এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > কলকাতা > বাংলায় বিজেপির মুখমন্ত্রী মুখ কি ইনি? দ্বায়িত্ব বাড়ায় উঠছে প্রশ্ন!

বাংলায় বিজেপির মুখমন্ত্রী মুখ কি ইনি? দ্বায়িত্ব বাড়ায় উঠছে প্রশ্ন!



আপনাদের সুবিধার্থে খবরের শেষে বিধানসভা ২০২১ উপলক্ষে আমাদের করা সর্বশেষ সমীক্ষার প্রতিটির লিঙ্ক দেওয়া আছে।

আপনার মতামত জানান -

প্রিয় বন্ধু মিডিয়া রিপোর্ট – ইতিমধ্যেই বাংলায় বিজেপির বিধানসভা নির্বাচনের মুখ নিয়ে কম জলঘোলা হয়নি। আর এরকম পরিস্থিতিতে অনেকবারই সামনে এসেছে বিজেপির সম্ভাব্য বাংলার নির্বাচনের মুখের নাম। যদিও এরই মধ্যে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ বঙ্গ সফরে এসে সাফ জানিয়ে দিয়েছেন যে, মুখ্যমন্ত্রী পদপ্রার্থী হিসেবে তাঁরা কাউকে তুলে ধরবেন না।

প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে সামনে রেখেই বিজেপি নির্বাচনে অংশ নেবে। আর পরবর্তীকালে দল ভোটে জিতলে কেন্দ্রীয় নেতৃত্বের হস্তক্ষেপে মুখ্যমন্ত্রী ঠিক করা হবে। অন্যদিকে তৃণমূলের পন্থা অবলম্বন করেই এবার অমিত শাহের সফরের পর বাংলায় বুদ্ধিজীবীদের নিজেদের দিকে টানতে কর্মসূচি নিতে দেখা গেছে বিজেপিকে। আর সেখানেই কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী রাজ্য সফরে এসে প্রখ্যাত সঙ্গীত শিল্পী অজয় চক্রবর্তীর বাড়িতে গিয়েছিলেন।

তবে সম্প্রতি মনে করা হচ্ছে বিজেপির সেই বুদ্ধিজীবীদের তালিকায় সবচেয়ে বেশি গুরুত্ব পেয়েছেন ডাক্তার অনির্বাণ গাঙ্গুলি। আর সেক্ষেত্রে, তাঁর মতো ব্যক্তিত্ব যদি গেরুয়া শিবিরের পক্ষে থাকেন তবে বিধানসভা নির্বাচনে দল অনেকটাই সুবিধাজনক জায়গায় থাকবে বলেই মনে করছে বিজেপি। আর তাই অনির্বাণ গাঙ্গুলিকে বিজেপি আগামীদিনে নিজেদের দলে নিয়ে আসার কথা ভাবছেন বলেই জানা গেছে।

আমাদের নতুন ফেসবুক পেজ (Bloggers Park) লাইক ও ফলো করুন – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের টেলিগ্রাম গ্রূপে জয়েন করতে – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের সিগন্যাল গ্রূপে জয়েন করতে – ক্লিক করুন এখানে



আপনার মতামত জানান -

বিশেষজ্ঞদের মতে, বিজেপি সম্ভবত মনে করছে, তাঁর মত ব্যক্তিত্বকে রাখতে পারলে সমাজের চিন্তাশীল মানুষদের প্রতি একটা বিশেষ বার্তা দেওয়া সম্ভব হবে। কারণ অনির্বাণ গাঙ্গুলির মতো বিশিষ্ট ব্যক্তিরা যে কোনো দলের কাছেই সম্পদ হয়ে উঠতে পারেন। তথ্য সূত্রে জানা গেছে, মাধ্যমিকে পঞ্চম এবং উচ্চমাধ্যমিকে সপ্তম স্থান অধিকার করে তিনি ডাক্তারি পরীক্ষাতেও ১৭তম স্থান পান।

এরপর এইমস থেকে ডাক্তারিতে এমডি করেছেন তিনি। এছাড়া দীর্ঘদিন ধরে তিনি বেলুড় মঠের সান্নিধ্যে রয়েছেন বলেও জানা গেছে। সেইসঙ্গে শাস্ত্রীয় সংগীতে তাঁর দখলের কথা অনেকেরই জানা। বস্তুত, বিশ্লেষকদের মতে, তাঁর মত সত্‍, পরিমার্জিত, শিক্ষিত রুচিবান বাঙালির প্রতি রাজ্যের মানুষের যে একটা আলাদা টান থাকবে, সেটা আলাদা করে বলার অপেক্ষা রাখে না।

যদিও অনির্বাণবাবু বিজেপির ডাকে কতটা সাড়া দেবেন তা এখনো জানা যায়নি। তবে অনির্বাণবাবুর মতো ব্যক্তিত্ব সরাসরি রাজনীতির মঞ্চে আসবেন কিনা সেটা নিয়ে এখনও নিশ্চিত করে কিছু জানা যায়নি। তবে তিনি অন্তত বিজেপির সমর্থনে বিভিন্ন জায়গায় কিছু বক্তব্য রাখলেও যে সেটাই দলের কাছে বিরাট পাওনা হবে, তেমনটাই মনে করেছেন অনেক বিশ্লেষক।

একনজরে দেখে নিন আমাদের সর্বশেষ বিধানসভা ২০২১ ওপিনিয়ন পোল –

# মুর্শিদাবাদ জেলার ওপিনিয়ন পোল – দ্বিতীয় পর্ব – 

# মুর্শিদাবাদ জেলার ওপিনিয়ন পোল – প্রথম পর্ব – 

# মালদহ জেলার ওপিনিয়ন পোল –

# দক্ষিণ দিনাজপুর জেলার ওপিনিয়ন পোল –

# উত্তর দিনাজপুরে জেলার ওপিনিয়ন পোল –

# জলপাইগুড়ি ও কালিম্পঙ জেলার ওপিনিয়ন পোল –

# আলিপুরদুয়ার ও দার্জিলিং জেলার ওপিনিয়ন পোল –

# কুচবিহার জেলার ওপিনিয়ন পোল –

আপনার মতামত জানান -
আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!