারের ক্ষমতায় ভারতীয় জনতা পার্টি এলেও, দিল্লির ক্ষমতা এতদিন দখল করতে পারেনি তারা। গত 2015 সালে অরবিন্দ কেজরিওয়াল দিল্লির ক্ষমতা দখল করে বিজেপিকে ব্যাপক বেগ দিয়েছেন। পরবর্তীতে 2019 সালের লোকসভা নির্বাচনে বিজেপি ব্যাপক সংখ্যাগরিষ্ঠতা নিয়ে কেন্দ্রের ক্ষমতা দখল করার পর এবার দিল্লি বিধানসভা নির্বাচনে ভালো ফল করতে উদ্যোগী হয়েছে তারা। ইতিমধ্যেই অরবিন্দ কেজরিওয়ালের বিরুদ্ধে নানা জনসভা করে সরব হতে দেখা যাচ্ছে বিজেপির হেভিওয়েট নেতাদের।

তবে অরবিন্দ কেজরিওয়ালের জনপ্রিয়তা দেখে কিছুটা হলেও, সেই দিল্লি বিধানসভায় কি ফল হতে পারে, তা জানিয়ে দিয়েছে বিভিন্ন সমীক্ষক সংস্থা। যেখানে শেষ হাসি হাসবে আম আদমি পার্টি বলে দাবি করছে একাংশ। তবে নির্বাচনের ফলাফলের আগে সেভাবে চূড়ান্ত ফলাফল বলতে নারাজ কেউই। তাই এখন ভরসা ভোটবাক্স খোলা পর্যন্ত। তবে এবার নির্বাচনের আগে নির্বাচনী হলফনামায় দিল্লির মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়ালের সম্পত্তির পরিমাণ দেখে রীতিমত চোখ কপালে উঠতে শুরু করল অনেকেরই।

বস্তুত, গত 2015 সালের দিল্লী বিধানসভা নির্বাচনের আগে নির্বাচনী হলফনামায় অরবিন্দ কেজরিওয়াল তার সম্পত্তির পরিমাণ পেশ করেছিলেন। যেখানে তার সম্পত্তি ছিল 2.1 কোটি টাকা। তবে এবার 2020 সালে এসে সেই দিল্লি বিধানসভা নির্বাচনে অরবিন্দ কেজরিওয়াল তার সম্পত্তির পরিমাণ দাখিল করায় সেই সম্পত্তির পরিমাণ তিন বছরে 1.3 কোটি টাকা বৃদ্ধি হয়েছে বলে জানা গেল। সূত্রের খবর, অরবিন্দ কেজরিওয়াল নির্বাচনী হলফনামায় এবার যে সম্পত্তির পরিমাণ দাখিল করেছিলেন, তা থেকে জানা যাচ্ছে, তার অস্থাবর সম্পত্তি 9.95 লক্ষ টাকা। তার স্ত্রীর মোট সম্পত্তি 57.07 লক্ষ টাকা। যার মধ্যে 320 গ্রাম সোনা রয়েছে। এছাড়াও এক কেজি রুপো রয়েছে কেজরিওয়ালের স্ত্রীর।

ফেসবুকে আমাদের নতুন ঠিকানা, লেটেস্ট আপডেট পেতে আজই লাইক ও ফলো করুন – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের টেলিগ্রাম গ্রূপে জয়েন করতে – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের সিগন্যাল গ্রূপে জয়েন করতে – ক্লিক করুন এখানে



আপনার মতামত জানান -

অন্যদিকে বর্তমানে অরবিন্দ কেজরিওয়ালের হাতে 12 হাজার টাকা এবং তার স্ত্রীর হাতে নয় হাজার টাকা নগদ অর্থ রয়েছে বলে জানানো হয়েছে। তবে দিল্লির মুখ্যমন্ত্রীর নিজস্ব কোনো গাড়ি না থাকলেও, তার স্ত্রীর 6.20 লক্ষ টাকার একটি গাড়ি রয়েছে বলে খবর। তবে সম্পত্তি বৃদ্ধি হলেও, বিগত পাঁচ বছর আগের থেকে অরবিন্দ কেজরিওয়ালের আয় অনেকটাই কমেছে বলে দেখা গেছে। একাংশের দাবি, গত 2013 থেকে 15 সালে অরবিন্দ কেজরিওয়ালের আয় যেখানে ছিল 7.42 লক্ষ টাকা, সেখানে 2018-19 সালে সেই সংখ্যা কমে দাঁড়িয়েছে 2.81 লক্ষ টাকায়।

একইভাবে তার স্ত্রীর আয়ও অনেকটাই কমেছে। তবে অতীতের থেকে সম্পত্তির পরিমাণ অনেকটাই বৃদ্ধি হওয়ায়, এখন কেজরিওয়ালের অস্বস্তি এই ইস্যুতে বাড়িয়ে দিতে পারে বিরোধীরা বলে মনে করছে একাংশ। রাজনৈতিক বিশেষজ্ঞরা বলছেন, অরবিন্দ কেজরিওয়ালের জনপ্রিয়তা নিয়ে কোনো মহলে কোনো প্রশ্ন না থাকলেও, পাঁচ বছরের মধ্যে তার সম্পত্তির এত বিপুল বৃদ্ধি এখন বিজেপির কাছে নতুন অস্ত্র হয়ে দাঁড়াতে পারে। সব মিলিয়ে দিল্লি বিধানসভা নির্বাচনে অরবিন্দ কেজরিওয়ালের সম্পত্তি বৃদ্ধির কোনো প্রভাব পড়ে কিনা! সেদিকেই নজর থাকবে সকলের।

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!