এখন পড়ছেন
হোম > অন্যান্য > বাংলায় কবে থেকে জাঁকিয়ে পড়তে চলেছে শীত? হাওয়া অফিসের তরফে সামনে এল বড়সড় তথ্য, জানুন বিস্তারে

বাংলায় কবে থেকে জাঁকিয়ে পড়তে চলেছে শীত? হাওয়া অফিসের তরফে সামনে এল বড়সড় তথ্য, জানুন বিস্তারে



প্রিয় বন্ধু মিডিয়া রিপোর্ট- রোদ পড়লেই বিকেলের দিকে বাতাসে একটা ঠাণ্ডা আমেজ বা ভোরের দিকে বেশ শীত শীত ভাব অনুভব করতে শুরু করেছেন অনেকেই। যদিও এখনই রাজ্যে শীতের আগমন হতে চলেছে কিনা সে কথা বলা যাচ্ছে না। তবে ভোরবেলা ঘুম থেকে উঠে পাখা বন্ধ করতে হচ্ছে অনেককেই। অন্যদিকে মর্নিং ওয়াক করতে যাওয়ার অভ্যাস আছে যাদের, তাদের মধ্যে ভোরবেলা একটা কুয়াশা কুয়াশা ভাব অনেকেই অনুভব করেছেন নিশ্চয়।

তাই এত কিছু দেখে যদি ভেবে থাকেন শীত প্রায় এসে পড়ল, তাহলে ভুল করবেন বলেই জানিয়ে দিচ্ছে হাওয়া অফিস। এ বছর সময়ের থেকে একটু দেরিতে বাংলা থেকে বর্ষা বিদায় নিয়েছে এটা ঠিকই। তবে বস্তুত নিম্নচাপের ফেরেই এবছর বর্ষা পুজোর সময়ও ভেলকি দেখিয়েছে মানুষকে।

যদিও এবছর শুরু থেকে একাধিক নিম্নচাপে বাংলা জেরবার হয়েছে, তবুও কৃষিপ্রধান দেশে বর্ষার কথা আলাদা করে বলতেই হয়। আর বর্ষা বিদায় নেওয়ার সঙ্গে সঙ্গেই রাজ্যে উত্তর-পশ্চিমের বাতাস ঢুকতে শুরু করেছে সেকথাও জানা গেছে হাওয়া অফিসের তরফে। আর যে কারণে ভোররাতে তাপমাত্রা যে অনেকটাই নেমে যাচ্ছে সেটাই অনুভব করছেন রাজ্যবাসী।


WhatsApp-এ প্রিয় বন্ধু মিডিয়ার খবর পেতে – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের অন্যান্য সোশ্যাল মিডিয়া গ্রূপের লিঙ্ক – টেলিগ্রামফেসবুক গ্রূপ, ট্যুইটার, ইউটিউব, ফেসবুক পেজ

আমাদের Subscribe করতে নীচের বেল আইকনে ক্লিক করে ‘Allow‘ করুন।

এবার থেকে আমাদের খবর পড়ুন DailyHunt-এও। এই লিঙ্কে ক্লিক করুন ও ‘Follow‘ করুন।



আপনার মতামত জানান -

বস্তুত, ১২ই অক্টোবর কলকাতা থেকে বর্ষা বিদায় নেওয়ার কথা থাকলেও সে কিন্তু পূজো পর্যন্ত তার চাপ রেখে দিয়েছিল। তাই প্রতিবছর যেখানে অক্টোবরের মাঝামাঝি সময়ে রাজ্যে উত্তর-পশ্চিম শুষ্ক বায়ুর আগমন ঘটে, এবারে তা সম্ভব হয়নি। তাই পুজোর আগে পর্যন্ত রাতের দিকে বেশ গরম অনুভব করেছিলেন রাজ্যবাসী।

সেইসঙ্গে বাতাসে জলীয়বাষ্পের পরিমাণ বেশি থাকায় আদ্রতাজনিত অস্বস্তিতে পড়তে হয়েছিল রাজ্যবাসীকে। যার কারণ হিসেবে আলিপুর আবহাওয়া দপ্তর বারবারই ইঙ্গিত করেছিলেন নিম্নচাপকে। তবে পুজোর মুখে যে নিম্নচাপের চোখ-রাঙানিতে বাংলার মানুষ বেশ ভয় পেয়েছিলেন সে কথা আলাদা করে বলতে হয় না।

তবে ইতিমধ্যে সেই নিম্নচাপ যে বাংলাদেশের দিকে সরে যাওয়ায় রাজ্যে অনেকটাই হাওয়া বদল হয়েছে সেকথাও জানা গেছে। তবে রাতে বা ভোরের দিকে শীত শীত ভাব হলেও বঙ্গে যে শীত এখনই ধরা দিচ্ছে না, সে কথাই জানিয়েছে আবহাওয়া দপ্তর। তাই আপাতত এই মাসটা রাজ্যবাসীকে এমন ভাবেই কাটবে বলেই জানা গেছে।

তবে এই সময় কলকাতার তাপমাত্রা ২০ থেকে ২১ ডিগ্রী সেলসিয়াসের কাছাকাছি থাকলেও সামনের মাসের শুরুর দিকে বঙ্গোপসাগরে নিম্নচাপ সৃষ্টি হতে পারে বলেও জানা গেছে। যার ফলে উত্তর-পশ্চিম শুষ্ক বাতাসকে কাটিয়ে আবারো দক্ষিণের বাতাস রাজ্যে প্রবেশ করবে বলেই মনে করছেন আবহাওয়াবিদরা। যার ফলে আকাশ মেঘলা থাকবে, সেই সঙ্গে রাতের দিকে তাপমাত্রা বাড়তে পারে বলেও জানা গেছে। তবে হেমন্তের হাতছানি এখনই যে চলে যাচ্ছে না সেই আশাও দিয়েছেন হাওয়া অফিসের কর্তারা।

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!