এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > কলকাতা > বিজেপির প্রার্থী তালিকা প্রকাশে কোন কোন দিক নজরে রাখা হচ্ছে? জেনে নিন

বিজেপির প্রার্থী তালিকা প্রকাশে কোন কোন দিক নজরে রাখা হচ্ছে? জেনে নিন



প্রিয় বন্ধু মিডিয়া রিপোর্ট – হাতে গুনে আর মাত্র কয়েকদিন বাকি একুশের বিধানসভা নির্বাচনের। এর মধ্যেই এবার প্রার্থী তালিকা চূড়ান্ত করার ব্যাপারে নেমে পড়েছে রাজনৈতিক দলগুলি। একদিকে যেমন তৃণমূলের পক্ষ থেকে ঝাড়াই-বাছাই পর্ব চলছে, ঠিক সেভাবেই গেরুয়া শিবিরও নিজের দলের শ্রেষ্ঠ যোদ্ধাদের শেষ বেলায় বেছে নিতে দলীয় স্তরে শুরু করেছে ব্যাপক আলোচনা। এক্ষেত্রে তৃণমূল নেত্রী যেমন দলের প্রার্থী তালিকা ব্যাপারে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেবেন বলে জানা গেছে, ঠিক সেভাবেই বাংলায় 294 টি আসনের প্রার্থী বিজেপি নেতা অমিত শাহ বাছবেন বলে জানা গিয়েছে।

তবে গেরুয়া শিবিরের প্রার্থী বাছতে গেলে বেশ কয়েকটি বিষয় সবার আগে নজরে রাখা প্রয়োজন বলে মনে করা হচ্ছে। প্রথমত, গেরুয়া শিবিরের সাথে অঙ্গাঙ্গিভাবে জড়িত আরএসএস। সেক্ষেত্রে আরএসএস এর ফর্মুলা মেনে চলতে হবে বিজেপিকে। সূত্রের খবর, সম্ভাব্য বাছাই প্রার্থীরা প্রার্থী তালিকায় স্থান পাবেন কোথায় জেতার সম্ভাবনা রয়েছে, সেই ভিত্তিতে। তবে শুধুমাত্র জেতার সম্ভাবনা নিয়ে বিজেপির প্রার্থী তালিকায় স্থান পাওয়া নিয়েও কিছুটা জটিলতা থাকছে বলে মনে করছেন বিশেষজ্ঞরা।


ফেসবুকে আমাদের নতুন ঠিকানা, লেটেস্ট আপডেট পেতে আজই লাইক ও ফলো করুন – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের টেলিগ্রাম গ্রূপে জয়েন করতে – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের সিগন্যাল গ্রূপে জয়েন করতে – ক্লিক করুন এখানে



আপনার মতামত জানান -

ক্ষমতা দখলের লড়াইতে নামলেও গেরুয়া শিবিরে কিন্তু সমস্যা তৈরি হয়েছে প্রার্থী বাছাইকে কেন্দ্র করে। প্রসঙ্গত, শাসক দল থেকে যারা গেরুয়া শিবিরে এসেছেন, তাঁরাই এই মুহূর্তে বিজেপির প্রথম সারির নেতা হিসাবে রাজ্যজুড়ে ঘুরে বেড়াচ্ছেন। পিছিয়ে পড়েছেন আদি নেতারা। যথারীতি এই নিয়ে বিজেপির আদি ও নব্য নেতাদের রাজনৈতিক দ্বন্দ্বের কথা সবার জানা। সুতরাং এবারের নির্বাচনে প্রার্থী তালিকা প্রকাশের ক্ষেত্রে আদি এবং নব্যের মধ্যে ভারসাম্য রক্ষা করাও যথেষ্ট গুরুত্বপূর্ণ।

পাশাপাশি সংঘ পরিবারের কথাও মাথায় রাখতে হবে বিজেপিকে। সেক্ষেত্রেও দলের সমতা বজায় রাখা অন্যতম চিন্তার ব্যাপারহয়ে দাঁড়াচ্ছে বলে মনে করা হচ্ছে। তবে রাজনৈতিক মহলের একাংশের মতে, এতদিন পর্যন্ত কেন্দ্রীয় শিবিরের যেসব পর্যবেক্ষকরা রাজ্যজুড়ে কাজ করে গিয়েছেন তাঁরা প্রার্থী ঘোষণার ক্ষেত্রে বড় ভূমিকা গ্রহণ করবেন। সেক্ষেত্রে। বিজেপির প্রার্থী তালিকা প্রকাশের পর গেরুয়া শিবিরে আদি এবং নব্য বিজেপি নেতাদের মন কতটা মন রাখা হয়, সেদিকে নজর থাকবে ওয়াকিবহাল মহলের।

 

আপনার মতামত জানান -

ট্যাগড
Top
error: Content is protected !!