এখন পড়ছেন
হোম > রাজনীতি > তৃণমূল > বিহারের ফলাফলে প্রভাব পড়ছে বাংলায়? দ্বিধা-বিভক্ত তৃণমূলের অন্দর!

বিহারের ফলাফলে প্রভাব পড়ছে বাংলায়? দ্বিধা-বিভক্ত তৃণমূলের অন্দর!



প্রিয় বন্ধু মিডিয়া রিপোর্ট –  বিহারের বিধানসভা নির্বাচনের ফলাফলের দিকে এতদিন তাকিয়েছিলেন সকলে। কেননা এই বিহারের নির্বাচনের ওপরেই নির্ভর করছে, আগামী দিনে পশ্চিমবঙ্গের নির্বাচন। পার্শ্ববর্তী রাজ্যে বিজেপি যদি এগিয়ে যায়, তাহলে পশ্চিমবঙ্গকে পাখির চোখ করা ভারতীয় জনতা পার্টি যে আরও বেশি করে উঠেপড়ে লাগবে, তা বলার অপেক্ষা রাখে না। জানা গেছে, এখনও পর্যন্ত বিহারের এগিয়ে রয়েছে এনডিএ জোট। তবে বিহারের এই ফলাফল নিয়ে তৃণমূলের দুই নেতার দুই ধরনের মন্তব্যে এখন ব্যাপক জল্পনা ছড়িয়ে পড়ল গোটা বাংলা জুড়ে। স্বভাবতই এই ঘটনায় ব্যাপক চাঞ্চল্য ছড়িয়ে পড়েছে।

সূত্রের খবর, বসিরহাট মহকুমা স্বরূপনগর সীমান্তে মালঙ্গপাড়া হাইস্কুল মাঠে একটি সভায় উপস্থিত হন রাজ্যের পঞ্চায়েত মন্ত্রী সুব্রত মুখোপাধ্যায়। যেখানে বিহারের ফলাফল নিয়ে মন্তব্য করেন তিনি। তবে এই ফলাফলে যে কোনো প্রভাব পড়বে না, তাও স্পষ্ট ভাষায় জানিয়ে দেন রাজ্যের পঞ্চায়েত মন্ত্রী সুব্রতবাবু। তিনি বলেন, “বিহারের নির্বাচনের ফলাফলে খুব বড় রকমের প্রভাব পড়বে না এই রাজ্যে। কারণ সেখানে রাজনীতি এক রকম, আর এখানে রাজনীতি আর একরকম। তবে যেহেতু দেশের মধ্যে অন্য রাজ্য, তাই সীমান্তবর্তী এড়িয়াগুলোতে কিছু কিছু প্রভাব পড়তে পারে।”

আর সুব্রত মুখোপাধ্যায় একথা বললেও, বিহারের ভোটের প্রভাব যে বাংলায় কিছুটা হলেও পড়বে, তার ব্যাপারে কিছু দিন আগেই মন্তব্য করেছিলেন তৃণমূলের আর এক সাংসদ সৌগত রায়। স্বাভাবিকভাবেই এখন সুব্রতবাবুর এই মন্তব্য নিয়ে তৃণমূলের অন্দরে এই দুই নেতার মধ্যেকার ফাটল প্রকাশ্যে চলে এল বলেই মনে করছেন বিশেষজ্ঞরা।

আমাদের নতুন ফেসবুক পেজ (Bloggers Park) লাইক ও ফলো করুন – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের টেলিগ্রাম গ্রূপে জয়েন করতে – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের সিগন্যাল গ্রূপে জয়েন করতে – ক্লিক করুন এখানে



আপনার মতামত জানান -

বস্তুত, কিছুদিন আগেই তৃণমূল সাংসদ সৌগত রায় বলেছিলেন, “বিহারের ভোটের প্রভাব বাংলায় পড়বে। বিহারে বিজেপি হারলে মোদি ভাবমূর্তি ধাক্কা হবে। ফলে রাজ্য উপকৃত হবে তৃণমূল।” কিন্তু বর্তমান সময় পর্যন্ত যা খবর, তাতে বিহারে ক্ষমতা দখলের জন্য এগিয়ে যাচ্ছে এনডিএ। ফলে বিজেপি অনেকটাই সুবিধাজনক জায়গায় রয়েছে। তাই এই পরিস্থিতিতে সুব্রত মুখোপাধ্যায়ের মত রাজ্যের প্রবীণ তৃণমূল নেতা প্রভাব পড়বে না বলে মন্তব্য করলেও, সৌগত রায়ের কিছুদিনকার আগের মন্তব্য নিয়ে উঠতে শুরু করেছে প্রশ্ন।

তাহলে তৃণমূলকে মন্তব্যকে হাতিয়ার করে এভাবে কিছুদিন আগেই যেখানে সৌগতবাবু জানিয়ে দিয়েছিলেন, সেই বিহারের নির্বাচনের প্রভাব পড়বে। সেখানে এখন সেই বিহারে বিজেপি জিততেই কেন তৃণমূলের সুব্রত মুখোপাধ্যায়ের মত অভিজ্ঞ রাজনীতিবিদ 180 ডিগ্রি ঘুরে গিয়ে জানিয়ে দিলেন যে, বিহারের কোনো প্রভাব বাংলায় পড়বে না! তাহলে কি তৃনমূল কংগ্রেস চাপে রয়েছে! আর তাই আগামী বিধানসভা নির্বাচনের আগে বিহারের ফলাফল দেখে এবং বিজেপির জয়লাভ দেখে সুব্রত মুখোপাধ্যায়ের মত প্রবীণ মন্ত্রী এই ধরনের মন্তব্য করলেন, তা নিয়ে উঠতে শুরু করেছে প্রশ্ন। সব মিলিয়ে তৃণমূলের দুই হেভিওয়েট নেতা বিহার নির্বাচনের ফলাফল নিয়ে দুই ধরনের মন্তব্যকে কেন্দ্র করে ব্যাপক জলঘোলা সৃষ্টি হয়েছে বঙ্গ রাজনীতিতে।

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!