এখন পড়ছেন
হোম > জাতীয় > বড়সড় স্বস্তি মধ্যবিত্তের হেঁশেলে! কেন্দ্রের পদক্ষেপের পরেই হুড়মুড়িয়ে কমতে চলেছে দাম!

বড়সড় স্বস্তি মধ্যবিত্তের হেঁশেলে! কেন্দ্রের পদক্ষেপের পরেই হুড়মুড়িয়ে কমতে চলেছে দাম!



প্রিয় বন্ধু মিডিয়া রিপোর্ট – করোনা ভাইরাসের কারণে আবার আংশিক লকডাউনের পথে হেঁটেছে বিভিন্ন রাজ্যগুলো। বিভিন্ন জায়গায় সঙ্কটজনক পরিস্থিতি তৈরি হয়েছে। আর এই অবস্থায় সাধারণ মানুষদের সমস্যা যখন চরমে, ঠিক তখনই আশঙ্কা বাড়িয়ে বিভিন্ন জায়গায় তেলের দাম বাড়তে শুরু করেছে। যার ফলে আংশিক লকডাউনের ক্ষেত্রে মানুষ যখন রুজিরুটি হারানোর আশঙ্কা করছেন, তখন মধ্যবিত্তের হেঁসেলে আগুন জ্বালিয়ে তেলের মূল্যবৃদ্ধি রীতিমত হতাশ করেছে জনতা জনার্দনকে।

এই অবস্থায় বিভিন্ন রাজ্য সরকার অবিলম্বে যাতে তেলের দাম কমানো হয়, তার জন্য কেন্দ্রীয় সরকারের কাছে আবেদন করতে শুরু করেছে। শুধু তাই নয়, ভোট মিটতেই কেন এভাবে তেলের দাম বৃদ্ধি পাচ্ছে, তা নিয়ে প্রশ্ন তুলে দিয়েছে বিজেপি বিরোধী রাজনৈতিক দলগুলো। আর এই পরিস্থিতিতে তেলের দাম কমানোর ক্ষেত্রে বড় বার্তা দিল কেন্দ্রীয় সরকার। যার ফলে আশা তৈরি হয়েছে দেশবাসীর মধ্যে।

সূত্রের খবর, এদিন একটি সাংবাদিক সম্মেলন করেন কেন্দ্রীয় খাদ্যসচিব সুধাংশু মান্ডে। যেখানে খুব তাড়াতাড়ি এই মূল্যবৃদ্ধি কমতে পারে বলেই মনে করা হচ্ছে। এদিন এই প্রসঙ্গে তিনি বলেন, “সীমা শুল্ক ও এফসিআইয়ের সঙ্গে কথাবার্তা চলছে, কিভাবে বাজারে পর্যাপ্ত পরিমাণে জিনিসপত্রের যোগান বৃদ্ধি করা যায়। তার কারনেই দাম কমতে পারে।”

আমাদের নতুন ফেসবুক পেজ (Bloggers Park) লাইক ও ফলো করুন – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের টেলিগ্রাম গ্রূপে জয়েন করতে – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের সিগন্যাল গ্রূপে জয়েন করতে – ক্লিক করুন এখানে



আপনার মতামত জানান -

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, কিছুদিন আগে পর্যন্ত এক কিলো বনস্পতি তেলের দাম ছিল 90 টাকা। কিন্তু এখন তার দাম বেড়ে হয়েছে প্রতি কেজি 140 টাকা। অন্যদিকে সয়াবিন তেলের দাম আগে 105 টাকা হলেও এখন তার দাম হয়েছে 158 টাকা। এছাড়াও সর্ষের তেলের দাম অনেকটাই বৃদ্ধি হয়েছে। যার ফলে সাধারণ মানুষ এখন যথেষ্ট অস্বস্তিতে। তবে এবার সেই তেলের দাম কমতে পারে বলেই আশা করা হচ্ছে।

পর্যবেক্ষকদের একাংশ বলছেন, বর্তমানে করোনা পরিস্থিতিতে আংশিক লকডাউনের রাস্তায় হেটেছে বিভিন্ন রাজ্য। সেই জায়গায় অস্বস্তি বাড়িয়ে সারাদেশ জুড়ে তেলের দাম বৃদ্ধি চিন্তায় ফেলে দিয়েছে সাধারণ মানুষকে। আর এই পরিস্থিতিতে দ্রুত পদক্ষেপ গ্রহণের কথা বলেছে বিভিন্ন রাজ্য। সেই মত মানুষের মনে আশা জাগিয়ে কেন্দ্রীয় খাদ্য সচিবের এই বার্তা যথেষ্ট তাৎপর্যপূর্ণ বলেই মনে করছেন বিশেষজ্ঞরা।

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!