এখন পড়ছেন
হোম > বিশেষ খবর > স্ত্রীকে অপহরণ করে জোর করে মনোনয়ন প্রত্যাহার, প্রতিবাদে বিষ খেলেন বিজেপিকর্মী

স্ত্রীকে অপহরণ করে জোর করে মনোনয়ন প্রত্যাহার, প্রতিবাদে বিষ খেলেন বিজেপিকর্মী



বাংলায় পঞ্চায়েত নির্বাচন উপলক্ষে আবার চাঞ্চল্যকর অভিযোগ উঠে এল রাজ্যের পরিবহন মন্ত্রী শুভেন্দু অধিকারীর গড় হিসাবে খ্যাত মেদিনীপুর। স্থানীয় সূত্রের খবর মেদিনীপুরের চন্দ্রকোনার মানিককুণ্ডু গ্রাম পঞ্চায়েতের বীরভানপুর গ্রামের বাসিন্দা সুজিত রায় আগে তৃণমূল কর্মী ছিলেন, পরে দলের প্রতি অভিমানে বিজেপিতে যোগদান করেন। তাঁর স্ত্রী কৃষ্ণা রায় এবার মানিককুণ্ডু গ্রাম পঞ্চায়েতে বিজেপি প্রার্থী হিসেবে মনোনয়ন জমা দিয়েছিলেন। বিজেপি শিবিরের অভিযোগ এরপর থেকেই মনোনয়ন প্রত্যাহারের জন্য তাঁর উপর চাপ আসছিল। দুদিন আগে কৃষ্ণাদেবীকে জোর করে বাড়ি থেকে তুলে নিয়ে গিয়ে জোর করে মনোনয়ন পত্র প্রত্যাহারের অভিযোগ তৃণমূল কর্মীদের বিরুদ্ধে।

আরো খবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

আর এই ঘটনা মেনে নিতে পারেননি সুজিতবাবু। অভিমানে, অপমানে তিনি কীটনাশক খেয়ে আত্মহত্যার চেষ্টা করেন। আশঙ্কাজনক অবস্থায় তাঁকে ঘাটাল হাসপাতালে ভর্তি করা হলে, গতকাল দুপুরে তাঁর মৃত্যু হয়। বিজেপির তরফে সুস্পষ্ট অভিযোগ স্থানীয় তৃণমূল কংগ্রেস নেতা অশোক ঘোষের পুত্রবধূ শর্মিষ্ঠা ঘোষ ওই একই আসনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন, ফলে অশোকবাবুর পুত্র উজ্জ্বল ঘোষ কৃষ্ণাদেবীকে বাড়ি থেকে তুলে নিয়ে গিয়ে মনোনয়ন প্রত্যাহার করাতে বাধ্য করেন এবং তারপর থেকেই সুজিতবাবুদের বাড়ি তৃণমূলের দুষ্কৃতীরা ঘিরে রেখেছে। এই নিয়ে পুলিশের কাছেও অভিযোগ জানানো হয়েছে বিজেপির তরফে। যদিও স্থানীয় তৃণমূল নেতৃত্ত্বের তরফে সমস্ত অভিযোগ অস্বীকার করে জানানো হয়েছে, নির্বাচনের আগে মাইলেজ পেতে অপপ্রচার চালাচ্ছে বিজেপি।

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!