এখন পড়ছেন
হোম > অন্যান্য > করোনা আবহে কবে শুরু হবে কলকাতা ফুটবল লীগ? ক্লাবগুলোর প্র্যাকটিস নিয়েই কি ভাবনা চিন্তা?

করোনা আবহে কবে শুরু হবে কলকাতা ফুটবল লীগ? ক্লাবগুলোর প্র্যাকটিস নিয়েই কি ভাবনা চিন্তা?



প্রিয় বন্ধু মিডিয়া রিপোর্ট -দেশে করোনা সংক্রমণের কারণে গত মার্চ মাসের শেষদিক থেকে দেশজুড়ে শুরু হয় লকডাউন। লকডাউনের ফলে বন্ধ করে রাখা হয় বিভিন্ন জিম, খেলা আয়োজক সংস্থা তথা খেলার ক্লাবগুলিকে। এরপর গতমাসের আনলক-২ এর সময় থেকে খেলা আয়োজক ক্লাব গুলিকে করোনা বিধি সঠিক ভাবে মান্য করার শর্ত আরোপ করে আংশিক ভাবে ক্লাব, স্টেডিয়াম খোলার, খেলোয়াড়দের অনুশীলন করার কিছুটা অনুমতি দেওয়া হয়েছিল।

এবার চলতি মাসের আনলক – ৩ তে শর্ত সাপেক্ষে জিম খোলার পাশাপাশি শর্তসাপেক্ষে খেলাধুলো করবারও অনুমতি দেওয়া হল কেন্দ্র সরকারের পক্ষ থেকে। এরপর থেকে বিভিন্ন ক্লাব তাদের আগামী খেলার আয়োজনের ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নেওয়া শুরু করে দিয়েছে। এই আবহে কলকাতার ফুটবল ক্লাবগুলির মধ্যে সবার আগে ছন্দে ফিরতে চলেছে মহমেডান স্পোর্টিং ক্লাব।সংবাদসূত্রে জানা গেছে, চলতি মাসের তৃতীয় সপ্তাহ থেকেই সরকার প্রবর্তিত সামাজিক দূরত্ব বিধি পূর্ণ ভাবে মান্য করে কল্যাণীতে খেলার অনুশীলন শুরু করতে চলেছে মহমেডান স্পোর্টিং ক্লাব। এই উদেশ্যে কল্যাণীর স্টেডিয়াম সংলগ্ন একটি ঘরে খেলোয়াড়দের শরীরচর্চার জন্যে সমস্তরকম অত্যাধুনিক যন্ত্রপাতির ব্যবস্থা করা হবে।


WhatsApp-এ প্রিয় বন্ধু মিডিয়ার খবর পেতে – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের অন্যান্য সোশ্যাল মিডিয়া গ্রূপের লিঙ্ক – টেলিগ্রামফেসবুক গ্রূপ, ট্যুইটার, ইউটিউব, ফেসবুক পেজ

আমাদের Subscribe করতে নীচের বেল আইকনে ক্লিক করে ‘Allow‘ করুন।

এবার থেকে আমাদের খবর পড়ুন DailyHunt-এও। এই লিঙ্কে ক্লিক করুন ও ‘Follow‘ করুন।



আপনার মতামত জানান -

সেইসঙ্গে থাকছে খেলোয়াড়দের অনুশীলন ও গা ঘামানোর সমস্ত প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা। প্রসঙ্গত, কেন্দ্রীয় সরকার প্রবর্তিত আনলক- ৩ এর গাইডলাইনে জিম খোলার অনুমতি ও নির্দেশিকা মেনে গতকাল মঙ্গলবার রাজ্য সরকার কল্যাণীতে মহমেডান স্পোর্টিং ক্লাবকে খেলোয়াড়দের জিম ও যোগাসন শুরু করার বিষয়ে সম্মতি দিয়েছে। রাজ্য সরকারের সম্মতিতে আশান্বিত হয়ে মহমেডান স্পোর্টিং কালবের কর্মকর্তারা চলতি মাসের দ্বিতীয় সপ্তাহ থেকেই পুরোদমে খেলোয়াড়দের শরীরচর্চা ও অনুশীলন শুরু করে দেবার কথা জানিয়েছেন।

প্রসঙ্গত, মহমেডান স্পোর্টিং ক্লাবের খেলোয়াড়দের জিমওয়ার্ক ও যোগাসন করাতে চলেছেন ট্রেনার শাহিদ রহমান। আর খেলোয়াড়দের কোচ হতে চলেছেন ইয়ান ল। ফুটবলারদের ট্রেনার শাহিদ রহমান ও কোচ ইয়ান ল এর মধ্যে সমন্বয় সাধকের ভূমিকায় অবতীর্ণ হতে চলেছেন, দীপেন্দু বিশ্বাস। গতকাল মঙ্গলবার পশ্চিমবঙ্গ রাজ্য সরকারের ক্রীড়ামন্ত্রী অরূপ বিশ্বাস এই প্রসঙ্গে বিবৃতি দিয়েছেন, “আই লিগে যোগ্যতা নির্ণায়ক পর্ব বাংলায় হবে। মহমেডান স্পোর্টিং ও ভবানীপুর যাতে হোম অ্যাডভান্টেজ পায় সেইজন্য দু’টি ক্লাবকে সাহায্য করবে রাজ্য প্রশাসন। আর লকডাউন উঠে যাওয়ায় ১৬ আগস্ট ফুটবলপ্রেমী দিবসের অনুষ্ঠান নেতাজি ইনডোর স্টেডিয়ামেই হবে।”

অন্যদিকে গতকাল মহমেডান স্পোর্টিং ক্লাবের আইএফএ সচিব এই প্রসঙ্গে জানিয়েছেন, “দ্বিতীয় ডিভিশন আই লিগে খেলবে মাত্র পাঁচটি দল। তাই কল্যাণীতে ১০-১২ দিনের মধ্যে টুর্নামেন্ট সেরে ফেলতে কোনও অসুবিধা হবে না।” এ প্রসঙ্গে আইএফএ সচিব আরো জানিয়েছেন যে, আগামী পুজোর আগেই রাজ্যে অনুষ্ঠিত হতে চলেছে এই লীগের দ্বিতীয় ডিভিশনের ফুটবল ম্যাচ। কলকাতা সহ চারটি জেলায় আসন্ন এই খেলার আসর বসতে চলেছে। এই খেলাটি চলবে আগামী ২০২১ সালের ফেব্রুয়ারী মাস পর্যন্ত। আইএসএলের পদ্ধতি অনুসরন করে আসন্ন এই আই লিগেও অংশগ্রহণকারী সমস্ত দলগুলিকে দুটি বিভাগে বিভাজিত করা হবে।

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!