এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > মালদা-মুর্শিদাবাদ-বীরভূম > বিরোধীদের জন্ডিস হয়েছে, কোথায় চিকিৎসা করাতে হবে পরে বলে দেব: অনুব্রত মণ্ডল

বিরোধীদের জন্ডিস হয়েছে, কোথায় চিকিৎসা করাতে হবে পরে বলে দেব: অনুব্রত মণ্ডল



আসন্ন লোকসভা নির্বাচনের আগে সকলকে “নকুল দানা” খাওয়ার কথা বলে শিরোনামে চলে এসেছিলেন বীরভূম জেলা তৃণমূলের সভাপতি অনুব্রত মণ্ডল। আর যা নিয়ে এই অনুব্রত মণ্ডলের বিরুদ্ধে নির্বাচন কমিশনে অভিযোগও করেছে বিরোধীরা। কিন্তু এবার অতীতের সমস্ত মন্তব্যকে ছাপিয়ে গিয়ে বীরভূমের আউসগ্রামের দেবশালায় নির্বাচনী প্রচারে এসে ফের বিরোধীদের কড়া ভাষায় আক্রমণ করলেন বীরভূম জেলা তৃণমূল সভাপতি‌।

সূত্রের খবর, রবিবার এই সভা থেকে অনুব্রত মণ্ডলের বক্তব্যের বেশিরভাগটাই বিজেপির নরেন্দ্র মোদী এবং অমিত শাহর বিরুদ্ধে ছিল। এদিন অনুব্রত মণ্ডল বলেন, “ক্ষমতা থাকলে অমিত শাহ বীরভূম থেকে ভোটে দাড়িয়ে দেখাক। আর এখান থেকে নির্বাচনে হলে ওকে পাঁচ থেকে ছয় লক্ষ ভোটে হারাব।

এবারে আর নরেন্দ্র মোদি ক্ষমতায় আসতে পারবে না। আমি অনেক নির্বাচন দেখেছি, কিন্তু এত দুর্বল নির্বাচন কোনোদিন দেখিনি। এবারে আমাদের একটা জল্লাদ, আর একটা চোরকে তাড়াতে হবে। মোদি নিজেকে ছাড়া আর কাউকে ভালোবাসেনা। আর মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় সাধারণ মানুষের কথা ভাবেন।”


WhatsApp-এ প্রিয় বন্ধু মিডিয়ার খবর পেতে – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের অন্যান্য সোশ্যাল মিডিয়া গ্রূপের লিঙ্ক – টেলিগ্রামফেসবুক গ্রূপ, ট্যুইটার, ইউটিউব, ফেসবুক পেজ

আমাদের Subscribe করতে নীচের বেল আইকনে ক্লিক করে ‘Allow‘ করুন।

এবার থেকে আমাদের খবর পড়ুন DailyHunt-এও। এই লিঙ্কে ক্লিক করুন ও ‘Follow‘ করুন।



আপনার মতামত জানান -

পাশাপাশি মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে উন্নয়নের প্রতীক ও সততার প্রতীক বলে অভিহিত করে এদিনের সভা থেকে ফের বামেদের বিরুদ্ধে তোপ দেগে অনুব্রত মণ্ডল বলেন, “34 বছরে ওরা শুধু মানুষের রক্ত চুষেছে। কোনো কাজ করেনি।” আর এরপরই ফের সকলকে নকুলদানা খাওয়ানোর কথা বলে বিরোধীদের উদ্দেশ্যে অনুব্রত মণ্ডলের মন্তব্য, “ওদের জন্ডিস হয়েছে। রোগটা খুব বাজে। আস্তে আস্তে শুকিয়ে যায়। এই রোগের কোথায় চিকিৎসা করাতে হবে, তা আমি পরে বলে দেব।”

এদিকে অনুব্রত মণ্ডলের এহেন মন্তব্যের পাল্টা কটাক্ষ করেছেন পশ্চিম বর্ধমান জেলা বিজেপির সভাপতি লক্ষণ ঘোড়ুই। এদিন তিনি বলেন, “তৃণমূলের তো ক্যান্সার হয়েছে। ওরা এখনো ওদের রোগ ধরতে পারছে না। ভোটের পর যখন ওরা টের পাবে, তখন আর ওদের কিছু করার থাকবে না।”

সব মিলিয়ে এবার আসন্ন লোকসভা নির্বাচনের আগে বিরোধীদের জন্ডিস হয়েছে বলে মন্তব্য করে ফের শিরোনামে চলে আসলেন বীরভূম জেলা তৃণমূলের সভাপতি অনুব্রত মণ্ডল।

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!